সাদমান তৃতীয় দিন শেষ করেছিলেন ২২ রানে অপরাজিত থেকে। এদিন প্রথম সেশনেই পূর্ণ করেছিলেন ফিফটি, ১০১ বলে পূর্ণ করেছিলেন ফিফটি।

রিচার্ড এনগারাভার বলে সিঙ্গেল নিয়ে নড়বড়ে নব্বইয়ে গিয়েছিলেন, এরপর তিন অঙ্কে যেতে বেশিক্ষণ সময় নেননি এই বাঁহাতি ওপেনার। মিল্টন শুম্বার বলে চারের পর ডাবলসে সেঞ্চুরি পূর্ণ হয়েছে তাঁর।

অবশ্য ৫৫ রানে একটা জীবন পেয়েছিলেন সাদমান। গালিতে ডোনাল্ড তিরিপানোর বলে সহজ ক্যাচ মিস করেছিলেন ডিওন মায়ার্স। ২০১৮ সালে অভিষেকেই একমাত্র ইনিংসে ৭৬ রান করেছিলেন সাদমান, তবে ১৫তম ইনিংসে এসে ২০২১ সালে সেঞ্চুরি পেলেন তিনি।

সপ্তম বাংলাদেশি ওপেনার হিসেবে সেঞ্চুরি হলো সাদমানের। ওপেনার হিসেবে বাংলাদেশের সবচেয়ে বেশি সেঞ্চুরি আছে তামিম ইকবালের, ৯টি।

তামিমের অভিষেকের আগে ওপেনার হিসেবে সেঞ্চুরি করেছিলেন জাভেদ ওমর, নাফিস ইকবাল ও শাহরিয়ার নাফীস।

এরপর তামিম ছাড়া ওপেনিংয়ে সেঞ্চুরি করেছেন শামসুর রহমান ও ইমরুল কায়েস। তবে শামসুরের একটি ও ইমরুলের দুটি সেঞ্চুরির ম্যাচেই খেলেছিলেন তামিম। ফলে তাঁর অভিষেকের পর এই প্রথম কোনো বাংলাদেশি ওপেনার সেঞ্চুরি করলেন, তবে সে ম্যাচে নেই তামিম।