বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন

নেটে ভারতীয় ব্যাটসম্যানদের থ্রো-ডাউন বিশেষজ্ঞ দয়ানন্দ গারানি কোভিড-১৯ টেস্টে পজিটিভ হয়েছেন।

প্রাথমিক সতর্কতা হিসেবে আইসোলেশনে রাখা হয়েছে তিনজনকে—বোলিং কোচ ভরত অরুণ, উইকেটকিপার ব্যাটসম্যান ঋদ্ধিমান সাহা ও স্ট্যান্ডবাই ওপেনার অভিমন্যু ঈশ্বরন। দয়ানন্দ গারানির ‘সংস্পর্শে এসেছেন’ নিশ্চিত হওয়ার পর এই তিনজনকে আইসোলেশনে রেখেছে ভারতীয় ম্যানেজমেন্ট।

সামনেই ইংল্যান্ডের বিপক্ষে পাঁচ টেস্টের সিরিজ। দীর্ঘ এ সফরে ভারতীয় ক্রিকেটাররা অনুশীলনের পাশাপাশি ঘোরাফেরা করে সময় কাটাচ্ছেন। উইম্বলডন, ইউরোর ম্যাচে দলের অনেককেই দেখা গেছে। করোনায় আক্রান্ত ঋষভ পন্তও কিছুদিন আগে ওয়েম্বলিতে ইউরোর ম্যাচ দেখতে গিয়েছিলেন।

আগামী ৪ আগস্ট ইংল্যান্ডের বিপক্ষে পাঁচ ম্যাচের টেস্ট সিরিজ শুরু হবে। সে সিরিজের জৈব সুরক্ষাবলয়ে এখনো প্রবেশ করেনি ভারতীয় দল।

গতকাল গারানির কোভিড-১৯ টেস্টের ফল হাতে পায় ভারতীয় টিম ম্যানেজমেন্ট। তবে ভরত অরুণ, ঋদ্ধিমান ও অভিমন্যু কোভিড-১৯ টেস্টে নেগেটিভ হয়েছেন। কিন্তু ইংল্যান্ডে নিয়ম অনুযায়ী, করোনা সংক্রমিত কারও সংস্পর্শে এলে ১০ দিন আইসোলেশনে থাকতে হয়।

বিসিসিআই সচিব জয় শাহ এক বিবৃতিতে বলেছেন, ‘চারজনকে লন্ডনে দলের হোটেলে আলাদা আলাদা কক্ষে ১০ দিন আইসোলেশনে রাখা হবে।’

ডারহাম থেকে জৈব সুরক্ষাবলয়ে ঢুকবে ভারতীয় দল। পাঁচ ক্রিকেটারকে লন্ডনে রেখে ডারহামে চলে এসেছেন বিরাট কোহলিরা। ঋষভ পন্তের সংক্রমিত হওয়া নিয়ে একটি সূত্র ভারতের সংবাদমাধ্যম টাইমস অব ইন্ডিয়াকে বলেছে, ‘৫ ও ৬ জুলাই দাঁতের চিকিৎসকের কাছে গিয়েছিল পন্ত। ক্লিনিক থেকে সে ভাইরাসে সংক্রমিত হতে পারে। ৭ জুলাই তাকে টিকা দেওয়া হয়।’

জয় শাহ জানান, ‘৮ জুলাই পন্ত পজিটিভ হন। তিনি এখন বিসিসিআইয়ের পর্যবেক্ষণে আইসোলেশনে রয়েছেন। পিসিআর পরীক্ষায় দুবার নেগেটিভ হওয়ার পর দলের সঙ্গে ডারহামে যোগ দেবেন।’

ক্রিকেট থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন