ভোট ছাড়াই তিন বছরের জন্য যশোর জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি পদে শহিদুল ইসলাম ও সাধারণ সম্পাদক পদে শাহিন চাকলাদারের নাম ঘোষণা করা হয়েছে। গতকাল বৃহস্পতিবার বিকেলে যশোর শহরের কেন্দ্রীয় ঈদগাহ মাঠে জেলা আওয়ামী লীগের ত্রিবার্ষিক কাউন্সিল অধিবেশনে দলের কেন্দ্রীয় যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মাহাবুব উল আলম হানিফ এ ঘোষণা দেন।
শাহিন চাকলাদার দ্বিতীয় মেয়াদে সাধারণ সম্পাদক মনোনীত হন। আর শহিদুল ইসলাম বিলুপ্ত কমিটির সহসভাপতি ছিলেন। ভোট ছাড়াই কমিটির গুরুত্বপূর্ণ দুই পদের নাম ঘোষণা করায় কাউন্সিলদের মধ্যে অসন্তোষ দেখা যায়।
সম্মেলনের প্রথম অধিবেশনে দুপুরে সুশীল সমাজের তীব্র সমালোচনা করে মাহাবুব উল আলম হানিফ বলেন, ভোটের অধিকার ভোটের অধিকার বলে সুশীল সমাজ গলা ফাটিয়ে ফেলছে। ওয়ান-ইলেভেনের সময় কিন্তু তারা এ বিষয়ে কোনো কথা বলেনি। সুশীল সমাজ সব সময় সুযোগে থাকে। বড় দুই দলের মধ্যে সংঘাত বাধিয়ে সংকটময় সময়ে তারা রাষ্ট্রের গুরুত্বপূর্ণ পদে আসতে চায়।
কাউন্সিল অধিবেশনে সভাপতিত্ব করেন জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি আলী রেজা রাজু। বক্তব্য দেন জনপ্রশাসন প্রতিমন্ত্রী ইসমাত আরা সাদেক, দলের কেন্দ্রীয় সদস্য এস এম কামাল হোসেন, সাংসদ শেখ আফিল উদ্দীন, কাজী নাবিল আহম্মেদ, মনিরুল ইসলাম ও রণজিৎ কুমার রায়। অনুষ্ঠান পরিচালনা করেন জেলা কমিটির সাধারণ সম্পাদক শাহিন চাকলাদার।
বিএনপির চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়ার সমালোচনা করে সম্মেলনের উদ্বোধক দলের সভাপতিমণ্ডলীর সদস্য কাজী জাফর উল্যাহ বলেন, ‘ড. ইউনূস আর আমেরিকা আপনাকে ক্ষমতায় বসাতে চেয়েছিল, কিন্তু কই, পেরেছিল?’ তিনি আরও বলেন, ‘আপনি বোতলের কর্ক (ছিপি) খুলে জিন ছেড়ে দিয়েছেন। সেই জিন ট্রেন-বাসে পেট্রলবোমা মারছে, রেললাইনের ফিশপ্লেট তুলে জিঙ্গবাদ সৃষ্টি করছে।’

বিজ্ঞাপন
রাজনীতি থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন