মেডিকেল স্টাফরা ছুটে গিয়ে সেই সমর্থককের চেতনা ফেরানো'র পর শুরু হয় খেলা। তাতে লিডস ইউনাইটেডেরও ক্ষতিবৃদ্ধি হয়েছে। বিরতির পর ক্রিস্টিয়ান পুলিসিচ এবং রোমেলু লুকাকু গোল করায় লিডসের মাঠে ৩-০ গোলের জয় পেয়েছে চেলসি। এতে চ্যাম্পিয়নস লিগের আগামী মৌসুমে খেলার জায়গা আরও সংহত হলো টমাস টুখেলের দলের।

লিডস গোল হজম করেছে ম্যাচের ৪ মিনিটে। ডান প্রান্তে বল পেয়েছিলেন চেলসির রাইটব্যাক রিস জেমস। পেছন থেকে ম্যাসন মাউন্ট ছুটে আসছেন যেন জানতেন। বলটা সামনে বাড়াতেই নিখুঁত শটে জালে জড়ান মাউন্ট। লিডস পিছিয়ে পড়ে ঘুরে দাঁড়াবে কী, প্রথমার্ধে ২৪ মিনিটের পর থেকে দশজন নিয়ে খেলেছে!

default-image

চেলসির মাতেও কোভাচিচকে অনর্থক ফাউল করে লাল কার্ড দেখেন লিডসের উইঙ্গার ড্যানিয়েল জেমস। ইংলিশ প্রিমিয়ার লিগেরর এক মৌসুমে সবচেয়ে বেশি হলুদ কার্ড দেখার রেকর্ড আগেই গড়েছিল লিডস। চেলসির বিপক্ষে সংখ্যাটা ১০০-তে উন্নীত করল লিডস।

৪৩ মিনিটে ক্যালভিন ফিলিপস হলুদ কার্ড দেখার মাধ্যমে ইংলিশ প্রিমিয়ার লিগের ইতিহাসে প্রথম দল হিসেবে এক মৌসুমে ১০০ হলুদ কার্ড দেখল ক্লাবটি।

৫৫ মিনিটে পুলিসিচের গোলটি দলীয় সমণ্বয়ের ফসল। বাঁঁ প্রান্ত থেকে ডান প্রান্তে বলা আনা নেওয়া করে বক্সের সামনে একটু ফাঁকায় পুলিসিচকে ব্যাক হিল করেন মাউন্ট। যুক্তরাস্ট্র উইঙ্গারের শট আশ্রয় নেয় জালে। প্রথমার্ধে লিডসের গোলকিপার মেসলিয়ার দুটি দারুণ আক্রমণ রুখে না দিলে জয়ের ব্যবধান বাড়ত চেলসির।

default-image

টমাস টুখেলের শুরুর একাদশে সুযোগ পাওয়া রোমেলু লুকাকু প্রথমার্ধেই হেডে গোল পেতে পারতেন। মেসলিয়ার দারুণভাবে রুখে দেন। বেলজিয়ান তারকা গোল পেয়েছেন ৮৩ মিনিটে। ডান প্রান্ত থেকে হাকিম জিয়েশের ক্রস পেয়ে লিডসের তিন ডিফেন্ডারকে বোকা বানিয়ে গোল করেন লুকাকু।

এই জয়ে ৩৬ ম্যাচে ৭০ পয়েন্ট নিয়ে টেবিলের তিনে রইল চেলসি। লিডসের সামনে অবনমনের চোখ রাঙানি। ৩৬ ম্যাচে ৩৪ পয়েন্ট নিয়ে ১৮তম এলান্ড রোডের দলটি।

খেলা থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন