‘খালেদা জিয়াকে এই মাটিতে রাজনীতি করতে হলে জাতির কাছে ক্ষমা চাইতে হবে। শেখ হাসিনার সময়ে যাদের জ্বালাও-পোড়াও করেছেন, তাদের প্রত্যেকটি পরিবারের কাছে গিয়ে ক্ষমা চাইতে হবে। ক্ষমা না চাইলে তাঁর সাথে কোনো আলাপ-আলোচনার প্রয়োজন আছে বলে আমরা মনে করি না।’
সমাজকল্যাণমন্ত্রী সৈয়দ মহসিন আলী গত সোমবার বিকেলে মৌলভীবাজার সরকারি উচ্চবিদ্যালয় মাঠে এক জনসভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে এসব কথা বলেন।
বিএনপি-জামায়াত-শিবিরের সহিংসতার প্রতিবাদে জেলা আওয়ামী লীগের একটি পক্ষ (মহসিন আলীর নেতৃত্বাধীন) ওই জনসভার আয়োজন করে।
মন্ত্রী বলেন, ‘আজ (সোমবার) সুনামগঞ্জ থেকে মৌলভীবাজার আসার সময় আমার গাড়িবহরে তিন অঙ্গুলির ত্রিশুল মারা হয়েছে। আমাদের রেকর্ড থেকে আমরা তাদের পেয়ে গেছি। যারা ত্রিশূল মেরেছ, তোমাদের মাকে বলে দিয়ো, আগামী দিনের জন্য তুমি সাফাই।’
আওয়ামী লীগের নেতা মোহাম্মদ ফিরোজের সভাপতিত্বে জনসভায় অন্যান্যের মধ্যে বক্তব্য দেন আওয়ামী লীগের নির্বাচন পরিচালনা কমিটির সদস্য সৈয়দ বজলুল করিম, জেলা মহিলা আওয়ামী লীগের সভানেত্রী সৈয়দা জহুরা আলাউদ্দিন, রাজনগর উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান আছকির খান, জেলা জাসদের সভাপতি আবদুল হক, জেলা ন্যাপের সাধারণ সম্পাদক চৌধুরী নীহারেন্দু হোম সজল, সদর উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি মসুদ আহমদ প্রমুখ। পরে একটি বিক্ষোভ মিছিল মৌলভীবাজার শহর প্রদক্ষিণ করে।

বিজ্ঞাপন
রাজনীতি থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন