মেয়েদের আইপিএলে চ্যাম্পিয়ন সালমা খাতুনের দল ট্রেইলব্লেজার্স
মেয়েদের আইপিএলে চ্যাম্পিয়ন সালমা খাতুনের দল ট্রেইলব্লেজার্সছবি: আইপিএল

২ ওভারে মাত্র ৪ রান, ডট বল ৯টি। মেয়েদের আইপিএল নামে পরিচিত উইমেন্স টি-টোয়েন্টি চ্যালেঞ্জে ভেলোসিটির বিপক্ষে নিজের প্রথম ম্যাচেই সালমা খাতুন জানিয়ে দেন তাঁর বোলিংয়ে রান তোলা সহজ নয়। ট্রেইলব্লেজার্সের হয়ে খেলা অফ স্পিনার পরের ম্যাচে সুপারনোভাসের বিপক্ষে ৪ ওভারে ২৫ রান দিয়ে নিলেন ১ উইকেট। তবে বাংলাদেশের টি-টোয়েন্টি অধিনায়ক সালমা যেন সেরাটা তুলে রেখেছিলেন ফাইনালের জন্য। আজ শারজায় ফাইনালে সুপারনোভাসের বিপক্ষে ৪ ওভারে ১৮ রান দিয়ে ৩ উইকেট নিয়েছেন সালমা।

ফাইনালে সুপারনোভাসকে ১৬ রানে হারিয়ে প্রথমবারের মতো চ্যাম্পিয়ন হয়েছে সালমাদের ট্রেইলব্লেজার্স। প্রথমে ব্যাটিং নিয়ে ৮ উইকেটে ১১৮ রান তুলেছিল সালমার দল। রান তাড়ায় ৭ উইকেটে ১০২ রান তুলতে পারে সুপারনোভাস। ১৩তম ওভারে যখন সালমা প্রথম বল হাতে নেন সুপারনোভাসের রান ৩ উইকেটে ৫৮। প্রথম দুই ওভারেই ৫ রান করে দেওয়া সালমা প্রথম উইকেট নেন দ্বিতীয় ওভারে। তৃতীয় ওভারে ৪ রান দেওয়া অফ স্পিনার শেষ ওভারে ৪ রান দিয়ে নেন ২ উইকেট।

বিজ্ঞাপন
default-image

১৮তম ওভার শেষে ২ ওভারে ৬ উইকেট হাতে নিয়ে ২৮ রান দরকার ছিল সুপারনোভাসের। প্রথম তিন ওভারে ১৪ রান দিয়ে ১ উইকেট নেওয়া সালমার ওপরেই আস্থা রাখলেন ট্রেইলব্লেজার্স অধিনায়ক স্মৃতি মান্ধানা। কী বোলিংই না করলেন সালমা!
প্রথম বলে ১ রান দিলেন সালমা। পরের বলে দ্বিতীয় রান নিতে গিয়ে রানআউট অনুজা পাতিল। একটু জোরের সঙ্গে করা তৃতীয় বলে সুপারনোভাস অধিনায়ক হারমানপ্রীত কৌরকে বোল্ড করে ম্যাচের ভাগ্য নিয়ে শেষ অনিশ্চয়তাও দূর করে দেন সালমা। চতুর্থ বলে ১ রান দেওয়ার পর পর পঞ্চম বলে পূজা বাস্ত্রকরকে বানালেন সোফি এ্ক্লেসটনের ক্যাচ। শেষ বলে আসে ১ রান।

ব্যাটিংয় ট্রেইলব্লেজার্সের শুরুটা কিন্তু দুর্দান্ত। ডিয়েনড্রা ডটিন আর স্মৃতি মান্ধানার উদ্বোধনী জুটিতেই ১১ ওভারে ওঠে ৭১ রান। ছয়ের ওপর রানরেট, হাতে ১০ উইকেট—এরপরও ট্রেইলব্লেজার্স স্কোরটা খুব বেশি বড় করতে পারেনি মিডল ও লোয়ার মিডল অর্ডারের ব্যর্থতায়। ডটিন (২০), মান্ধানা (৬৮) ছাড়া আর কোনো ব্যাটার বলার মতো ইনিংস খেলতে পারেননি। ১৪.৪ ওভারে ১ উইকেটে ১০১ থেকে ২০ ওভার শেষে স্কোরটা দাঁড়ায় ৮ উইকেটে ১১৮ রানে। শেষ ৫ ওভারে ৩.৪০ রান রেটে ৬ উইকেট মাত্র ১৭ রান যোগ করতে পেরেছে ট্রেইলব্লেজার্স।

default-image

দুর্দান্ত বোলিং করেছেন রাধা যাদব। সুপারনোভাসের এই ২০ বছর বয়সী বাঁহাতি স্পিনার কাল ৪ ওভার বোলিং করে ১৬ রানে পেয়েছেন ৫ উইকেট, যেটি তাঁর ক্যারিয়ারসেরা। ইনিংসের শেষ দিকে ট্রেইলব্লেজার্স কেন স্বচ্ছন্দে এগোতে পারেনি, রাধার বোলিংয়ে নিশ্চয়ই বোঝা যাচ্ছে।

সালমা খাতুন ব্যাটিংয়ের সুযোগ পাননি। বোলিংয়ে আলো ছড়ানোর সুযোগ কতটা কাজে লাগাতে পারেন, সেটির প্রমাণ তো দিলেনই।

বিজ্ঞাপন
মন্তব্য পড়ুন 0