default-image
আইসিসির কালো তালিকাভুক্ত জুয়াড়ি দীপক আগারওয়ালের প্রস্তাব গোপন করে শাস্তি পেয়েছেন সাকিব আল হাসান। এই দীপকের কারণে আত্মহত্যার পথ বেছে নিতে হয়েছিল আরেক ক্রিকেট জুয়াড়িকে

দীপক আগারওয়াল আইসিসির কালো তালিকাভুক্ত জুয়াড়ি। তাঁর প্রস্তাব গোপন করে শাস্তি পেয়েছেন সাকিব আল হাসান। বাংলাদেশের টেস্ট ও টি-টোয়েন্টি অধিনায়ক নিষিদ্ধ হওয়ার পর হইচই পড়ে গেছে ভারতীয় এ জুয়াড়িকে নিয়ে। তারই ধারাবাহিকতায় একে একে বেরিয়ে আসছে আশ্চর্য সব তথ্য। এবার ভারতীয় সংবাদমাধ্যম জানাল, এই দীপকের হুমকি সইতে না পেরে আত্মহত্যা করেছিলেন বিজয় কুমার নামের আরেক জুয়াড়ি।

রাজস্থানের উদয়পুরে এ ঘটনা ঘটেছে বেশ কয়েক বছর আগে। বিজয় কুমার নিজেও ছিলেন ক্রিকেট জুয়াড়ি। নিজের ঘরে ফাঁস নিয়ে আত্মহত্যা করেন তিনি। মৃত্যুর আগে সুইসাইড নোটে লিখে যান, এক জুয়াড়িকে ৫ লাখ রুপি ধার দেওয়ার পর থেকেই হতাশায় ভুগছিলেন বিজয় কুমার, যে কারণে আত্মহত্যা করেছিলেন।

২৯ বছর বয়সী এ জুয়াড়ির আত্মহত্যা নিয়ে উদয়পুরের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার তেজরাজ সিং ‘টাইমস অব ইন্ডিয়া’কে বলেছেন, ‘ একজন জুয়াড়িকে ৫ লাখ রুপি ধার দেওয়ার কথা সুইসাইড নোটে লিখে যান তিনি। ধার দেওয়ার পর থেকেই হতাশায় ভুগছিলেন। তাঁর অভিযোগ ছিল এক জুয়াড়ির প্রতি। দীপক আগারওয়াল নামের সেই জুয়াড়ি তাঁকে জুয়া ধরার জন্য বল প্রয়োগ করে করে আসছিল। দীপকের কাছ থেকে টাকা ফেরত আনতে কর্তৃপক্ষের কাছে সে অনুরোধ করেছিল সুইসাইড নোটে।’

ভারতীয় সংবাদমাধ্যম জানিয়েছে, ফ্র্যাঞ্চাইজি ক্রিকেট ও আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে বেশ আগে থেকেই ফিক্সিং করে আসছেন দীপক। ২০১৭ সালের এপ্রিলে তাঁকে রায়গড় থেকে গ্রেপ্তার করেছিল পুলিশ। কিন্তু তাতেও শিক্ষা হয়নি দীপকের। ছাড়া পেয়ে চালিয়ে যান স্পট ফিক্সিং।

বিজ্ঞাপন
মন্তব্য করুন