দারুণ সব রেকর্ডে নাম লেখাচ্ছেন বাবর আজম।
দারুণ সব রেকর্ডে নাম লেখাচ্ছেন বাবর আজম। ছবি: এএফপি

‘এমন একটা ইনিংসের জন্য কত দিন অপেক্ষা করেছি। পরিকল্পনা সাজিয়ে রেখেছিলাম, অপেক্ষায় ছিলাম সুযোগে পেলেই লুফে নেওয়ার। শুকরিয়া আদায় করছি যে শেষ পর্যন্ত করে দেখাতে পারলাম। নিজের শক্তিতে আস্থা ছিল। শুধু দলের প্রয়োজনে আমার গেম প্ল্যান পরিবর্তন করেছি। ওভারে ১০ রান করে দরকার থাকলে আপনাকে একটু দ্রুতই খেলতে হবে, ঝুঁকিও নিতে হবে।’

কথাগুলো বাবর আজমের। কাল সেঞ্চুরিয়নে দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে তৃতীয় টি-টোয়েন্টিতে অসাধারণ এক সেঞ্চুরি পেয়েছেন পাকিস্তান অধিনায়ক। দক্ষিণ আফ্রিকার ২০৩ রান তাতে কী অবলীলায় না পেরোল বাবরের দল। ৫৯ বলে ১৫ চার ও ৪ ছক্কায় ১২২ রান করার পথে রেকর্ডের পসরা সাজিয়ে বসেছিলেন বাবর।

বিজ্ঞাপন
default-image

পাকিস্তানের হয়ে আন্তর্জাতিক টি-টোয়েন্টিতে সর্বোচ্চ ব্যক্তিগত ইনিংস ও দ্রুততম সেঞ্চুরির রেকর্ড গড়া বাবর গড়েছেন আরেকটি বড় কীর্তিও। গতকালের ম্যাচটি ছিল পাকিস্তান অধিনায়কের ৫০তম আন্তর্জাতিক টি-টোয়েন্টি। ৫০ ম্যাচে ১ হাজার ৯১৬ রান বাবরের। ২০ ওভারের আন্তর্জাতিক ক্রিকেটের ইতিহাসে প্রথম ৫০ ম্যাচে এত রান করতে পারেননি অন্য কেউ।

কাল ওয়ানডে র‌্যাঙ্কিংয়ে যাকে সরিয়ে ব্যাটসম্যানদের মধ্যে ১ নম্বর হয়েছেন বাবর, সেই বিরাট কোহলির দখলেই ছিল আগের রেকর্ডটা। ক্যারিয়ারের প্রথম ৫০টি আন্তর্জাতিক টি-টোয়েন্টিতে ভারতের বর্তমান অধিনায়কের রান ছিল ১ হাজার ৮৩০। আর কোনো ব্যাটসম্যানের প্রথম ৫০ ম্যাচে ১ হাজার ৬০০ রানও ছিল না। ভারতের লোকেশ রাহুল অবশ্য ৫০তম ম্যাচে ১ হাজার ৬০০ রান পেয়ে যেতে পারেন। ৪৯ ম্যাচেই যে তাঁর রান ১৫৫৭।

default-image

আন্তর্জাতিক টি-টোয়েন্টি ইতিহাসে নিজের প্রথম ৫০ ম্যাচে ১ হাজার ৫০০ রান করেছেন আর মাত্র দুজন ব্যাটসম্যান। একজন টি-টোয়েন্টির ফেরিওয়ালা ক্রিস গেইল। ওয়েস্ট ইন্ডিয়ান ব্যাটসম্যান ১ হাজার ৫১৯ রান করেছিলেন প্রথম ৫০ ম্যাচে। আরেকজন ফাফ ডু প্লেসি। দক্ষিণ আফ্রিকার সাবেক অধিনায়ক করেছিলেন ১ হাজার ৫২৮ রান।


টি-টোয়েন্টিতে প্রথম ৫০ ম্যাচে সবচেয়ে বেশি রান

বিজ্ঞাপন
ক্রিকেট থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন