বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন

নিউজিল্যান্ডের সমালোচনাও শোনা গেল সাবেক এই অধিনায়কের কথায়, ‘ওদের (নিউজিল্যান্ড) গত দুই দিন খুব বিবর্ণ মনে হয়েছে। এটা হতে পারে যখন আপনি মৌসুমের প্রথম ম্যাচ খেলতে নামবেন। তবে তারা নিজেদের হতাশ করেছে। কারণ, আজ ওরা যখন বোলিং করার সুযোগ পেয়েছে, তখন বুঝতে পেরেছে উইকেট কতটা ফ্ল্যাট। এই উইকেটেই ওরা ৭০ রানে ৫ উইকেট হারিয়েছে আরও কিছু রান যোগ করার সুযোগ হারিয়েছে। এটা অনেক বড় ধাক্কা ছিল।’

সাবেক নিউজিল্যান্ড ওপেনার মার্ক রিচার্ডসনের কাছেও টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপের শিরোপাজয়ী দল ছন্দে আছে বলে মনে হয়নি। একই আলোচনায় ম্যাককালামের সঙ্গে সুর মিলিয়ে নিয়ে রিচার্ডসন বলেন, ‘নিউজিল্যান্ডকে নিউজিল্যান্ডের মতো মনে হয়নি। ওদের কেমন জানি এলোমেলো মনে হয়েছে। ব্যাটিং থেকে শুরু করে সেটা যেন বোলিংয়েও ধরা দিয়েছে।’

default-image

আরেক কিউই সাবেক ক্রেইগ ম্যাকমিলান অবশ্য মনে করেন দ্বিতীয় দিনের আলোচনাটা হওয়া উচিত বাংলাদেশ দলের পারফরম্যান্স নিয়েই। তিনি বলছিলেন, ‘ভালো দিন, খুবই ভালো দিন গেল বাংলাদেশের। ওরা যেভাবে দিনটা শুরু করেছে, সেখান থেকে চিন্তা করে দেখুন। নিউজিল্যান্ডকে এত দ্রুত অলআউট করে তারা তাদের বোলিং সামর্থ্য দেখিয়েছে। নিউজিল্যান্ডের আরও ৫০-৭০ রান করা দরকার ছিল। সেদিক থেকে দিনটা খুব ভালো শুরু হয়েছে।’

বাংলাদেশের দুই তরুণ ব্যাটসম্যান নাজমুল হাসান ও মাহমুদুল হাসানের জুটি প্রসঙ্গ উঠে এসেছে ম্যাকমিলানের কথায়। দুজনের ২৩৯ বলে গড়া ১০৪ রানের ম্যারাথন জুটির প্রশংসায় তিনি বলেন, ‘এরপর বাকি দিন দাপটটা ওদের ব্যাটসম্যানদের। ওদের ব্যাটসম্যানদের বিদায় করতে নিউজিল্যান্ড সব চেষ্টাই করেছে। কিন্তু জয় ও শান্ত সফরকারীদের চালকের আসনে বসিয়ে রেখেছে।’

ক্রিকেট থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন