>
default-image

৩০ মে ইংল্যান্ডে শুরু হবে বিশ্বকাপ। এই বিশ্বকাপে আগে ব্যাট করে ন্যূনতম ৩০০ রান কতটুকু নিরাপদ?

ওয়ানডেতে এক সময় ৩০০ রানকে বলা হতো ‘ম্যাজিক ফিগার’। মোটামুটি ধরেই নেওয়া হতো, আগে ব্যাট করে ন্যূনতম তিন শ করতে পারলে জয় নিশ্চিত। বেশির ভাগ ম্যাচেই এ ধারণা সত্য বলে প্রমাণ হতো। দিন বদলেছে। এখন তিন শ দূর অস্ত, সাড়ে তিন শ রানও নিরাপদ নয়!

ইংল্যান্ড-পাকিস্তান ওয়ানডে সিরিজ দেখুন। সাউদাম্পটনে দ্বিতীয় ম্যাচে ইংল্যান্ডের ৩৭১ রানের সংগ্রহ পাকিস্তান আরেকটু হলে টপকে যেত। মাত্র ১২ রানের ব্যবধানে হারলেও পাকিস্তান বুঝিয়ে দিয়েছিল বিশ্বকাপে কী অপেক্ষা করছে। রান উৎসব! পরের ম্যাচেই এ ধারণা আর শক্ত ভিত্তির ওপর দাঁড় করায় ইংল্যান্ড। পাকিস্তানের ৩৫৮ রান তাড়া করে স্বাগতিকেরা জিতেছে ৩১ বল হাতে রেখে। ভাবা যায়!

কিন্তু এবার বিশ্বকাপে দলগুলোকে ভাবতে হবে। আইসিসি নিজেদের টুর্নামেন্টে এমনিতেই ব্যাটিংবান্ধব উইকেট বানায়। আর বিশেষজ্ঞদের মত, এবার ইংল্যান্ডে প্রথাগত সুইং বান্ধব কন্ডিশন নাও থাকতে পারে। ‘পাটা’ উইকেট দেখা গেলে অবাক হওয়ার কিছু থাকবে না। অর্থাৎ এবার বিশ্বকাপে রান উৎসব হওয়ার সম্ভাবনা অনেক বেশি। সোজা কথায়, ব্যাটসম্যানদের বিশ্বকাপ। আর এই ধারণার পটভূমি রচনা করেছেন ব্যাটসম্যানেরাই।

২০১৫ বিশ্বকাপ ফাইনালের পর থেকে হিসেব কষলে এ পর্যন্ত মাঠে গড়িয়েছে ৪৬৯ ওয়ানডে (ম্যাচের ফল হয়েছে)। এর মধ্যে আগে ব্যাট করা দল ন্যূনতম ৩০০ রান তুলেছে ১২৮ ম্যাচে। তাঁদের জয়ের হার ৭৭ শতাংশ। পরিসংখ্যান বলছে, এই ১২৮ ম্যাচের মধ্যে ৯৯ ম্যাচে আগে ব্যাট করা দল ন্যূনতম ৩০০ রান তুলে জিতেছে। বাকি ২৯ ম্যাচে হেরেছে। তিন শ কিংবা তার ওপাশে রান তাড়া করতে নেমে জয়ের এ সংখ্যাটা একেবারে কম নয়।

তাহলে এবার বিশ্বকাপের আয়োজক দেশ ইংল্যান্ডে প্রথম ইনিংসে নিরাপদ সংগ্রহ কত হতে পারে? গত বিশ্বকাপের পর থেকে এ পর্যন্ত ৫৬ ওয়ানডে গড়িয়েছে ইংল্যান্ডের মাঠে। এর মধ্যে ১৮ ম্যাচে পরে ব্যাট করা দল ন্যূনতম ৩০০ কিংবা তার বেশি সংগ্রহ তাড়া করে জিতেছে। আরও একটি বিষয় মনে রাখতে হবে, গত বিশ্বকাপের পর এ পর্যন্ত দুইবার সর্বোচ্চ দলীয় সংগ্রহের রেকর্ড ভাঙার নজির দেখা গেছে এবং তা হয়েছে নটিংহামে। ঘরের মাঠে দুবারই এ রেকর্ড গড়েছে ইংল্যান্ড। অর্থাৎ এই ২০১৯ বিশ্বকাপে আগে ব্যাট করে যত রানই করুন না কেন, প্রতিপক্ষ ইংল্যান্ড হলে গা ঢিলে করার কোনো পথ নেই।

বাংলাদেশ দলের এ নিয়ে প্রস্তুতি কেমন? বিশ্বকাপের গ্রুপপর্বে নটিংহামে মাশরাফির দলের প্রতিপক্ষ কিন্তু অস্ট্রেলিয়া। একটা হিসেব দেওয়া যায়—গত বিশ্বকাপের পর থেকে এই চার বছরে পরে ব্যাট করে বাংলাদেশ দল কখনো ৩০০ রান করতে পারেনি। এ সময়ের মধ্যে ছয় ম্যাচে বাংলাদেশের বিপক্ষে আগে ব্যাট করে প্রতিপক্ষ দল ন্যূনতম ৩০০ রান তুলেছে। কিন্তু বাংলাদেশ তা তাড়া করতে নেমে প্রতিবারই হেরেছে।

অর্থাৎ, সম্ভাব্য রান উৎসবের এই বিশ্বকাপে বাংলাদেশ তাড়া করতে নেমে কতটুকু রোমাঞ্চ ছড়াতে পারবে, তা নিয়ে প্রশ্ন থেকেই যাচ্ছে।

বিজ্ঞাপন
মন্তব্য পড়ুন 0