default-image

শতকের দেখা পেয়েছেন খেলাঘরের অমিত হাসানও। ফতুল্লায় রেলিগেশন লিগের ম্যাচে সিটি ক্লাবের বিপক্ষে অমিতের ব্যাট থেকে এসেছে ১১৩ বলে ১০১ রানের ঝলমলে ইনিংসে। ৯টি চার ছিল অমিতের ইনিংসে।

এটি লিস্ট ‘এ’ ক্যারিয়ারের অমিতের দ্বিতীয় শতক। দুটিই এসেছে এবারের ঢাকা লিগে। শেষের দিকে প্রীতম কুমার ১১ বলে ২৮ রান করলে খেলাঘর ৭ উইকেটে ২৮৯ রান করতে সক্ষম হয়।

শতকের সুযোগ ছিল প্রাইম ব্যাংকের টপ অর্ডার ব্যাটসম্যান এনামুল হকের। মিরপুর শেরেবাংলা স্টেডিয়ামে আবাহনীর বিপক্ষে প্রাইম ব্যাংকের এই উদ্বোধনী ব্যাটসম্যানের শুরুটা ছিল দুর্দান্ত। শাহাদাত হোসেনের সঙ্গে ৯৭ রানের জুটি গড়েন তিনি। ৩৮ রান করে শাহাদাত আউট হলেও এনামুল এগোচ্ছিলেন এবারের লিগে তাঁর তৃতীয় শতকের দিকে।

default-image

কিন্তু ৮৫ বল খেলে ৭৭ রান করে আবাহনীর শ্রীলঙ্কার অলরাউন্ডার ধনাঞ্জয়া ডি সিলভার বলে লিটন দাসের কাছে ক্যাচ দেন এনামুল। ৭টি চার ও ৩টি ছক্কা ছিল এনামুলের ইনিংসে।

এনামুলের গড়ে দেওয়া মঞ্চে দাঁড়িয়ে প্রাইম ব্যাংক এবারের লিগে মিরপুরের মাঠে সর্বোচ্চ ২৭৩ রান করতে সক্ষম হয়। মোহাম্মদ মিঠুন ৪৪ ও ইয়াসির আলী ৪৩ রান করেন। এ ছাড়া মেহেদী হাসানের ব্যাট থেকে আসে ২৭ বলে ৩৪ রানের ইনিংস।

দিনের আরেক ম্যাচে শেখ জামাল আগে ব্যাট করে ৫ উইকেটে ২৭১ রান করেছে গাজী গ্রুপ ক্রিকেটার্সের বিপক্ষে। উদ্বোধনে রবিউল ইসলামের ৫৮ রানের পর শেখ জামালকে লড়াই করার মতো রানে নিয়ে যান নুরুল হাসান ও পারভেজ রসুল। নুরুল ৭২ বল খেলে করেছেন ৭৩ রান। রসুল তাঁর ৭৩ রান করতে খেলেছেন ৬৪ বল।

ক্রিকেট থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন