বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন

সামনেই টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ। ক্রিকেটের ছোট সংস্করণের বিশ্বকাপটা প্রথম জিতেছিল ভারতই। গত এক দশকে তারা একটি ওয়ানডে বিশ্বকাপ জিতেছে, টেস্ট ক্রিকেটের শীর্ষ দল হয়েছে, আরও দুটি ওয়ানডে বিশ্বকাপ ও টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ জয়ের খুব কাছে পৌঁছেছে। জিতেছে ক্রিকেটের আরেক বৈশ্বিক ট্রফি চ্যাম্পিয়নস ট্রফি। তারপরও ভারত পাকিস্তান ক্রিকেট দলের সঙ্গে লড়াইয়ের সামর্থ্য রাখে না!

এআরওয়াই টিভির সঙ্গে আলাপকালে রাজ্জাক বলেছেন, ভারত পাকিস্তানের সঙ্গে দ্বিপক্ষীয় সিরিজ খেলতে চায় না হারের ভয়ে, ‘আমি মনে করি পাকিস্তানের সঙ্গে ভারত কোনোভাবেই লড়তে পারবে না। পাকিস্তান দলে যে পরিমাণ প্রতিভা আছে, ভারতের তা নেই। তবে পাকিস্তান ও ভারতের ম্যাচ না হওয়া ক্রিকেটের জন্য বড় ক্ষতিই। ভারত, পাকিস্তান ম্যাচেই আসলে একজন ক্রিকেটার কতটুকু চাপ সামলাতে পারে, তার একটা বড় পরীক্ষা। তবে এই দুই দলের মধ্যে সিরিজ হলে লোকেরা সহজেই বুঝতে পারত আসল কথাটা। ভারত এটা খুব ভালোই বোঝে। কারণ, পাকিস্তানের মতো চাপ সামলানোর মতো ক্রিকেটার তাদের নেই।’

default-image

অতীতেও যে পাকিস্তান ভারতের চেয়ে এগিয়ে ছিল, রাজ্জাকের খুব ভালোই স্মরণে আছে তা, ‘আমাদের দলে একজন ইমরান খান ছিলেন। ভারতও ভালো দল ছিল। ওদের দলে ছিলেন কপিল দেব। কিন্তু ইমরান খানের প্রতিভা অনেক বেশি। তিনি কপিলের চেয়ে এগিয়ে ছিলেন। ওয়াসিম আকরামের মতো কেউই ছিল না ভারতের। আমাদের জাভেদ মিয়াঁদাদের সঙ্গে সুনীল গাভাস্কারেরও কোনো তুলনা হয় না। আমাদের ইনজামাম-উল-হক, ওয়াকার ইউনিসদের সময় অবশ্য ভারতের শেবাগ ও দ্রাবিড়ের মতো ভালো ক্রিকেটাররা ছিলেন। কিন্তু সার্বিকভাবে ভারতের চেয়ে পাকিস্তান দলে প্রতিভা বেশি ছিল।’

ভারতের পাকিস্তানের বিপক্ষে লড়ার সামর্থ্য কেমন সেটি রাজ্জাক খুব শিগগির দেখতে পাবেন। ২৪ অক্টোবর টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপে ভারতের মুখোমুখি হবে পাকিস্তান। বিশ্বকাপে অবশ্য ইমরান-ওয়াসিম-মিয়াঁদাদরাও ‘পিছিয়ে থাকা’ ভারতকে কখনো হারাতে পারেননি।

ক্রিকেট থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন