বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন

৩৩
সব সংস্করণ মিলিয়ে নিউজিল্যান্ডের মাটিতে তাদের বিপক্ষে আগের ৩২ ম্যাচ খেলে জয়শূন্য ছিল বাংলাদেশ। এর আগে বাংলাদেশ সেখানে খেলেছিল ৯টি টেস্ট ম্যাচ। ছিল না কোনো ড্রও। সব মিলিয়ে টেস্টে নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে ১৬তম দেখায় বাংলাদেশের প্রথম জয় এটি।


ষষ্ঠ কোনো প্রতিপক্ষের বিপক্ষে জয় পেল বাংলাদেশ। এর আগে টেস্টের জয়গুলো এসেছে জিম্বাবুয়ে (৮), ওয়েস্ট ইন্ডিজ (৪), অস্ট্রেলিয়া (১), ইংল্যান্ড (১) ও শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে।


র‍্যাঙ্কিংয়ের শীর্ষ ৫-এ থাকা দলগুলোর বিপক্ষে দেশের বাইরে বাংলাদেশ প্রথমবার জিতল মাউন্ট মঙ্গানুইতে। আইসিসি টেস্ট র‍্যাঙ্কিংয়ে নিউজিল্যান্ড এখন দুই নম্বরে।


৬১তম ম্যাচে এসে বিদেশের মাটিতে টেস্টে বাংলাদেশের ষষ্ঠ জয়।


উইকেটের হিসাবে দেশের বাইরে বাংলাদেশের সবচেয়ে বড় জয়।

১৭
বাংলাদেশের কাছে হারের আগে টানা ১৭ ম্যাচ দেশের মাটিতে টেস্টে অপরাজিত ছিল নিউজিল্যান্ড। সর্বশেষ ২০১৭ সালের মার্চে দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে হেরেছিল কিউরা, ওয়েলিংটনে।

২০১১
বাংলাদেশের আগে সবশেষ ২০১১ সালে উপমহাদেশের কোনো দলের কাছে নিজেদের মাটিতে টেস্ট হেরেছিল নিউজিল্যান্ড, পাকিস্তানের কাছে।


দেশের মাটিতে নিজেদের সবশেষ ৮টি সিরিজেই জিতেছিল নিউজিল্যান্ড। ২ টেস্টের সিরিজে এবার প্রথমটিই হেরে যাওয়ায় ভাঙল সে ধারাও।

৬/৪৬
নিউজিল্যান্ডের মাটিতে বাংলাদেশ বোলারের সেরা বোলিং ফিগার এখন ইবাদত হোসেনের। এর আগে ৫ উইকেট নিয়েছিলেন একজনই—রুবেল হোসেন। ২০১০ সালে হ্যামিল্টনে ৫ উইকেট নিতে তিনি খরচ করেছিলেন ১৬৬ রান।

৭/১২১
ইবাদতের ম্যাচের ফিগারও নিউজিল্যান্ডের মাটিতে বাংলাদেশ বোলারদের সেরা। এর আগে সেরা ছিল মাশরাফি বিন মুর্তজার ২০০৮ সালে ডানেডিনে ৮৮ রানে নেওয়া ৫ উইকেট।


বিদেশের মাটিতে বাংলাদেশ পেসার হিসেবে প্রথমবারের মতো ম্যাচসেরা হলেন ইবাদত। মাশরাফি ও মোস্তাফিজুর রহমানের পর তৃতীয় পেসার হিসেবে টেস্টে ম্যাচসেরার পুরস্কার জিতলেন তিনি।

ক্রিকেট থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন