বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন
default-image

গত জুলাইয়ে জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে ওয়ানডে সিরিজের পরই চোট থেকে সেরে উঠতে পুনর্বাসন প্রক্রিয়ার মধ্যে চলে যান তামিম। অস্ট্রেলিয়ার পর নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষেও টি-টোয়েন্টি সিরিজে খেলেননি তিনি। এরপর টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ থেকেও নিজেকে সরিয়ে নিয়েছেন। আপাতত আন্তর্জাতিক ও ঘরোয়া ম্যাচ নেই, তামিম সুযোগ নিয়েছেন নেপালের ঘরোয়া টি-টোয়েন্টি টুর্নামেন্টে খেলার। দুই মাসের বেশি সময় পর প্রতিদ্বন্দ্বিতামূলক ক্রিকেট ম্যাচ খেলছেন তিনি।

কীর্তিপুরের ত্রিভুবন বিশ্ববিদ্যালয় আন্তর্জাতিক মাঠে আজ টস জিতে ফিল্ডিং নিয়েছিল তামিমের দল ভৈরহাওয়া। প্রতিপক্ষ বিরাটনগর দলে ছিলেন নেপালের করন কেসিসহ জিম্বাবুয়ের সিকান্দার রাজা, শ্রীলঙ্কার দিলশান মুনাবিরা। তবে শ্রীলঙ্কার ধাম্মিকা প্রসাদ, নেপালের আরিফ শেখদের তোপে ১৭.৪ ওভারে ৮৯ রানেই গুটিয়ে গেছে তারা।

default-image

বিরাটনগরের ইনিংসে একমাত্র মুনাবিরাই ব্যাটিং করেছেন ১০০-এর ওপর স্ট্রাইক রেটে (২০ বলে ২৫)। তিনি ছাড়া আরও চারজন দুই অঙ্ক ছুঁলেও ১৩ রান পেরোতে পারেননি কেউ। সে অর্থে কোনো বড় জুটিও হয়নি তাদের। মুনাবিরার উইকেট থেকে ১৯ রানের ব্যবধানে ৬ উইকেট হারিয়েছে তারা। শেষ পর্যন্ত ম্যাচসেরা হওয়া তামিমের সতীর্থ প্রসাদ ৩ ওভারে মাত্র ৬ রান দিয়ে নিয়েছেন ৩ উইকেট। আরিফ ৩ উইকেট নিতে খরচ করেছেন ২৩ রান। এ ছাড়া ২৩ রানে ২ উইকেট নিয়েছেন নেপালের পেসার অবিনাশ বোহারা। ১টি করে নিয়েছেন দুর্গেশ গুপ্ত ও কৃষ্ণা কার্কি।

রান তাড়ায় প্রদীপ ঐরির সঙ্গে ওপেন করতে এসেছিলেন তামিম। প্রথম ৩ ওভারে তামিম খেলেছেন মাত্র ৫টি বল। চতুর্থ ওভারে ২৩ বলে ২২ রান করে ফিরেছেন ঐরি। ষষ্ঠ ওভারে ইনিংসে নিজের প্রথম চার মেরেছেন তামিম, পরের ওভারে একটি ছয়ও মেরেছেন। তবে নবম ওভারে প্রতীশ গিরির বলে ক্যাচ তুলে ফিরেছেন তামিম।

default-image

তামিমের পর রোহিত পদেল ও আরিফকে দ্রুত হারালেও অন্য প্রান্তে থাকা উপুল থারাঙ্গার ৩৫ বলে ৩৪ রানের অপরাজিত ইনিংসে শেষ পর্যন্ত সহজ জয়ই পেয়েছে ভৈরহাওয়া। জয় নিশ্চিত হওয়ার সময় উইকেটে ছিলেন ভৈরহাওয়ার অধিনায়ক শারদ ভেসাকরও। বিরাটনগরের ডানহাতি পেসার রামনরেশ গিরি ৩০ রানে নিয়েছেন ২ উইকেট। ১টি করে উইকেট নিয়েছেন করন ও বসন্ত রেগমি।

এভারেস্ট প্রিমিয়ার লিগে তামিমদের পরের ম্যাচ আগামীকাল, প্রতিপক্ষ ললিতপুর প্যাট্রিয়টস।

ক্রিকেট থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন