শেরপুরের শ্রীবরদীতে উপজেলা মুক্তিযোদ্ধা সংসদের কমান্ডার মো. আমিনুল ইসলামকে লাঞ্ছিত করার ঘটনায় ইউনিয়ন পরিষদের (ইউপি) চেয়ারম্যান এস এম জুবাইল হোসেনের শাস্তির দাবিতে সমাবেশ ও বিক্ষোভ মিছিল হয়েছে। এ সময় চেয়ারম্যানের পদ থেকে তাঁকে অপসারণের দাবি জানানো হয়। গতকাল রোববার মুক্তিযোদ্ধা সংসদ সন্তান কমান্ড, উপজেলা শাখা এসব কর্মসূচির আয়োজন করে।
শ্রীবরদী উপজেলা মুক্তিযোদ্ধা সংসদ কার্যালয়ের সামনে দুপুরে সমাবেশে বক্তব্য দেন উপজেলা মুক্তিযোদ্ধা সংসদের কমান্ডার আমিনুল ইসলাম, জেলা মুক্তিযোদ্ধা সংসদের সাবেক কমান্ডার লিয়াকত হোসেন, উপজেলা মুক্তিযোদ্ধা সংসদ সন্তান কমান্ডের সভাপতি শাকের মুহাম্মদ আবদুল্লাহ, মুক্তিযোদ্ধা নুরুল ইসলাম প্রমুখ। পরে সেখান থেকে একটি মিছিল বের করা হয়। পৌর শহরের গুরুত্বপূর্ণ সড়ক প্রদক্ষিণ করে এটি উপজেলা পরিষদ চত্বরে এসে শেষ হয়। পরে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) খালেদা নাছরিনের কাছে স্মারকলিপি দেওয়া হয়।
স্মারকলিপিতে বলা হয়, গোসাইপুর ইউপির চেয়ারম্যান এস এম জুবাইল হোসেন ১০ টাকা কেজি দরের চাল বিতরণ কার্যক্রমের সুবিধাভোগীদের নামের তালিকা বারবার পরিবর্তন ও পরিবর্ধন করার ফলে ওই ইউনিয়নে চাল বিতরণ কার্যক্রমে অনিয়মের সৃষ্টি হয়। উপজেলা মুক্তিযোদ্ধা সংসদের কমান্ডার ও ১০ টাকা কেজি চালের ডিলার মো. আমিনুল ইসলাম গত বৃহস্পতিবার উপজেলা পরিষদের মাসিক উন্নয়ন ও সমন্বয় কমিটির সভায় বিষয়টি তুলে ধরেন। সভা শেষে ইউএনওর কার্যালয়ের বারান্দায় আমিনুলের ওপর চড়াও হয়ে লাঞ্ছিত করেন চেয়ারম্যান জুবাইল।
এ অভিযোগ অস্বীকার করে চেয়ারম্যান জুবাইল হোসেন বলেন, তিনি আমিনুল ইসলামকে লাঞ্ছিত করেননি। বরং তিনিই (আমিনুল) তাঁকে (জুবাইল) কিল-ঘুষি ও ধাক্কা মেরেছেন। তাঁর (জুবাইল) স্বাক্ষর না নিয়ে সাবেক চেয়ারম্যানের সই নিয়ে সুবিধাভোগীদের একটি ভুয়া তালিকা তৈরি করে চাল আত্মসাৎ করেছেন।

বিজ্ঞাপন
মন্তব্য করুন