নিজেদের শততম টেস্টের বৃত্তপূরণ করছে বাংলাদেশ। কলম্বোর পি সারা ওভালে শ্রীলঙ্কার বিপক্ষ সিরিজের দ্বিতীয় টেস্টটি মাইলফলক হয়ে থাকছে বাংলাদেশের ক্রিকেট ইতিহাসে। ইতিহাসের সাক্ষী হতে সবাই চাইবেন এই ম্যাচটা উপভোগ করতে। তবে ব্যস্ততার কারণে সেটি হয়তো পুরোপুরি সম্ভব নয়। প্রতিটা মুহূর্তে চোখ রাখতে না পারলেও ক্ষতি নেই। বাংলাদেশের শততম টেস্ট ম্যাচের উল্লেখযোগ্য সব মুহূর্ত এক নজরে মিলবে এখানেই...

**** বাংলাদেশকে জয়ের বন্দরে নিয়ে গেলেন অধিনায়ক মুশফিকুর রহিম ২২ রানের দায়িত্বশীল এক ইনিংসে। মোসাদ্দেক দারুণ সঙ্গ দিয়েছেন অধিনায়ককে। তাঁর রান ১৩। তিনি অবশ্য শেষ করে আসতে পারেননি।
**** অসাধারণ জয় বাংলাদেশের!!!!! কলম্বোর ঐতিহাসিক পি সারা ওভালে ঐতিহাসিক এক জয় বাংলাদেশের। বিদেশের মাটিতে এটি বাংলাদেশের চতুর্থ জয়। শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে প্রথম। ৪ উইকেটের জয়ে জয়বাংলা সিরিজে সমতা আনল বাংলাদেশ।

** জয়ের জন্য ২৭ রান দরকার বাংলাদেশের। হাতে আছে ৫ উইকেট। মুশফিক-মোসাদ্দেক কী পারবেন ম্যাচটি শেষ করে আসতে?
** আউট!!! সাকিব আউট। বিচিত্রভাবে আউট হলেন সাকিব। পেরেরার বলটি সাকিবের স্টাম্প ছুঁয়ে ফেলে দিল বেল। সাকিবের পর উইকেটে এসেছেন মোসাদ্দেক।
** চা বিরতির পর বাংলাদেশের সংগ্রহ ৪ উইকেটে ১৬১। জয়ের জন্য ৩০ রান দরকার বাংলাদেশের। সাকিব ১৪, মুশফিক ৯ রানে অপরাজিত।

** বাংলাদেশের সংগ্রহ ৪ উইকেটে ১৪৪। জয়ের জন্য ৪৭ রান দরকার বাংলাদেশের। সাব্বিরের পর উইকেটে এসেছেন মুশফিকুর রহিম। সাকিব অপরাজিত ১০ রানে।
** আউট!!! সাব্বির রহমান এলবিডবব্লু হয়ে ফিরলেন ৪১ রানে। হেরাথের বলে সুইপ করতে চেয়েছিলেন সাব্বির। ব্যাটে না লেগে বল লাগে তাঁর প্যাডে। আবেদন হয়েছিল। সাড়া দেননি আম্পায়ার। তবে রিভিউ নিয়ে সফল হেরাথ।
** বাংলাদেশের সংগ্রহ ৩ উইকেটে ১৩৩। জয়ের জন্য দরকার ৫৮ রান।

** তামিম ফেরার পর উইকেটে এসেছেন সাকিব আল হাসান। সাব্বির অপরাজিত ৩৯ রানে। তামিমের সঙ্গে সাব্বিরের জুটিটা ছিল ১০৯ রানের।

** আউট!!! সেঞ্চুরি পেলেন না তামিম। কী করলেন তিনি। এত চমৎকার এক ইনিংস খেললেন অথচ পরিণতি দিয়ে আসেত পারলেন না। ১২৫ বলে ৮২ রান করে দিলরুয়ান পেরেরার বলে দিনেশ চান্ডিমালের দুর্দান্ত এক ক্যাচে পরিণত হলেন তিনি।
** বাংলাদেশের সংগ্রহ ২ উইকেটে ১২৮। তামিম ৮০ আর সাব্বির ৩৭ রানে অপরাজিত আছেন।
** তামিম-সাব্বিরের অবিচ্ছিন্ন ১০৬ রানের জুটিতে ম্যাচটা নিজেদের নিয়ন্ত্রণে নিয়ে এসেছে বাংলাদেশ। এখন দরকার কেবল দেখে-শুনে মাথা ঠান্ডা করে বাকি রান টুকু তুলে ফেলা।
** লক্ষ্যটাকে ১০০’র বেশ নিচে নামিয়ে এনেছে বাংলাদেশ। জয়ের জন্য এই মুহূর্তে দরকার আর ৬৩ রান।
** জয়ের জন্য ১০২ রান দরকার বাংলাদেশের।
** টেস্টে নিজের ২২তম ফিফটি পূরণ করলেন তামিম। ৯০ বল খেলে ৫৫ রানে অপরাজিত তিনি। সাব্বির অপরাজিত ২৪ রানে। বাংলাদেশের সংগ্রহ ২ উইকেটে ৮৯। তৃতীয় উইকেট জুটিতে এখনো পর্যন্ত এসেছে ৬৬ রান।
** জয়ের জন্য এখনো ১২৯ রান করতে হবে বাংলাদেশকে।
** ৪০ রানের অবিচ্ছিন্ন জুটি তামিম-সাব্বিরের। বাংলাদেশের সংগ্রহ ২ উইকেটে ৬৩।

** ৩৭ রানে অপরাজিত আছেন তামিম। সাব্বির তাঁকে সঙ্গ দিচ্ছেন বেশ ভালোভাবেই। সাব্বির করেছেন ১৬ রান।
** সাব্বির রহমানের সঙ্গে ১৬ রান যোগ করেছেন তামিম। তামিম অপরাজিত আছেন ২২ রানে। সাব্বিরের রান ৬। লাঞ্চ বিরতির আগে পর্যন্ত বাংলাদেশের সংগ্রহ ২ উইকেটে ৩৮। জয়ের জন্য আরও ১৫৩ রান করতে হবে বাংলাদেশকে। দিনের শেষ দুই সেশনে আরও কমপক্ষে ৫৯ ওভার ব্যাট করার সুযোগ পাবে মুশফিক-বাহিনী।
** বাংলাদেশের সংগ্রহ ২ উইকেটে ২২।
**আউট!!!! রঙ্গনা হেরাথের পরপর দুই বলে আউট সৌম্য সরকার ও ইমরুল কায়েস। শুরুটা যাচ্ছেতাই হলো বাংলাদেশের। হ্যাটট্রিকের সম্ভাবনা হেরাথের।
*** তামিম ইকবাল ও সৌম্য সরকারের ওপেনিং জুটিতে এখনো পর্যন্ত ২১ রান এসেছে। লক্ষ্যপূরণে বাংলাদেশ হাতে পাচ্ছে সর্বমোট ৭২ ওভার।
*** শততম টেস্ট জিততে বাংলাদেশকে করতে হবে ১৯১ রান। কাজটা কিন্তু খুব সহজ হবে না। এই রান করতে বাংলাদেশের হাতে থাকবে আড়াই সেশন।
** আউট!!!!! ৩ বল পরেই সাকিব আল হাসানের বলে মোসাদ্দেক হোসেনের ক্যাচ হলেন লাকমল। ৩১৯ রানে অল আউট হলো শ্রীলঙ্কা।
** আউট!!!!! রান আউটেই শেষ হলো দিলরুয়ান পেরেরার দীর্ঘ ইনিংস। মিরাজের বলে লেগের দিকে ঘুরিয়েছিলেন। রান হওয়ার কথা ছিল না। শুভাশিস মিস ফিল্ড করায় রানের জন্য দৌড়ান তিনি। শুভাশিস নিজের ভুল সামলে বলটি ধরে ছুঁড়ে দেন নন-স্ট্রাইকিং প্রান্তে। মিরাজ ভেঙে দেন স্টাম্প।
** ফিফটি পূরণ করেছেন দিলরুয়ান পেরেরা। ১৭৫ বলে ৫০ করেছেন তিনি।
** নবম উইকেট জুটি দুশ্চিন্তার কারণ হয়ে উঠেছে বাংলাদেশের জন্য। এই জুটিতে ইতিমধ্যেই যোগ করেছে ৬২ রান। পেরেরা ম্যারাথন ইনিংস খেলছেন ১৪৭ বলে ৪০ রান করে। লাকমল অপরাজিত ৩১ রানে। শ্রীলঙ্কার লিড দাঁড়িয়েছে ১৭১ রান। তাদের সংগ্রহ ৮ উইকেটে ৩০১।
** বাংলাদেশের বোলারদের বোলিং পরিসংখ্যান-মোস্তাফিজ ৩/৫২, সাকিব ৩/৬১, মিরাজ ১/৬৭, তাইজুল ১/৩১, শুভাশিস ০/৩৬, মোসাদ্দেক ০/১০।
** ২ উইকেটের অপেক্ষায় চতুর্থ দিন শেষ করেছিল বাংলাদেশ। ৮ উইকেটে ২৬৮ রান নিয়ে শ্রীলঙ্কা এগিয়ে ১৩৯ রানে। দিলরুয়ান পেরেরা অপরাজিত আছেন ১২৬ বলে ২৬ রান করে। তাঁর সঙ্গে আছেন সুরাঙ্গা লাকমাল। তিনি অপরাজিত ১৭ বলে ১৬ রান করে।

বিজ্ঞাপন
মন্তব্য করুন