সাবেক জাতীয় কাবাডি খেলোয়াড় খুন

বিজ্ঞাপন
default-image

ঈদের একদিন না পেরোতেই দেশের ক্রীড়াঙ্গনে এল এক দুঃসংবাদ। সাবেক জাতীয় কাবাডি খেলোয়াড় ও রেফারি কাইয়ুম সিকদার (৪৮) খুন হয়েছেন। গত ২৬ মে মঙ্গলবার রাত ৯টার দিকে নড়াইলের নড়াগাতি থানার কালিনগর এলাকায় এই ঘটনা ঘটে।

আজ বাংলাদেশ কাবাডি ফেডারেশন থেকে জানানো হয়েছে, আধিপত্য বিস্তার নিয়ে প্রতিপক্ষ সন্ত্রাসীদের হাতে খুন হন কাইয়ুম। তাঁর বাবা হাসু সিকদার কলাবাড়িয়া ইউনিয়ন পরিষদের ৩ নম্বর ওয়ার্ডের সদস্য ও ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের নেতা। কাইয়ুম বাংলাদেশ পুলিশ দলের খেলোয়াড় ছিলেন।


বাংলাদেশে কাবাডির অগ্রযাত্রায় তাঁর বড় অবদান ছিল। জাতীয় কাবাডি দলের পরিচিত মুখ ছিলেন এক সময়। ১৯৯৫ মাদ্রাজ সাফ গেমসে জাতীয় দলে অভিষেক। ১৯৯৯ সাফ গেমস ও ১৯৯৮ এশিয়ান গেমসেও বাংলাদেশ দলের জার্সিতে খেলেছেন। ২০১০ গুয়াংজু এশিয়ান গেমস ও ২০১০ মাস্কট বিচ গেমসে ছিলেন রেফারির দায়িত্বে। ২০১০ সাল থেকে কাবাডি ফেডারেশনের সর্বশেষ নির্বাচিত কার্যনির্বাহী সদস্য ছিলেন কাইয়ুম।


তাঁর নিহত হওয়ার ঘটনায় গভীর শোক জানিয়েছেন বাংলাদেশ কাবাডি ফেডারেশনের সভাপতি ও বাংলাদেশ পুলিশের সদ্য সাবেক মহাপরিদর্শক মোহাম্মদ জাবেদ পাটোয়ারী। কাইয়ুমের শোকার্ত পরিবারের প্রতি গভীর সমবেদনা জানিয়েছেন তিনি।

বিজ্ঞাপন
মন্তব্য পড়ুন 0
বিজ্ঞাপন