নিউজিল্যান্ড সফর থেকে কাল সতীর্থদের সঙ্গেই দেশে ফিরেছেন মোস্তাফিজুর রহমান। তাঁর সতীর্থরা যে যাঁর মতো বাড়ির পথ ধরলেও মোস্তাফিজ ছিলেন বিমানবন্দরেই। তাঁর কাঁধে যে আরেকটা দায়িত্ব!

সাকিবের পাশাপাশি এবার আইপিএলে বাংলাদেশের প্রতিনিধিত্ব করছেন মোস্তাফিজ। তাই দেশে ফিরেই আবার আইপিএল খেলতে ভারত যাওয়ার ফ্লাইট ধরেন এ পেসার। তাঁর ফ্র্যাঞ্চাইজি দল রাজস্থান রয়্যালস আজ সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে জানিয়েছে, ভারতে নিরাপদেই অবতরণ করেছেন মোস্তাফিজ।

ফ্র্যাঞ্চাইজি দলটি ইনস্টাগ্রামে মোস্তাফিজের একটি ছবি পোস্ট করে লিখেছে, ‘সোমবার সকালটা শুরু হলো মোস্তাফিজকে দিয়ে।’ বাংলাদেশের বাঁহাতি এ পেসার নিজেও তাঁর ভেরিফাইড ফেসবুক পেজে এ নিয়ে একটি পোস্ট করেন, ‘রাজস্থান রয়্যালসের সঙ্গে আইপিএল অভিযান শুরু করতে ভারতে নিরাপদেই অবতরণ করেছি। আমার জন্য দোয়া করবেন।’

বিজ্ঞাপন

এবার আইপিএলে এক কোটি রুপি ভিত্তিমূল্য দিয়ে মোস্তাফিজকে কিনেছে রাজস্থান। ৯ এপ্রিল শুরু হতে যাওয়া আইপিএলে রাজস্থান প্রথম ম্যাচ খেলবে পাঞ্জাব কিংসের বিপক্ষে, আগামী সোমবার।

এদিকে ভারতে পৌঁছে সাত দিন কোয়ারেন্টিনে থাকতে হবে তাঁকে। এ কারণে রাজস্থানের প্রথম ম্যাচে মোস্তাফিজকে দেখার সম্ভাবনা খুব কম। এমনকি দ্বিতীয় ম্যাচেও যে খেলতে পারবেন, সেটাও জোর দিয়ে বলা যাচ্ছে না।

রাজস্থানের চিন্তা বাড়িয়ে কয়েক দিন আগে হাতের চোটে পড়েছেন আরেক বিদেশি পেসার ইংল্যান্ডের জফরা আর্চার। অন্তত শুরুর চারটা ম্যাচ খেলতে পারবেন না এই ইংলিশ পেসার। মোস্তাফিজ-আর্চারদের অনুপস্থিতিতে অস্ট্রেলিয়ার পেসার অ্যান্ড্রু টাইকে প্রথম ম্যাচে খেলাতে পারে ফ্র্যাঞ্চাইজি দলটি।

শ্রীলঙ্কা সফরে এ মাসে যাওয়ার কথা বাংলাদেশ দলের। সেখানে দুই ম্যাচের টেস্ট সিরিজ খেলবে বাংলাদেশ।

মোস্তাফিজ এ সফরে পরিকল্পনায় নেই বলেই তাঁকে আইপিএলে খেলার অনাপত্তিপত্র দেওয়া হয়েছে বলে কিছুদিন আগে সংবাদমাধ্যমকে জানান প্রধান নির্বাচক মিনহাজুল আবেদীন, ‘শ্রীলঙ্কা সফরে সে আমাদের টেস্ট পরিকল্পনায় না থাকায় তাকে আইপিএল খেলার অনাপত্তিপত্র দেওয়া হয়েছে।’

default-image

২০১৬ আইপিএল নিলামে মোস্তাফিজকে কিনেছিল সানরাইজার্স হায়দরাবাদ। সেবার নিজের প্রথম মৌসুমেই ১৬ ম্যাচে ১৭ উইকেট নিয়ে নিজের আগমনী বার্তা ঘোষণা করেছিলেন মোস্তাফিজ। হয়েছিলেন আইপিএলের সেরা উদীয়মান তারকা। কিন্তু পরের মৌসুমে চোটের কারণে খেলতে পেরেছিলেন মাত্র ১ ম্যাচ। ২০১৮ সালে তাকে কিনেছিল মুম্বাই ইন্ডিয়ানস। সে মৌসুমে ৭ ম্যাচে ৭ উইকেট নিয়েছিলেন তিনি।

বিজ্ঞাপন
ক্রিকেট থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন