পরের বলটাকে ব্যাক ফুটে খেলে মিডউইকেটের দিতে পাঠিয়েও রান না নেওয়া কোহলি ঠিক পরের বলে আউট প্রায় হয়েই গিয়েছিলেন। অন সাইডে খেলতে গিয়ে অল্পের জন্যই স্কয়ার লেগ ফিল্ডার ডেরিল মিচেলের ক্যাচ হননি আইপিএল ইতিহাসে সবচেয়ে বেশি রানের মালিক। সেই কোহলি পরের দুই বলেই চার মেরে জাগিয়ে দেন এমসিএ স্টেডিয়ামের দর্শককে। ওভারের শেষ বলে ১ রান নিয়ে প্রান্ত বদল করাটাই অবশ্য ম্যাচে কোহলির শেষ সুখ স্মৃতি হয়ে ছিল।

default-image

প্রসিধ কৃষ্ণার করা পরের ওভারের প্রথম তিনে রান নিতে ব্যর্থ কোহলি আউট হয়ে গেলেন চতুর্থ বলে। গোল্ডেন ডাকের হ্যাটট্রিক এড়ালেও তিনি ফিরলেন ১০ বলে ৯ রান করে। লাফিয়ে ওঠা বলে পুল করতে গিয়েছিলেন কোহলি। কিন্তু বল চলে যায় ব্যাকওয়ার্ড পয়েন্ট থেকে দৌড়ে আসা রিয়ান পরাগের হাতে। বল কি ব্যাটে লেগেছে না কি হেলমেটে, এমন প্রশ্ন উঁকিঝুঁকি মারার আগেই ড্রেসিংরুমের দিকে হাঁটা দিয়েছেন কোহলি।

এবারের আইপিএলে নয় ইনিংসে ১২৮ রান করা কোহলির দলও হেরেছে রাজস্থানের কাছে। ১৪৫ রানের লক্ষ্যে ব্যাটিংয়ে নামা বেঙ্গালুরু ১৯.৩ ওভারে ১১৫ রানে অলআউট হয়ে হেরেছে ২৯ রানে। এই ম্যাচটা জিতে পয়েন্ট তালিকার দুই ওঠার সুযোগ ছিল কোহলিদের। কিন্তু নবম ম্যাচে চতুর্থ হারা দলটি আগের মতোই পঞ্চম স্থানে পড়ে রইল। অন্যদিকে অষ্টম ম্যাচে ষষ্ঠ জয় পেয়ে গুজরাট টাইটানসকে টপকে নেট রান রেটের হিসেবে শীর্ষে উঠে গেছে রাজস্থান। গুজরাট অবশ্য একটি ম্যাচ কম খেলেছে রাজস্থানের চেয়ে।

default-image

রাজস্থান আজ পার পেয়েছে শেষ দুই ওভারে তোলা রিয়ান পরাগের ঝড়েই। ১৯তম ওভারটা দলটি শুরু করে ৭ উইকেটে ১১৪ রান নিয়ে। সেই রাজস্থান ৩০ রান তুলে ইনিংস শেষ করল ৮ উইকেটে ১৪৪ রান নিয়ে। শেষ দুই ওভারে তোলা ৩০ রানই পরাগের। ভারত অনূর্ধ্ব-১৯ দলের সাবেক ব্যাটসম্যান শেষ পর্যন্ত অপরাজিত ছিলেন ৩১ বলে ৫৬ রান করে। ৩টি চার ও ৪টি ছক্কা মেরেছেন ২০ বছর বয়সী ব্যাটসম্যান।

কিছুটা বোলিং-বান্ধব উইকেটে ৪.১ ওভারে ৩৩ রান তুললেও ৩ উইকেট হারিয়ে ফেলে রাজস্থান। আউট হওয়ার ব্যাটসম্যানদের মধ্যে ছিলেন এবারের আইপিএলে তিনটি শতক পাওয়া ইংলিশ খেলোয়াড় জস বাটলারও। কাল ৯ বলে ৮ রান করেছেন এই উইকেটকিপার ব্যাটসম্যান। পরাগ উইকেটে আসেন ৬৮ রানে ৪ উইকেট পড়ার পর। এরপর তাঁকে রেখে ফিরে যান ডেরিল মিচেল, শিমরন হেটমায়ার, ট্রেন্ট বোল্ট ও প্রসিধ কৃষ্ণা। শেষ দুই ওভারে ১০ বল খেলে ৩০ রান নেওয়ার পথেই তিনটি ছক্কা মেরেছেন পরাগ। হর্শাল প্যাটেলের করা শেষ ওভারে ১৮ রান তোলেন তরুণ এই ব্যাটসম্যান।

রান তাড়ায় দ্বিতীয় ওভারে কোহলিকে হারানো বেঙ্গালুরু এরপর উইকেট হারিয়েছে নিয়মিত বিরতিতে। দলটির অধিনায়ক ফাফ ডু প্লেসির ব্যাট থেকেই এসেছে সর্বোচ্চ ২৩ রান। রাজস্থানের পেসার কুলদীপ সেন ২০ রানে নিয়েছেন ৪ উইকেট। অফ স্পিনার রবিচন্দ্রন অশ্বিন ৩ উইকেট নিতে ৪ ওভারে দিয়েছেন ১৭ রান।

ক্রিকেট থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন