বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন
default-image

খুবই স্বাভাবিক ব্যাপার। পিএসএলে দল পাওয়া ক্রিকেটারদের পক্ষে তো আর বিপিএলে খেলা সম্ভব নয়! বিপিএলের জন্য পাকিস্তানের ক্রিকেটাররা পিএসএল ছেড়ে আসবেন, এমন ভাবনাও অবান্তর। পিসিবির সিদ্ধান্ত তাই অবাক করে না। সিদ্ধান্তটা এই, পিএসএলে যে ক্রিকেটাররা দল পাবেন না, তাঁদের বিপিএলে খেলার ক্ষেত্রে বাধা হয়ে দাঁড়াবে না পিসিবি।

বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লিগ শুরু হবে আগামী ২১ জানুয়ারি। পিএসএল শুরু হবে এর ছয় দিন পর, ২৭ জানুয়ারি।

default-image

তবে পিসিবির নতুন এ সিদ্ধান্তের পরও বিপিএল ভক্তদের তেমন খুশি হওয়ার কিছু নেই। একে তো পিএসএলের দল না পাওয়া ক্রিকেটাররাই শুধু আসতে পারবেন বিপিএলে, তার মানে ধরেই নেওয়া যায়, তাঁরা পাকিস্তানের প্রথম সারির ক্রিকেটার নন...তার ওপর ‘বাতিল’ এই ক্রিকেটাররাও বিপিএলের চিন্তা মাথায় নেওয়ার আগে ৭ জানুয়ারি পিএসএলের দ্বিতীয় দফা ড্রাফটের জন্য অপেক্ষা করছেন।

৭ জানুয়ারি কী? প্রথম দফার ড্রাফটে এই খেলোয়াড়েরা কোনো দল পাননি, তবে টুর্নামেন্টের জন্য ২০ জনের স্কোয়াড সাজাতে পিএসএলের ফ্র্যাঞ্চাইজিগুলো ৭ জানুয়ারি পর্যন্ত আরও দুজন করে খেলোয়াড় বেছে নিতে পারবে।

নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক এক পাকিস্তানি ক্রিকেটারের বরাত দিয়ে পাকিস্তানের ক্রিকেটবিষয়ক ওয়েবসাইট ক্রিকেট পাকিস্তান লিখেছে, পাকিস্তানের দল না পাওয়া খেলোয়াড়েরা এখন জানুয়ারির ড্রাফটের অপেক্ষায় আছেন। কারণ, বিপিএলের চেয়ে পিএসএলে খেলতেই বেশি আগ্রহী তাঁরা। তবে নতুন দুজন করে নেওয়ার পরও দল না পাওয়া ক্রিকেটাররা বিপিএলে আসার কথাই ভাববেন বলে জানিয়েছেন ওই ক্রিকেটার। এমন অনেক ক্রিকেটারের হাতেই নাকি বিপিএলে খেলার প্রস্তাব আছে।

এখন পর্যন্ত পিএসএলে দল না পাওয়া ক্রিকেটারদের মধ্যে কিছুটা পরিচিত যে নামগুলো আছে, সেগুলো হলো আহমেদ শেহজাদ, উসমান শিনওয়ারি, জাহিদ মেহমুদ, মোহাম্মদ ইরফান, সোহেল খান ও জুনায়েদ খান। গত মাসের শুরুর দিকে পিএসএলের খেলোয়াড় ড্রাফট হয়ে গেছে।

ক্রিকেট থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন