default-image
>ভারতে টিকটক নিষিদ্ধ হওয়ায় প্রতিক্রিয়া জানালেন অস্ট্রেলিয় ওপেনার ডেভিড ওয়ার্নার।

গত কয়েক মাসে সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম টিকটক–এ তারকা বনে গেছেন অস্ট্রেলিয়ান ওপেনার ডেভিড ওয়ার্নার। স্ত্রী ও কন্যাদের নিয়ে জনপ্রিয় ভারতীয় সঙ্গীতের সঙ্গে নাচ গান করে বিনোদন দিয়ে ভক্তদের মাঝে তোলপাড় সৃষ্টি করেছিলেন এ বাঁহাতি ওপেনার। কিন্তু সম্প্রতি ভারতীয় সরকার সীমান্তে চীনের সঙ্গে উত্তেজনার জের ধরে টিকটকসহ ৫৯ টি চাইনিজ অ্যাপ নিষিদ্ধ করেছে। অ্যাপের মাধ্যমে ভারতীয় জনগণের ব্যক্তিগত তথ্য পাচারের অভিযোগ করেছে ভারত সরকার।

টিকটক নিষিদ্ধ হওয়ায় ক্রিকেটভক্তরা কিন্তু বিপদে। মাঠে খেলা না থাকার ফাঁকে ওয়ার্নারের মজার মজার ভিডিও দেখা থেকে বঞ্চিত হতে হচ্ছে তাদের। সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম টিকটক নিষিদ্ধ করার ব্যাপারে ৩৩ বছর বয়সী এ অস্ট্রেলিয় ওপেনার বলেছেন, ‘আমার কিছু করার নেই। ভারত যদি টিকটিক নিষিদ্ধ করে এটা তাদের সরকারের সিদ্ধান্ত। আর ভারতের মানুষদের সিদ্ধান্তকে সম্মান জানাতে হবে।' ভারতীয় ক্রিকেটার রবিচন্দ্রন অশ্বিন অবশ্য ওয়ার্নারকে খোঁচা না দিয়ে ছাড়েননি। টিকটক নিষিদ্ধ হওয়ার খবরটি ওয়ার্নারকে জানিয়ে তিনি টুইট করেন, ‘এখন ডেভিড ওয়ার্নার কী করবে?’

এর আগে টিকটকে ভিডিও বানানো নিয়ে ওয়ার্নার বলেছিলেন, ‘আমি একদিন আমার মেয়ের মোবাইলে এই অ্যাপ দেখতে পাই। এরপর একদিন দুষ্টুমি করেই একটা ভিডিও বানাই। দেখলাম সবাই খুব আনন্দ নিয়ে দেখছে। এরপর থেকে ঘটা করেই ভিডিও বানানো শুরু করলাম। ভক্তরাও খুশি হচ্ছিল।’

বিজ্ঞাপন
ক্রিকেট থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন