আজ শুক্রবার বিকেলে এক বিবৃতিতে এলডিপির সভাপতি আবদুল করিম আব্বাসী ও মহাসচিব শাহাদাত হোসেন এ কথা বলেন।

বিবৃতিতে বিএনপির নেতৃত্বাধীন ২০-দলীয় জোটের শরিক দল এলডিপির দুই নেতা বলেন, সরকারের ব্যর্থতায় লকডাউন অকার্যকর হয়ে তামাশায় পরিণত হচ্ছে।

মহামারিতে নিঃস্ব মানুষের দায়িত্ব না নিলে লকডাউন কেন কারফিউ দিয়েও মানুষকে ঘরে রাখা যাবে না। বাঁচার তাগিদে আয়–রোজগারের আশায় মানুষ ঝুঁকি নিয়ে হলেও ঘরের বাইরে বেরিয়ে পড়বেই।

বিবৃতিতে অভিযোগ করা হয়, সরকার করোনা নিয়ন্ত্রণে কোনো পরিকল্পিত ও কার্যকর রোডম্যাপ তৈরি করতে পারেনি। সরকারের অযোগ্যতার কারণে লকডাউন অকার্যকর হয়ে পড়েছে। রোগীর চাপে সরকারি হাসপাতাল ও স্বাস্থ্যসেবা প্রতিষ্ঠানগুলোতে জরুরি চিকিৎসা উপকরণ ও ওষুধের সংকট দেখা দিয়েছে।

এ ছাড়া হাসপাতালগুলোতে আইসিইউ বেড, হাই ফ্লো নাজাল ক্যানুলা ও অক্সিজেন সিলিন্ডারের পরিমাণ অপর্যাপ্ত। জেলা হাসপাতালগুলোর পরিস্থিতি সব থেকে মারাত্মক আকার ধারণ করেছে।

বিবৃতিতে বেশি সংক্রমিত জেলাগুলোকে অগ্রাধিকার দিয়ে করোনার টিকা প্রদান কার্যক্রম জোরদার করার আহ্বান জানিয়েছেন এলডিপির দুই নেতা।