বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন

জনগণের পিঠ দেয়ালে ঠেকেছে উল্লেখ করে বিএনপি মহাসচিব বলেন, ‘দারিদ্র্য বাড়ছে, কিন্তু তাদের কোনো খেয়াল নেই। তারা উন্নয়ন দিচ্ছে। এমন উন্নয়ন দিচ্ছে, আমরা নাকি দেখতে পাই না। সেই উন্নয়নে পিলার দেখি, উড়ালসেতু দেখি, সাধারণ মানুষের কী হচ্ছে? গরিব থেকে গরিব হচ্ছে।’ দারিদ্র্যের কারণে সন্তানসহ পরিবারের আত্মহত্যা বেড়েছে বলে দাবি করেন মির্জা ফখরুল।
মির্জা ফখরুল আরও বলেন, বিচারব্যবস্থা কোন জায়গায় পৌঁছেছে। আপিলের রায় আসার আগেই মৃত্যুদণ্ড দিয়ে দিচ্ছে। কোথাও কোনো জবাবদিহি নেই। নৈরাজ্য সৃষ্টি করেছে তারা।

জ্বালানি তেলের মূল্যবৃদ্ধির বিষয়ে জনগণের প্রতিবাদ ছড়িয়ে দেওয়ার কথা বলেন বিএনপির মহাসচিব। তিনি বলেন, জনগণকে জাগিয়ে তুলতে হবে। আওয়ামী লীগ যত দিন থাকবে, জনগণের ভোগান্তি বাড়বে, মানুষ অসহায় হবে, গরিব থেকে আরও গরিব হবে। অর্থনৈতিক স্বাধীনতা নষ্ট হবে, কথা বলার সুযোগ থাকবে না। জনগণকে ঐক্যবদ্ধ করতে হবে।

default-image

মানববন্ধন থেকে জ্বালানি ও দ্রব্যের মূল্যবৃদ্ধির প্রতিবাদে কর্মসূচি ঘোষণা করে মির্জা ফখরুল বলেন, ১০ নভেম্বর ঢাকা বাদে দেশের অন্য মহানগরগুলোতে প্রতিবাদ সমাবেশ হবে। ১২ নভেম্বর জেলা সদরে বিক্ষোভ সমাবেশ হবে।

মানববন্ধনে আরও বক্তব্য দেন বিএনপির ঢাকা মহানগর উত্তরের আহ্বায়ক আমানউল্লাহ আমান, বিএনপির ঢাকা মহানগর (দক্ষিণ) কমিটির আহ্বায়ক আবদুস সালাম, বিএনপির যুগ্ম মহাসচিব খায়রুল কবির খোকন প্রমুখ।

রাজনীতি থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন