default-image

‘সরকারের সব অপকর্ম ও অপশাসনের মূলোৎপাটনে জনগণের ক্ষোভ এখন তীব্র থেকে তীব্রতর হচ্ছে’ বলে দাবি করেছেন বিএনপির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর। তিনি বলেন, জনগণের ক্ষমতা জনগণের কাছে ছেড়ে দেওয়া না হলে অবৈধ সরকারের রাজসিংহাসন যেকোনো মুহূর্তে দুমড়ে-মুচড়ে ফেলবে দেশের স্বাধীনতাকামী মানুষ।

আজ বুধবার বিকেলে গণমাধ্যমে পাঠানো এক বিবৃতিতে মির্জা ফখরুল ইসলাম এসব কথা বলেন।

মির্জা ফখরুল চিকিৎ​সার জন্য বর্তমানে সিঙ্গাপুরে আছেন। দলের সহদপ্তর সম্পাদক বেলাল আহমেদ গণমাধ্যমে বিবৃতিটি পাঠান।

বিজ্ঞাপন

বিবৃতিতে বিএনপির মহাসচিব বলেন, ৩০ ডিসেম্বরের নির্বাচনের আগের রাতে ভোটের মাধ্যমে নির্লজ্জভাবে রাষ্ট্রক্ষমতা দখলকারী আওয়ামী সরকার এখন ফ্যাসিবাদী কায়দায় দেশ শাসন শুরু করেছে। বিএনপিসহ বিরোধীদলীয় নেতা-কর্মীদের রাজনীতির অঙ্গন থেকে সরিয়ে দিতে মিথ্যা মামলা দায়ের এবং আদালতে জামিন নামঞ্জুর যেন সরকারের দৈনন্দিন কর্মসূচিতে পরিণত হয়েছে। আর এই কর্মসূচি সফল করার লক্ষ্যে মানুষের ভোটের অধিকার এবং গণতান্ত্রিক অধিকার কেড়ে নেওয়া হয়েছে।

দলের সাবেক সাংসদ ও কেন্দ্রীয় বাণিজ্যবিষয়ক সম্পাদক সালাহউদ্দিন আহমেদকে আজ একটি মামলায় আদালত জামিন বাতিল করে কারাগারে পাঠান।

এর নিন্দা ও প্রতিবাদ জানিয়ে বিএন​পির মহাসচিব বলেন, দেশ শাসনে নজিরবিহীন ব্যর্থতা ঢাকতেই সরকার বিএনপির নেতা-কর্মীদের মিথ্যা মামলায় কারাগারে আটকে রাখতে উন্মাদ হয়ে গেছে। তিনি অবিলম্বে সালাহউদ্দিন আহমেদের মুক্তির দাবি জানান।

রাজনীতি থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন