ছয় ম্যাচে জয়শূন্য মুম্বাই ইন্ডিয়ানস, একটি জয় চেন্নাই সুপার কিংসের। এমন সমীকরণ নিয়ে নাবি মুম্বাইয়ে মুখোমুখি হয়েছিল দুই দল। টসে হেরে ব্যাটিংয়ে নামা মুম্বাইয়ের শুরুটা হয়েছিল জয়শূন্য দলের মতোই। ৩ ওভারের মধ্যে ২৩ রান তুলতেই তারা হারায় ৩ উইকেট। মুকেশ চৌধুরীর শিকার হওয়ার আগে রোহিত ও ঈশান কিষান কোনো রানই করতে পারেননি, ব্রেভিস করেছেন ৪ রান। আইপিএলে এ নিয়ে ১৪ বার শূন্যতে ফিরলেন রোহিত, এ টুর্নামেন্টে যেটি রেকর্ড।

অষ্টম ওভারে ২১ বলে ৩২ রান করা সূর্যকুমার যাদবকেও হারায় মুম্বাই। এরপরও রোহিতের দল শেষ পর্যন্ত ২০ ওভারে ৭ উইকেটে ১৫৫ রান তোলে মূলত পাঁচে নামা তিলক বর্মার ৪৩ বলে অপরাজিত ৫১ রানের ইনিংসে। কাইরন পোলার্ডের ৯ বলে ১৪ ও শেষ দিকে জয়দেব উনাদকাট ৯ বলে ১৯ রানের ক্যামিও খেলেছেন।

default-image

ফিল্ডিংয়ে অবশ্য বেশ পিচ্ছিল দিন কাটিয়েছে চেন্নাই। অধিনায়ক রবীন্দ্র জাদেজা একাই ফেলেন দুটি ক্যাচ। বর্মার ক্যাচ ফেলেছেন ডোয়াইন ব্রাভো, স্টাম্পিংয়ের সুযোগ হাতছাড়া করেছেন ধোনি। না হলে মুম্বাই থামতে পারত আরও আগেই।

রান তাড়ায় ইনিংসের প্রথম বলেই রুতুরাজ গায়কোয়াড়কে হারায় চেন্নাই। গায়কোয়াড়ের পর পরের ওভারে এসে মিচেল স্যান্টনারকেও ফেরান ড্যানিয়েল স্যামস। তৃতীয় উইকেটে রবিন উথাপ্পা ও আম্বাতি রাইডু যোগ করেন ৫০ রান। ২৫ বলে ৩০ রান করে ফেরেন উথাপ্পা, এরপর ১৪ বলে ১৩ করেন শিভাম দুবে। পরপর দুই ওভারে রাইডু ও রবীন্দ্র জাদেজাকে হারালে চাপ বাড়ে চেন্নাইয়ের। ৩০ রানে ৪ উইকেট নিয়ে বোলিং শেষ করেন স্যামস।

default-image

চেন্নাইকে প্রথম আশা দেখান এরপর প্রিটোয়ারিয়াস। শেষ ১৮ বলে লাগত ৪২ রান, উনাদকাটের করা ১৮তম ওভারে ১৪ রান। পরের ওভারের প্রথম বলে রানআউটের হাত থেকে বেঁচে যান প্রিটোরিয়াস, বুমরাকে এরপর মারেন দুটি চার। তবে শেষ ওভারের প্রথম বলে রিভিউ নিয়ে প্রিটোরিয়াসকে ফেরায় মুম্বাই, সব গিয়ে ঠেকে ধোনির ওপর।

তৃতীয় বলে উনাদকাটের স্লোয়ারে লং অফ দিয়ে ছক্কা মারেন ধোনি। পরের বলে ফ্লিক করে মারেন চার। ৪ বলে ১৬ রানের সমীকরণ পরিণত হয় ২ বলে ৬ রানে। পঞ্চম বলে ডাবলস নিয়ে যেন সুপার ওভারের সমীকরণটা দূরে ঠেলে দেন ধোনি। পরের বলটা ইয়র্কার করতে চেয়েছিলেন উনাদকাট, প্রায় সফলও হয়েছিলেন। তবে ধোনির ব্যাট সেটিকেই পাঠিয়েছে সীমানার বাইরে। চেন্নাইকে মাতিয়েছেন উল্লাসে, হতাশায় ডুবিয়েছেন মুম্বাইয়ে। আরেকবার মনে করিয়ে দিয়েছেন, ‘ফিনিশার’ মহেন্দ্র সিং ধোনি ‘ফিনিশ’ করতে পারেন এখনো।

খেলা থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন