default-image

আইনশৃঙ্খলা পরিস্থিতির অবনতিতে গভীর উদ্বেগ জানিয়ে জাতীয় পার্টির (জাপা) চেয়ারম্যান জি এম কাদের বলেছেন, দেশের খুন ও ধর্ষণের ঘটনা আন্তর্জাতিক ইস্যু হয়ে দাঁড়িয়েছে। আইনের শাসন ও সুশাসনের অভাবে দেশে খুন, ধর্ষণ এবং অনাচার-অবিচার বেড়ে গেছে।

আজ সোমবার দুপুরে জাপার চেয়ারম্যানের বনানীর কার্যালয়ে নবগঠিত জাতীয় সাংস্কৃতিক পার্টির পরিচিতি অনুষ্ঠানে জি এম কাদের এ কথা বলেন। তিনি বলেন, আইনের ফাঁক দিয়ে প্রকৃত অপরাধীরা পার পেয়ে যায়, আর সে কারণেই অপরাধপ্রবণতা বেড়ে যায়। আইনের শাসনে কিছুটা ঘাটতি আছে বলেই মানুষ নিজ হাতে আইন তুলে নিচ্ছে, যা কোনোভাবেই গ্রহণযোগ্য নয়।

পবিত্র কোরআন অবমাননার অভিযোগে লালমনিরহাটে এক যুবককে পিটিয়ে ও পুড়িয়ে হত্যার ঘটনা উল্লেখ করে জি এম কাদের বলেন, ইউনিয়ন পরিষদে আশ্রয় চেয়েও বাঁচতে পারেননি তিনি। যদি তিনি অপরাধী হন, তাঁকে আইনের মুখোমুখি করা যেত। অপরাধ প্রমাণিত হলে প্রচলিত আইনেই তাঁকে শাস্তি দেওয়া যেত। তিনি নৃশংস হত্যাকাণ্ডের নিন্দা ও প্রতিবাদ জানান।

বিজ্ঞাপন

জাতীয় সাংস্কৃতিক পার্টির আহ্বায়ক জাপার চেয়ারম্যানের স্ত্রী শেরিফা কাদের। তিনি স্বপ্নের নতুন বাংলাদেশ গড়তে সাংস্কৃতিক পার্টিকে আরও শক্তিশালী করার নির্দেশ দেন।

শেরিফা কাদেরের সভাপতিত্বে ও সাংস্কৃতিক পার্টির সদস্যসচিব আলাউদ্দিন আহমেদের সঞ্চালনায় অনুষ্ঠানে আরও বক্তব্য দেন জাপার মহাসচিব জিয়াউদ্দিন আহমেদ বাবলু, দলের কো-চেয়ারম্যান সালমা ইসলাম, সভাপতিমণ্ডলীর সদস্য এস এম ফয়সাল চিশতী, মীর আবদুস সবুর, শামীম হায়দার পাটোয়ারি, রেজাউল ইসলাম ভূঁইয়া, নাজমা আকতার, আলমগীর শিকদার ও ভাইস চেয়ারম্যান আহসান আদেলুর রহমান প্রমুখ।

মন্তব্য পড়ুন 0