৪৩ বলে ৪৪ রান করে ১৯তম ওভারের শেষ বলে আউট হয়েছেন লিটন দাস
সম্প্রচার শেষ ২৯ অক্টোবর ২০২১, ২০: ১৮

৩ রানে হারল বাংলাদেশ

১৫: ৩৪, অক্টোবর ২৯

টস

টসে জিতে ফিল্ডিংয়ের সিদ্ধান্ত নিয়েছেন অধিনায়ক মাহমুদউল্লাহ।

১৫: ৩৯, অক্টোবর ২৯

বাংলাদেশ একাদশ

একাদশে দুইটি পরিবর্তন এনেছে বাংলাদেশ। চোটের কারণে ছিটকে গেছেন নুরুল হাসান, তাঁর জায়গায় খেলছেন সৌম্য সরকার। নাসুম আহমেদের জায়গায় বাংলাদেশ খেলাচ্ছে তাসকিন আহমেদকে।

একাদশ

লিটন দাস, মোহাম্মদ নাঈম, সাকিব আল হাসান, মুশফিকুর রহিম, মাহমুদউল্লাহ (অধিনায়ক), সৌম্য সরকার, আফিফ হোসেন, মেহেদী হাসান, শরীফুল ইসলাম, তাসকিন আহমেদ, মোস্তাফিজুর রহমান।

১৫: ৪৩, অক্টোবর ২৯

ওয়েস্ট ইন্ডিজ একাদশ

একাদশে দুই পরিবর্তন এনেছে ওয়েস্ট ইন্ডিজও। লেন্ডল সিমন্স ও হেইডেন ওয়ালশ জুনিয়র বাদ পড়েছেন। দলে এসেছেন রোসটন চেজ ও জেসন হোল্ডার।

চেজের এটি আন্তর্জাতিক টি-টোয়েন্টি অভিষেক। আর হোল্ডার বিশ্বকাপের মূল দলে ছিলেন না গতকালের আগেও। ওবেদ ম্যাকয়ের চোটে মূল দলে সুযোগ পেয়েছেন রিজার্ভ হিসেবে থাকা এ অলরাউন্ডার।

পোলার্ড জানিয়েছেন, ওপেনিংয়ে আসবেন ক্রিস গেইল।

একাদশ

এভিন লুইস, ক্রিস গেইল, রোসটন চেজ, শিমরন হেটমায়ার, কাইরন পোলার্ড (অধিনায়ক), নিকোলাস পুরান, আন্দ্রে রাসেল, ডোয়াইন ব্রাভো, জেসন হোল্ডার, আকিল হোসেইন, রবি রামপল

১৫: ৪৪, অক্টোবর ২৯

বাঁচা-মরার ম্যাচ

২ ম্যাচ, ০ জয়। দুই দলের পরিসংখ্যানই এমন। বাংলাদেশ ও ওয়েস্ট ইন্ডিজের জন্য তাই এটি বাঁচা-মরার ম্যাচ। টুর্নামেন্টে টিকে থাকতে এ ম্যাচে জয়ের বিকল্প নেই বললেই চলে।

default-image
১৬: ০৫, অক্টোবর ২৯

দুই বাঁহাতির বিপক্ষে মেহেদী

দুই বাঁহাতি ওপেনার। প্রথম ওভারে এসেছেন অফ স্পিনার মেহেদী হাসান।

প্রথম বলে ডাউন দ্য লেগে ওয়াইড করলেও চতুর্থ বলটা ভেতরের দিকে ঢুকিয়েছিলেন মেহেদী। প্রথম ওভারে এসেছে ৪ রান।

১৬: ১৪, অক্টোবর ২৯

শারজায় বাংলাদেশিদের দাপট

সুপার টুয়েলভে প্রথম ম্যাচের আগে হেড কোচ রাসেল ডমিঙ্গো জানিয়েছিলেন, শারজার কন্ডিশন ঢাকার মতো মনে হচ্ছে তাদের কাছে। শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে সে ম্যাচে অবশ্য শেষ পর্যন্ত ‘ঢাকা’র সুবিধা আদায় করতে পারেনি বাংলাদেশ।

তবে আজ শারজায় ঢাকার আবহ আছে ভালোভাবেই। গ্যালারির প্রায় পুরোটাই বাংলাদেশিদের দখলে। গ্যালারির সমর্থন বাংলাদেশের পক্ষে, মাঠে ক্রিকেটারদের পাফরম্যান্সে সেটার প্রভাব থাকবে শেষ পর্যন্ত?

default-image
১৬: ১৮, অক্টোবর ২৯

মোস্তাফিজের আঘাত

ক্রিস গেইল ফ্রেমেই ছিলেন না। পয়েন্ট থেকে থ্রো-টা সরাসরি লাগলেই ফিরতে হতো ‘ইউনিভার্স বস’-কে। তবে সাকিব আল হাসান সফল হননি। এরপর এলবিডব্লুর আবেদন হয়েছিল তাঁর বিপক্ষে, তবে ইনসাইড-এজ ছিল তাতে।

গেইল অক্ষত থাকলেও মোস্তাফিজের শেষ বলে ফিরেছেন এভিন লুইস। তুলে মারতে গিয়ে খাড়া ওপরে তুলেছেন লুইস, স্কয়ার লেগে সহজ ক্যাচ নিয়েছেন মুশফিকুর রহিম। মোস্তাফিজ সফল হয়েছেন নিজের প্রথম ওভারেই। লুইস ফিরেছেন ৬ রান করে।

ওয়েস্ট ইন্ডিজ ১২/১, ৩ ওভার।

default-image
১৬: ২১, অক্টোবর ২৯

গ্যালারিতে লাল-সবুজের দাপট

default-image
১৬: ২৬, অক্টোবর ২৯

গেইল ব মেহেদী

মেহেদীকে সরিয়ে মোস্তাফিজকে এনেছিলেন মাহমুদউল্লাহ। মোস্তাফিজ ফিরিয়েছেন লুইসকে। এবার মোস্তাফিজকে সরিয়ে মেহেদীকে আনলেন, মেহেদী ফেরালেন গেইলকে। ভেতরের দিকে ঢোকা বলে ব্যাট চালিয়ে সংযোগটা ঠিকঠাক করতে পারেননি গেইল, হয়েছেন বোল্ড। গেইল করেছেন ১০ বলে ৪ রান। ওয়েস্ট ইন্ডিজ দ্বিতীয় উইকেট হারিয়েছে ১৮ রানে।

টি-টোয়েন্টিতে এ নিয়ে চতুর্থবার মেহেদীর বলে আউট হলেন গেইল।

(টুইটটা গেইল এ ইনিংসে আউট হওয়ার আগের)

১৬: ৩৪, অক্টোবর ২৯

২৮ রান, ২ উইকেট, ৬ ওভার

পাওয়ারপ্লের ভেতর চতুর্থ বোলার হিসেবে শরীফুল ইসলামকে এনেছেন মাহমুদউল্লাহ। হেটমায়ারের প্যাডে দুইবার আঘাত করলেও ওভার দ্য উইকেট থেকে বোলিং করা শরীফুলের দুইটি বলই পড়েছিল লেগস্টাম্পের বাইরে। নিজের প্রথম ওভারে শরীফুল দিয়েছেন ৮ রান।

পাওয়ারপ্লেতে ওয়েস্ট ইন্ডিজ তুলেছে ২৮ রান, তবে হারিয়ে ফেলেছে ২ উইকেট। বিশ্বকাপে পাওয়ারপ্লেতে বাংলাদেশের বিপক্ষে কোনো দলের এটি দ্বিতীয় সর্বনিম্ন স্কোর।

শারজায় ম্যাচের এ অংশ পর্যন্ত নিয়ন্ত্রণ বাংলাদেশেরই।

১৬: ৩৯, অক্টোবর ২৯

চেজকে নয়, হেটমায়ারকে ফেরালেন মেহেদী

রোসটন চেজ দিয়েছিলেন ফিরতি ক্যাচ। তবে সহজ সুযোগটা হাতছাড়া করেছেন মেহেদী। দ্বিতীয় সাফল্য পেতে অবশ্য বেশিক্ষণ অপেক্ষা করতে হয়নি মেহেদীকে। পরের বলেই তুলে মারতে গিয়ে লং-অফে সৌম্য সরকারের হাতে ধরা পড়েছেন শিমরন হেটমায়ার, ৭ বলে ৯ রান করে।

ওয়েস্ট ইন্ডিজের ওপর চড়ে বসেছে বাংলাদেশ!

ওয়েস্ট ইন্ডিজ ৩৩/৩, ৭ ওভার।

১৬: ৪৭, অক্টোবর ২৯

শিগগির দেখা যাবে সাকিবকে?

১৬: ৫৩, অক্টোবর ২৯

১০ ওভার, ২ বাউন্ডারি, ৩ উইকেট

হ্যামস্ট্রিংয়ের চোটে উঠে গিয়েছিলেন, তবে মাঠে নেমেছেন আগেই। দুই ডানহাতির সামনে দশম ওভারে প্রথমবারের মতো বোলিংয়ে এসেছেন সাকিব। তবে ঠিক স্বস্তিতে থাকতে দেখা যায়নি তাঁকে।

ব্যাটিংয়ে এখন পর্যন্ত স্বস্তিতে নেই উইন্ডিজও। এখন পর্যন্ত তাদের ইনিংসে এসেছে দুইটি বাউন্ডারি। প্রথম ১০ ওভারে মাত্র ৪৮ রান তুলেছে তারা।

১৭: ০৩, অক্টোবর ২৯

(অবশেষে) আরেকটি চার

স্কয়ার লেগে শেষ মুহুর্তে ঝাঁপিয়ে বলে হাত লাগিয়েছিলেন নাঈম। তবে সীমানার এপারে রাখতে পারেননি বলটা। মোস্তাফিজের বলে রোসটন চেজ মেরেছেন ওয়েস্ট ইন্ডিজ ইনিংসের তৃতীয় চার। এর আগে সর্বশেষ চারটি এসেছিল ষষ্ঠ ওভারে।

ওয়েস্ট ইন্ডিজ ৫৬/৩, ১১ ওভার।

১৭: ১০, অক্টোবর ২৯

যখন আপনি ক্রিস গেইলকে আউট (বোল্ড) করেন!

default-image
১৭: ১৪, অক্টোবর ২৯

উঠে গেলেন পোলার্ড, রাসেল ডায়মন্ড ডাক!

১৬ বল, ৮ রান। কাইরন পোলার্ডের ক্রিজে সময়টা ভালো যাচ্ছিল না মোটেও। এবার উঠেই গেলেন উইন্ডিজ অধিনায়ক। আহত অবসর হয়ে ফিরেছেন তিনি।

পরের বলে তাসকিনকে স্ট্রেইট ড্রাইভ খেলেছেন রোসটন চেজ। তবে সে শটে পা লাগিয়েছেন তাসকিন, এরপর সেটা ভেঙেছে স্টাম্প, সে সময় ক্রিজের বেশ বাইরে ছিলেন রাসেল। কোনো বল না খেলেই রান-আউট তিনি।

default-image
১৭: ১৯, অক্টোবর ২৯

এক ওভার, দুই সুযোগ, শূন্য উইকেট

সাকিবের বলে ক্যাচ তুলেছিলেন রোসটন চেজ। আরেকটি সহজ ক্যাচ ফেলেছেন মেহেদী হাসান। এবার মিডউইকেটে। এর আগে নিজের বলেই চেজের ক্যাচ ফেলেছিলেন তিনি।

এরপর নিকোলাস পুরান ক্রিজ ছেড়ে বেরিয়েছিলেন, সাকিব করেছিলেন লেগসাইডে। তবে লিটন ধরতে পারেননি বলটা, পারলে স্টাম্পিং হতে পারতেন পুরান।

ওয়েস্ট ইন্ডিজ ৭০/৪, ১৪ ওভার।

১৭: ২৮, অক্টোবর ২৯

মোস্তাফিজ ১৪, সাকিব ১৫

আগের ওভারে দুই চারে ১৪ রান দিয়েছেন মোস্তাফিজ। ১৬তম ওভারে প্রথম ২ বলেই সাকিবকে ২ ছয় মেরেছেন পুরান। ওভার দ্য উইকেট থেকে করা সাকিবকে স্কয়ার লেগে বাউন্ডারির ওপারে পাঠিয়েছেন তিনি। সাকিব পরের ডেলিভারিগুলোতে ভালোভাবে ফিরে এলেও এ ওভারে উঠেছে ১৫ রান।

default-image
১৭: ৩৯, অক্টোবর ২৯

পুরান-ঝড়

১৭তম ওভারে শরীফুল দিয়েছেন মাত্র ৪ রান। তবে পরের ওভারে মেহেদীর ওপর চড়াও হয়েছেন পুরান। স্লটে পাওয়া দুটি বলেই মেরেছেন ছয়, দুইটি লং-অফ দিয়ে। উইন্ডিজ ইনিংসে এখন পর্যন্ত হয়েছে ৪টি ছয়, সবকটিই মেরেছেন পুরান।

ওয়েস্ট ইন্ডিজ ১১৯/৪, ১৮ ওভার।

default-image
১৭: ৪৩, অক্টোবর ২৯

শরীফুলের ২ বলে ২ উইকেট

শরীফুল আগের ওভারে চাপ তৈরি করেছিলেন, পরের ওভারে এসে ফেরালেন পুরানকে। অফস্টাম্পের বেশ বাইরের বলে ব্যাট চালিয়ে ক্যাচ দিয়েছেন শরীফুল।

ঠিক পরের বলে শরীফুল বোল্ড করেছেন এতক্ষণ ক্রিজে থাকা রোসটন চেজকে। ওভার দ্য উইকেট থেকে করা বলটা জায়গা বানিয়ে খেলতে গিয়ে মিস করেছেন চেজ।

২২ বলে ৪০ রান করেছেন পুরান, চেজ আউট হয়েছেন ৪৬ বলে ৩৯ রানে।

হ্যাটট্রিক বলে সিঙ্গেল নিয়েছেন জেসন হোল্ডার।

শরীফুল পেতে পারতেন আরেকটি উইকেট, তবে কাভারে হোল্ডারের সহজ ক্যাচ ফেলেছেন আফিফ হোসেন। ইনিংসে এ নিয়ে তিনটি ক্যাচ ফেলল বাংলাদেশ, হাতছাড়া হয়েছে একটি স্টাম্পিং ও একটি রান-আউটের সুযোগও।

১৭: ৫৬, অক্টোবর ২৯

শেষ ৬ ওভারে ৭২, ২০ ওভারে উইন্ডিজের ১৪২

মোস্তাফিজের করা শেষ ওভারের প্রথম বলে ক্যাচ দিয়েছেন ডোয়াইন ব্রাভো। ডিপ কাভারে এবার ভুল করেননি সৌম্য।

পরের ২ বলে ২ ছয় মেরেছেন হোল্ডার। ব্রাভো আউট হওয়ার পরই আবারও নেমেছেন কাইরন পোলার্ড। ১৬ বলে ৮ রান করে উঠে গিয়েছিলেন তিনি। মোস্তাফিজের শেষ বলে পোলার্ড মেরেছেন ছয়। উইন্ডিজ থেমেছে ১৪২ রানে।

১৩তম ওভারে রাসেল যখন কোনো বল না খেলেই আউট হন, উইন্ডিজের স্কোর ছিল ৪ উইকেটে ৬২। তবে পুরানের পর হোল্ডারের ঝড়ে লড়াই করার মতো সংগ্রহ পেয়েছে তারা। বাংলাদেশ শেষদিকে চাপ ধরে রাখতে পারেনি, পিচ্ছিল ফিল্ডিং-ও ভুগিয়েছে তাদের।

শেষ ৬ ওভারে উইন্ডিজ তুলেছে ৭২ রান।

default-image
১৮: ০৮, অক্টোবর ২৯

ওপেনিংয়ে সাকিব আল হাসান

৩৬৭ ম্যাচ, ৪০৩ ইনিংস। লম্বা ক্যারিয়ারে আজই প্রথমবার ইনিংস ওপেন করতে এলেন সাকিব আল হাসান।

ওপেনিংয়ে ভুগছিলেন লিটন দাস। তবে আজ চোটের কারণে আগেই নুরুল হাসান ছিটকে যাওয়ায় উইকেটকিপিং করেছেন তিনি। নাঈমের সঙ্গে এসেছেন সাকিব।

বাংলাদেশ ৪/০, ১ ওভার।

default-image
১৮: ২২, অক্টোবর ২৯

৪ ওভার, ২০ রান

একটি করে চার মেরেছেন সাকিব ও নাঈম। তবে এরপর থেকে টাইমিং ঠিকঠাক হয়নি, অথবা বের করতে পারেননি গ্যাপ। আপাতত ইতিবাচক কিন্তু পাওয়ারপ্লেতে ধীরগতির শুরু বাংলাদেশের। রবি রামপল ও জেসন হোল্ডারই করেছেন প্রথম ৪ ওভার।

১৮: ২৪, অক্টোবর ২৯

নাঈম নয়, সাকিবকে ফেরালেন রাসেল

মিডউইকেটে নাঈমের সহজ ক্যাচ ফেলেছেন উইন্ডিজ দলের অন্যতম সেরা ফিল্ডার হেইডেন ওয়ালশ জুনিয়র। তবে আন্দ্রে রাসেলের পরের বলেই ক্যাচ তুলেছেন সাকিব আল হাসান। মিড অফে সহজ ক্যাচ নিতে একটুও নড়তে হয়নি হোল্ডারকে। আন্তর্জাতিক ক্যারিয়ারে প্রথমবার ওপেনিংয়ে এসে ১২ বলে ৯ রান করেই ফিরতে হলো সাকিবকে।

default-image
১৮: ৩২, অক্টোবর ২৯

নাঈম ব হোল্ডার

সিমের ওপর হাত ঘুরিয়ে বলের গতি কমিয়ে এনেছিলেন হোল্ডার, বলটা ওঠেওনি সেভাবে। তবে অন দি আপে শট খেলতে থাকা নাঈম এ বলেও ব্যাট চালিয়ে এটাকে ডেকে আনলেন স্টাম্পে। ১৯ বলে ১৭ রান করলেন নাঈম, পাওয়ারপ্লে-তে বাংলাদেশ হারাল দ্বিতীয় উইকেট।

চারে এসেছেন সৌম্য সরকার। প্রথম ৬ ওভারে বাংলাদেশের রান ২৯।

১৮: ৪৩, অক্টোবর ২৯

৯ রানের ওভার

রাসেলকে মিডউইকেট দিয়ে টেনে চার মেরেছেন সৌম্য সরকার। অষ্টম ওভারে উঠেছে ৯ রান, ইনিংসে এখন পর্যন্ত সর্বোচ্চ রানের অভার এটিই। অন্যপ্রান্তে এসেছেন বাঁ হাতি স্পিনার আকিল হোসেইন। আপাতত ইনিংস গঠনের দিকেই মনযোগ লিটন-সৌম্যর।

১৮: ৪৯, অক্টোবর ২৯

১০ ওভারে প্রয়োজন ৮৮ রান

দশম ওভারে এসেছেন ডোয়াইন ব্রাভো। চতুর্থ বলে ক্রিজ ছেড়ে বেরিয়ে ফুলটস বানিয়েছেন লিটন, কাভার দিয়ে মেরেছেন চার। পরের বলে সিঙ্গেল চুরি করতে গিয়ে রান-আউট হতে ধরেছিলেন লিটন, তবে রবি রামপল সরাসরি ভাঙতে পারেননি স্টাম্প।

শেষ ১০ ওভারে বাংলাদেশের প্রয়োজন ৮৮ রান।

১৮: ৫৭, অক্টোবর ২৯

ভাঙল জুটি

আগের বলে কাউ কর্নার দিয়ে ভালো একটা চার মেরেছিলেন সৌম্য। তবে আকিল হোসেইনের পরের বলে আগে থেকেই জায়গা বানাতে গেলেন। শেষ পর্যন্ত লিডিং-এজ হয়েছেন, থার্ডম্যানে সামনে ঝুঁকে ক্যাচ নিয়েছেন ক্রিস গেইল।

সৌম্য করেছেন ১৩ বলে ১৭ রান। লিটনের সঙ্গে তাঁর জুটি ৩১ রানের।

১৯: ০৪, অক্টোবর ২৯

বুম!

default-image
১৯: ০৬, অক্টোবর ২৯

১৫ রানের ওভার

লেগসাইডে ওয়াইড, চার। এরপর মিসফিল্ডে চার। পরের বলে ওয়াইড। ব্রাভোর ওভারে একতা বৈধ ডেলিভারি থেকেই এসেছিল ১০ রান।

শেষ পর্যন্ত এ ওভারে এসেছে ১৫ রান।

১৯: ১১, অক্টোবর ২৯

শেষ করলেন আকিল

রোসটন চেজের পার্ট-টাইম স্পিন বাদ দিলে উইন্ডিজ একাদশে একমাত্র স্পিনার আকিল। ৪ ওভারে ২৪ রান, সঙ্গে সৌম্য সরকারের উইকেট নিয়ে স্পেল শেষ করলেন এ বাঁহাতি। শেষ ৪২ বলে প্রয়োজন ৫৭ রান।

১৯: ১৫, অক্টোবর ২৯

মুশফিকের 'ডেথ-স্কুপ'

কাট করে চার মারলেন, মুশফিক তাতে সন্তুষ্ট হলেন না। রামপলকে স্কুপ করতে গিয়ে পুরোপুসি মিস করে গেছেন তিনি, হয়েছেন বোল্ড। লিটনের সঙ্গে জুটিটা জমছিল, অসময়ে ফিরলেন মুশফিক।

১৯: ১৯, অক্টোবর ২৯

৩৬ বল, ৫০ রান

শেষ ৩৬ বলে বাংলাদেশের প্রয়োজন ৫০ রান। শেষ ৩৬ বলে ওয়েস্ট ইন্ডিজ তুলেছিল ৭২ রান।

১৯: ২৯, অক্টোবর ২৯

হোল্ডারের স্পেল শেষ

স্কুপ করে চার মেরেছেন মাহমুদউল্লাহ। ডিপ ফাইন লেগ ছিল বেশ স্কয়ারে। জেসন হোল্ডারের শেষ ওভারে উঠেছে ১১ রান। ২৪ বলে বাংলাদেশের প্রয়োজন ৩৩ রান।

১৯: ৩৪, অক্টোবর ২৯

ব্রাভোর ওভারে ৩ রান

প্রথম ২ ওভারে ২৪ রান দেওয়া ‘স্লোয়ার-মাস্টার’ ব্রাভো তৃতীয় ওভারে দিলেন মাত্র ৩ রান। তবে এটা ইনিংসের ১৭তম ওভার। বাংলাদেশের চাপ বাড়লো আরেকটু। ১৮ বল, ৩০ রান।

১৯: ৩৯, অক্টোবর ২৯

১২ বল, ২২ রান

রামপলের প্রথম বলটা ছিল লেগসাইডের বাইরে, ফ্লিক করে চার মেরেছেন লিটন। পরের চার বলে এসেছে চারটি সিঙ্গেল। শেষ বল স্কুপ করতে গিয়ে মিস করেছেন লিটন।

১৯: ৪৫, অক্টোবর ২৯

শেষ ওভারে বাংলাদেশের প্রয়োজন ১৩ রান

১৯তম ওভারের প্রথম বলে ডোয়াইন ব্রাভোকে সোজা মাথার ওপর দিয়ে ছয় মেরেছেন মাহমুদউল্লাহ, ধীরগতির বলটা ‘পিক’ করেছেন দারুনভাবে। পরের ৪ বলে এসেছে তিনটি সিঙ্গেল। শেষ বলে তুলে মেরেছিলেন লিটন, তবে লং-অফে জেসন হোল্ডারকে ফাঁকি দিতে পারেননি তিনি। লিটন ফিরেছেন ৪৩ বলে ৪৪ রান করে।

default-image
১৯: ৫৪, অক্টোবর ২৯

৩ রানে হারল বাংলাদেশ

শেষ ওভারে প্রয়োজন ছিল ১৩ রান।

রাসেলের প্রথম বলে ডাবলস, দ্বিতীয় বলে লেগ-বাই থেকে একটা সিঙ্গেল নিয়েছিলেন আফিফ। তৃতীয় বলটা ইয়র্কার থাকলেও আরেকটা ডাবলস নিতে পেরেছিলেন মাহমুদউল্লাহ। চতুর্থ বলে স্কয়ার লেগে মাহমুদউল্লাহর ক্যাচ ফেলেছেন বদলি ফিল্ডার আন্দ্রে ফ্লেচার, সে বলেও এসেছিল ২ রান। পঞ্চম বলে আরেকটা মিসফিল্ড থেকে এসেছে আরেকটা ডাবলস, এবার ফিল্ডার ছিলেন হোল্ডার।

শেষ বলে প্রয়োজন ছিল ৪ রান। তবে রাসেলের ইয়র্কারে সুবিধা করতে পারেননি মাহমুদউল্লাহ। অনেকটা কাছে গিয়েও থামতে হলো বাংলাদেশের। ৩ রানে হেরে কার্যত বিদায় নিশ্চিত হয়ে গেল মাহমুদউল্লাহর দলের, অন্যদিকে তৃতীয় ম্যাচে প্রথম জয়ে টিকে থাকল বিশ্ব চ্যাম্পিয়ন ওয়েস্ট ইন্ডিজ।

২০: ১৮, অক্টোবর ২৯

শেষের নায়ক রাসেল, ম্যাচের নায়ক পুরান

ব্যাটিংয়ে কোনো বল না খেলেই রান-আউট হতে হয়েছিল তাঁকে। তবে বোলিংয়ে ঠিকই জ্বলে উঠলেন রাসেল। শেষ ওভারে ১৩ রান ডিফেন্ড করেছেন তিনি, ৪ ওভারে ২৯ রান দিয়ে নিয়েছেন ১ উইকেট।

ম্যাচসেরার পুরস্কার গেছে অবশ্য নিকোলাস পুরানের কাছেই। আগে ব্যাটিং করে ধুঁকতে থাকা ওয়েস্ট ইন্ডিজকে লড়াই করার মতো স্কোর এনে দিয়েছিলেন এ বাঁহাতিই, ২২ বলে ৪০ রানে রিনিংসে।

default-image