বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন

সুপার ওভারও টাই হওয়ার পর বাউন্ডারি সংখ্যায় এগিয়ে থেকে শেষ পর্যন্ত শিরোপা জিতেছিল ইংল্যান্ড। সে নিয়মের কথা অবশ্য জানত দুই দলই। তবে উইলিয়ামসনের দল সেবার ‘শিকার’ হয়েছিল অদ্ভুত এক ঘটনার এবং তাতে জড়িয়ে ছিল আম্পায়ারদের একটা ‘ভুল’-ও।

মার্টিন গাপটিলের থ্রো রান পূর্ণ করতে ডাইভ দেওয়া বেন স্টোকসের ব্যাটে এসে লাগার পর গিয়েছিল বাউন্ডারিতে। সেটি থেকে ইংল্যান্ড পেয়েছিল ৬ রান। ঘটনার আকস্মিকতায় সে সময় সবাই খেয়াল না করলেও পরে বোঝা গিয়েছিল, আদতে নিয়ম অনুযায়ী স্টোকসের পাওয়ার কথা ছিল ৫ রান। কারণ, গাপটিল থ্রো করার আগে যে দুই ব্যাটসম্যান ক্রিজে একে অপরকে অতিক্রম করেননি!

default-image

হঠাৎ দুই বছর আগের স্মৃতি টেনে নিয়ে আসার কারণ সেদিন ফাইনালে যে দুজন অন-ফিল্ড আম্পায়ার দায়িত্বে ছিলেন, তাঁরাই আবারও থাকবেন এবারের টি–টোয়েন্টি বিশ্বকাপের ইংল্যান্ড ও নিউজিল্যান্ড সেমিফাইনাল ম্যাচে। আজ অফিশিয়ালদের তালিকা প্রকাশ করেছে আইসিসি। প্রথম সেমিফাইনালে ইংল্যান্ড ও নিউজিল্যান্ডের ম্যাচ পরিচালনা করতে মাঠে থাকবেন ২০১৯ বিশ্বকাপ ফাইনালেরই দুজন আম্পায়ার—দক্ষিণ আফ্রিকার মারাই এরাসমাস ও শ্রীলঙ্কার কুমার ধর্মসেনা।

প্রথম সেমিফাইনালে টেলিভিশন আম্পায়ার হিসেবে থাকবেন ভারতের নিতিন মেনন। চতুর্থ আম্পায়ারের দায়িত্ব পালন করবেন অস্ট্রেলিয়ার পল রাইফেল, ম্যাচ রেফারি হিসেবে থাকবেন অস্ট্রেলিয়ার ডেভিড বুন। আগামীকাল আবুধাবিতে বাংলাদেশ সময় রাত ৮টায় শুরু হবে এ ম্যাচ।

১১ নভেম্বর দ্বিতীয় সেমিফাইনালে মুখোমুখি হবে পাকিস্তান ও অস্ট্রেলিয়া। সে ম্যাচে অন-ফিল্ড আম্পায়ারের দায়িত্বে থাকবেন ইংল্যান্ডের রিচার্ড কেটেলবোরো ও নিউজিল্যান্ডের ক্রিস গ্যাফানি। টেলিভিশন আম্পায়ারের চেয়ারে থাকবেন ওয়েস্ট ইন্ডিজের জোয়েল উইলসন, চতুর্থ আম্পায়ারের দায়িত্ব পালন করবেন রিচার্ড ইলিংওর্থ। আর ম্যাচ রেফারি হিসেবে থাকবেন নিউজিল্যান্ডের জেফ ক্রো।

টুর্নামেন্টের শুরুতে ১৬ জন আম্পায়ার ও ৪ জন ম্যাচ রেফারির মধ্যে দায়িত্ব ভাগ করে দিয়েছিল আইসিসি। অবশ্য জৈব সুরক্ষাবলয়ের নিয়ম ভাঙার পর টুর্নামেন্টের মাঝপথেই সরিয়ে দেওয়া হয় সময়ের অন্যতম সেরা আম্পায়ার ইংল্যান্ডের মাইকেল গফকে। ১৪ নভেম্বর দুবাইয়ের ফাইনালের দায়িত্বে কারা থাকবেন, সেটি দুই সেমিফাইনালের পর জানাবে আইসিসি।

ক্রিকেট থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন