প্রস্তুতি ম্যাচে ফিফটি তুলে নেন মাহমুদউল্লাহ
প্রস্তুতি ম্যাচে ফিফটি তুলে নেন মাহমুদউল্লাহছবি: বিসিবি

বঙ্গবন্ধু টি-টোয়েন্টি কাপের ফাইনালে ম্যাচ জেতানো ৭০ রান করেন মাহমুদউল্লাহ। ওয়েস্ট ইন্ডিজ সিরিজের আগে আজ নিজেদের মধ্যে খেলা প্রথম প্রস্তুতি ম্যাচেও তিনি রান পেলেন।

তামিম একাদশ ও মাহমুদউল্লাহ একাদশের অল্প রানের ম্যাচে মাহমুদউল্লাহর ব্যাট থেকে এসেছে অপরাজিত ৫১। তাঁর দল জিতেছে ৫ উইকেটে।  

তবে দিনটা ছিল বোলারদের। বিকেএসপির তিন নম্বর মাঠের উইকেট জাতীয় দলের পেসারদের প্রায় প্রত্যেকেই উপভোগ করেন। বিশেষ করে দুই তরুণ হাসান মাহমুদ ও শরিফুল ইসলাম নিজেদের মেলে ধরেছেন দারুণভাবে।

বিজ্ঞাপন

তামিম একাদশ ও মাহমুদউল্লাহ একাদশে ভাগ হয়ে খেলা ৪০ ওভারের ম্যাচে তামিমরা আগে ব্যাট করে ব্যাটিং বিপর্যয়ে পড়েন। ৩৭.২ ওভার ব্যাট করে ১৬১ রানে অলআউট হয় তামিমের দল।

লিটন দাস ওপেন করে দ্রুত আউট হন। এ ছাড়া তামিম, নাজমুল হোসেন, মোহাম্মদ মিঠুন, সৌম্য সরকার ও আফিফ হোসেন—প্রত্যেকেই আউট হন উইকেটে থিতু হয়ে। মাহমুদউল্লাহ একাদশের হয়ে ৬ ওভারে মাত্র ২১ রান খরচায় ৪ উইকেট নেন হাসান। শরিফুল বাঁহাতি পেস বোলিংয়ে নেন ২ উইকেট।

default-image

তামিমদের অল্প রান তাড়া করতে ৫ উইকেট হারায় মাহমুদউল্লাহর দল। ওপেনার মোহাম্মদ নাঈম ৪৩ রান করে দলকে ভালো সূচনা এনে দেন। ওপেনিংয়ে নাঈমের সঙ্গে ইয়াসির আলীকে সুযোগ দেওয়া হয়। সুযোগটা অবশ্য কাজে লাগাতে পারেননি এই তরুণ।

মোস্তাফিজুর রহমানের বলে ৩ রানে থামে তাঁর ইনিংস। তিনে নেমে সাকিব আল হাসান রানআউট হন। ইনিংস লম্বা হয়নি মুশফিকুর রহিমেরও। এরপর বাকি কাজটা করেন মাহমুদউল্লাহ।

ম্যাচ শেষে নিজের ব্যাটিং ফর্ম ও দলের প্রস্তুতি নিয়ে মাহমুদউল্লাহ বলছিলেন, ‘ব্যাটিংয়ে আমার ভালো সময় কেটেছে। প্রস্তুতি ভালো হচ্ছে আলহামদুলিল্লাহ। আমরা বেশ ইতিবাচক এই সিরিজের ব্যাপারে। আমি মনে করি ভালো ক্রিকেট উপহার দিতে পারব। সিরিজ জেতা নিয়েও আশাবাদী।’

default-image

প্রস্তুতি ম্যাচে জাতীয় দলের পেসারদের পারফরম্যান্সের প্রশংসা করেছেন মাহমুদউল্লাহ। সকালবেলার উইকেটের সাহায্যটা নাকি নিতে সক্ষম হয়েছেন পেসাররা, ‘শুরুতে উইকেটে মুভমেন্ট ছিল। নতুন বলে আমাদের বোলাররা ভালো জায়গায় বল করেছে। শুরুতে আমরা কিছু উইকেট তুলে নিয়েছি। এ জন্যই তাঁরা কিছুটা চাপে ছিল। কিন্তু সব মিলিয়ে দুই দলের বোলাররাই ভালো বল করেছে। আমি মনে করি দিনটা বোলারদেরই ছিল।’

বিজ্ঞাপন
মন্তব্য করুন