default-image

জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যান ও সংসদের বিরোধীদলীয় উপনেতা জি এম কাদের বলেছেন, রাজনীতিতে ইতিবাচক পরিবর্তন আনয়ন, গণতন্ত্রের বিকাশ এবং দেশের উন্নয়নে জাতীয় সংসদে ও সংসদের বাইরে কাজ করে যাচ্ছে জাতীয় পার্টি। জনগণের আকাঙ্ক্ষা ও প্রয়োজনের খাতিরে জাতীয় পার্টি এই দায়িত্ব পালন করছে এবং করবে।

লালমনিরহাট সদর উপজেলা পরিষদ মিলনায়তনে সোলার প্যানেল ও শীতার্তদের মধ্যে কম্বল বিতরণ অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে আজ রোববার দুপুরে এসব কথা বলেন জি এম কাদের।

লালমনিরহাট-৩ (সদর) আসন থেকে তিনবার সাংসদ নির্বাচিত হওয়া জি এম কাদের বলেন, লালমনিরহাটকে এগিয়ে নিতে তাঁর উন্নয়ন পরিকল্পনাগুলো তিনি সংসদে ও সংসদের বাইরে উত্থাপন করেছেন। এর মধ্যে রয়েছে সদর উপজেলার মহেন্দ্রনগর ইউনিয়নে ৫৭০ একর জমিতে অর্থনৈতিক অঞ্চল স্থাপন করা, মোগলহাট শুল্ক ও স্থলবন্দর স্থাপনের ঘোষণার বাস্তবায়ন করা, লালমনিরহাটের পরিত্যক্ত বিমানবন্দর চালু করা ইত্যাদি। এ ছাড়া প্রস্তাবিত বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান অ্যারোস্পেস ও এভিয়েশন বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রধান ক্যাম্পাস স্থাপনের ঘোষণা বাস্তবায়নে দ্রুত কার্যকর পদক্ষেপ নিতে সংশ্লিষ্টদের প্রতি আহ্বান জানান তিনি। লালমনিরহাটের মানুষের সার্বিক অর্থনৈতিক সমৃদ্ধিই তাঁর রাজনীতি করার লক্ষ্য ও উদ্দেশ্য।

সাংবাদিকদের এক প্রশ্নের জবাবে জি এম কাদের বলেন, ঢাকা সিটি করপোরেশন নির্বাচনে লেভেল প্লেয়িং ফিল্ড রয়েছে। শেষ পর্যন্ত এটি বজায় থাকবে বলে আশা প্রকাশ করে তিনি বলেন, এখন পর্যন্ত নির্বাচনী প্রচারণায় কোনো পক্ষকে বাধা দেওয়ার কোনো অভিযোগ পাওয়া যায়নি। এটি প্রত্যাশিতও নয়।

সোলার প্যানেল বিতরণ অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন লালমনিরহাট সদর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) উত্তম কুমার রায়। অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি হিসেবে ছিলেন লালমনিরহাট সদর উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান মো. কামরুজ্জামান সুজন, জেলা জাতীয় পার্টির যুগ্ম আহ্বায়ক এস কে খাজা মঈনুদ্দিন ও জেলা জাতীয় পার্টির সদস্যসচিব মো. সেকেন্দার আলী।

বিজ্ঞাপন
মন্তব্য পড়ুন 0