default-image

করোনাভাইরাসের প্রভাবে বিপর্যস্ত পুরো বিশ্ব। ব্যতিক্রম নয় সুইজারল্যান্ডও। ইতালি লাগোয়া দেশটিতেও ভালো প্রভাব পড়েছে করোনাভাইরাসের। জনজীবন প্রায় থমকে দাঁড়িয়েছে প্রাকৃতিক সৌন্দর্যময় সুইজারল্যান্ড। দেশের ঘোর সংকটে এগিয়ে এলেন এই সময়ে সুইজারল্যান্ডের সবচেয়ে বিখ্যাত মানুষ রজার ফেদেরার। টেনিসের মহাতারকা ও তাঁর স্ত্রী মিরকা দেশের ‘সবচেয়ে সংকটাপন্ন’ মানুষের সাহায্যে ১০ লাখ সুইস ফ্রাঁ বা ৮ কোটি ৬৫ লাখ টাকা দান করছেন।

সাহায্য দিতে গিয়ে ২০টি গ্র্যান্ড স্লামের মালিক বলেছেন তিনি চান না বৈশ্বিক এই্ মহামারিতে তাঁর দেশের কেউ বিপদে থাকুক। করোনাভাইরাস সংক্রমণে সুইজারল্যান্ড বিশ্বে নবম। সুইস স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয় জানিয়েছে গত সোমবার পর্যন্ত দেশটিতে ৮৮০০ মানুষ করোনায় আক্রান্ত হয়েছে, এঁদের ৮৬ জন মারা গেছেন।

৩৮ বছর বয়সী ফেদেরার নিজের ইনস্টাগ্রামে অর্থ সাহায্যের কথাটি জানিয়েছেন, ‘সবার জন্যই কঠিন সময় যাচ্ছে। আশা করছি কেউ কষ্টে থাকবে না। মিরকা ও আমি সুইজারল্যান্ডের সবচেয়ে বিপদগ্রস্ত পরিবারগুলোর জন্য ১০ লাখ সুইস ফ্রাঁ দেওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছি। আমাদের দানটা কেবলই শুরু। আশা করছি অন্যরাও অভাবী পরিবারগুলোর সাহায্যে এগিয়ে আসবে। আমরা সবাই মিলে এই সংকট কাটিয়ে উঠতে পারি! শরীরটাকে ভালো রাখুন!’

সুইজারল্যান্ড সরকার করোনার সংক্রমণ কমাতে আরও কঠোর হওয়ার ঘোষণা দিয়েছে। শুক্রবার থেকে দেশটিতে পাঁচজনের বেশি মানুষ একসঙ্গে জড়ো হতে পারবে না। একজন অন্যজনের চেয়ে দুই মিটার দূরত্ব বজায় না রাখলে জরিমানা করার ঘোষণাও দেওয়া হয়েছে। এরই মধ্যে দেশটিতে স্কুল, রেস্তোরাঁ, বার ও খাদ্যসামগ্রী ছাড়া অন্য সব দোকান বন্ধ ঘোষণা করা হয়েছে।

বিজ্ঞাপন
মন্তব্য পড়ুন 0