বিজ্ঞাপন

ছাত্র ফেডারেশনের কেন্দ্রীয় দপ্তর সম্পাদক এম এইচ রিয়াদের সঞ্চালনায় এই সমাবেশে সংগঠনের কেন্দ্রীয় সাধারণ সম্পাদক জাহিদ সুজন সভাপতিত্ব করেন।
জাহিদ সুজন বলেন, ‘করোনাকালকে বিবেচনায় নিয়ে যেহেতু নিয়োগ পরীক্ষার হার ১৩ শতাংশে নেমে এসেছে, করোনাকালকে লুপ্ত বছর ধরে ২০২০ সালের এইচএসসি পরীক্ষার্থীদের পর থেকে সব ব্যাচের জন্য চাকরির বয়স উন্মুক্ত করার দাবি জানাই। সরকার শিক্ষার্থী ও চাকরিপ্রত্যাশীদের প্রতি মানবিক থাকলে অবশ্যই তা মাথায় নেবে বলে আমরা মনে করি।’

জাহিদ সুজন বলেন, ২০১১ সালে চাকরি থেকে অবসরের সময় দুই বছর বাড়ানো হলেও চাকরিতে যোগদানের বয়স এখনো বাড়েনি। তা ছাড়া ১৯৯২ সালে যখন সরকারি চাকরিতে যোগদানের বয়সসীমা ২৭ থেকে ৩০ করা হয়, তখন দেশের মানুষের গড় আয়ু ছিল ৫৭ বছর। এখন গড় আয়ু বেড়ে ৭৩ বছর হয়েছে। ফলে এই দিক বিবেচনা করলেও সরকারি চাকরিতে যোগদানের বয়স না বাড়ানোর কোনো কারণ নেই। অবিলম্বে এই দাবি মেনে নেওয়া হোক।

অবিলম্বে দেশীয় শিল্পবান্ধব শিল্পনীতি প্রণয়নের পাশাপাশি দেশে কর্মসংস্থান তৈরি করার পরিকল্পনাও সরকারের কাছে দাবি করেন ছাত্র ফেডারেশনের নেতা জাহিদ সুজন।

সমাবেশে অন্যদের মধ্যে সংগঠনটির ঢাকা মহানগর শাখার আহ্বায়ক সৈকত আরিফ ও সম্পাদক অনুপম রায়, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের সাংগঠনিক সম্পাদক মো. সজীব হোসেন উপস্থিত ছিলেন।

রাজনীতি থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন