default-image

কোহলি টেস্টের নেতৃত্ব ছাড়ার সপ্তাহ দুই কেটে যাওয়ার পর এটা নিয়ে কথা বললেন শোয়েব। রাওয়ালপিন্ডি এক্সপ্রেস নামে খ্যাত শোয়েব ভারতের পত্রিকা ইন্ডিয়া টুডেকে বলেছেন, ‘বিরাটের জন্য সবকিছু কঠিন হয়ে গিয়েছিল। আমি তখন দুবাইতে ছিলাম। বুঝতে পেরেছিলাম টি–টোয়েন্টি বিশ্বকাপ জিততে না পারলে কোহলির জন্য বিরাট সমস্যা হবে। এখন দেখি সেটাই হয়েছে। তার বিরুদ্ধে অনেক দল তৈরি হয়ে গিয়েছিল।’

তবে কোহলির মতো একজন ব্যাটিং তারকার জন্য এগুলো কোনো ব্যাপার নয় বলেও মনে করেন শোয়েব। তাঁর কথা, ‘যে কেউ তারকা হয়ে গেলে অনেক সমস্যার মুখোমুখি হতে হয়। কিন্তু এগুলো নিয়ে ভয় পাওয়ার কিছু নেই। তার শুধু সাহসী হতে হবে এবং কোনো কিছুকে ভয় পাওয়া চলবে না।’ শোয়েব এরপর যোগ করেন, ‘ভারতের মানুষ তাকে ভালোবাসে। এখন যে সময়টা যাচ্ছে, সেটা তার জন্য শুধু একটা পরীক্ষা। তাকে এ থেকে শুধু ভালোভাবে বেরিয়ে আসতে হবে।’

default-image

কোহলিকে কিছু পরামর্শও দিয়ে রাখলেন শোয়েব, ‘এখন তাকে একটু পরিশ্রম করতে হবে, খুব বেশি নয়। বিষয়গুলোকে সহজভাবে নিতে হবে এবং নিজের স্বাভাবিক খেলাটা খেলে যেতে হবে। অধিনায়কত্ব সহজ ব্যাপার নয়। অনেক কিছু সামলাতে হয়, অনেক চিন্তা করতে হয়। এখন সে এসবের বাইরে। তাকে শুধু নিশ্চিত করতে হবে যে ক্রিকেট খেলাটা উপভোগ করছে সে। ওই সব লোক, সব ভুলে ওই সব লোকের ক্ষমা করে দিতে হবে কোহলিকে।’

কোহলির মধ্যে এখনো যে ক্রিকেট অবশিষ্ট আছে, তা দিয়ে তিনি কী করতে পারেন, সেটাও বলেছেন শোয়েব, ‘আগামী পাঁচ–ছয় মাস ভালো খেলতে পারলে নেতৃত্ব ছেড়ে দেওয়ার বিষয় নিয়ে সে খুশিই হবে। নিজেকে তার এই বলে অনুপ্রাণিত করা উচিত যে সে ১২০টি আন্তর্জাতিক শতক করতে পারবে। তার ভেতরে এখন যে আগুন জ্বলছে, সেই কারণেই সে আরও ৫০টি শতক করবে। নিজের ভেতরে যে ক্ষোভ আছে, সেটা কোনো মানুষের ওপর ঢালাটা ঠিক হবে তার। ক্ষোভের আগুনটা নেভাতে হবে ব্যাটিং দিয়ে।’

ক্রিকেট থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন