যাঁকে নিয়ে এত প্রশংসা, কদিন পর তাঁকে আটকানোর ছক কষতে হবে রাজাদের। অবশ্য মাঠের লড়াই পাশে রেখে রাজা জন্মভূমিতে ফিরে একটু আবেগতাড়িতও যেন হয়ে পড়ছেন। শিয়ালকোটে জন্ম নেওয়া ৩৪ বছর বয়সী এই ব্যাটসম্যান বলছিলেন, ‘পাকিস্তানের সঙ্গে আমার একটু অন্যরকম বন্ধন। এটা সব সময়ই থাকবে। আমার অনেক আত্মীয় এখানে আছে। পাকিস্তানে এসে সব সময়ই ভালো লাগে। কোভিড-১৯ মহামারির কারণে এখন অনেক নিয়ম বদলে গেছে। তবুও অবশ্যই বলব পাকিস্তান ক্রিকেট বোর্ড (পিসিবি) আমাদের খুব ভালো যত্ন নিচ্ছে। পাকিস্তানের বিপক্ষে এটা খুব ভালো একটা সিরিজ হবে।’

সিরিজের আগেই জিম্বাবুয়ের জন্য বড় ধাক্কা, ভারতের স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের নির্দেশ থাকায় তাঁদের ভারতীয় কোচ লালচাঁদ রাজপুত দলের সঙ্গে পাকিস্তান সফরে আসতে পারেননি। তবে রাজা মনে করেন না এটির প্রভাব পড়বে দলে, ‘ব্যক্তিগতভাবে মনে করি না প্রধান কোচের না আসতে পারাটা অনেক বড় ক্ষতি। এখানে আসার আগেই আমাদের সব পরিকল্পনা সেরে ফেলেছি। যদি খেলোয়াড়দের কেউ আসতে না পারত তখন হয়তো বিষয়টা অন্যরকম হতো।’

default-image

রাজা বরং আত্মবিশ্বাসী সিরিজে তাঁরা ভালো কিছুই উপহার দেবেন, ‘পাকিস্তানে আসার আগে আমরা প্রস্তুতিমূলক তিন ওয়ানডে ও সমান সংখ্যক টি-টোয়েন্টি খেলেছি। কঠিন এ সময়ে যতটা প্রস্তুতি নেওয়া যায়। নিজেদের দক্ষতা ঝালিয়ে নিতে আগামী ১০টা দিন আরও ভালোভাবে কাজ করব। দলে ভালো খেলোয়াড় আছে। আমার মনে হচ্ছে ক্রেইগ আরভিনের খুব ভালো সিরিজ হবে এটা।’

রাওয়ালপিন্ডিতে ৩০ অক্টোবর, ১ ও ৩ নভেম্বর হবে দুই দলের ওয়ানডে সিরিজ। তিনটি টি-টোয়েন্টি হবে লাহোরের গাদ্দাফি স্টেডিয়ামে ৭, ৮ ও ১০ নভেম্বর।

ক্রিকেট থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন