বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন

পিটিআই জানিয়েছে, খেলোয়াড়দের ফিটনেসের উন্নতির জন্যই এমন খাদ্যতালিকা করেছে বিসিসিআই। খাদ্যতালিকার নিরামিষজাতীয় খাদ্যের পাশাপাশি আমিষাশীদের জন্য থাকছে মুরগি ও ভেড়ার মাংসের বিভিন্ন রান্না। এ ছাড়া মাছের বিভিন্ন পদও রাখা হয়েছে সেই তালিকায়।

একজন সাবেক ভারতীয় ক্রিকেটার পিটিআইকে এ ব্যাপারে নিজের অভিজ্ঞতার কথা বলেছেন, ‘আমার খেলোয়াড়ি জীবনে কখনোই ভারতীয় ক্রিকেট দলের ড্রেসিংরুমে খাবার হিসেবে শূকর বা গরুর মাংস দেখিনি। ভারতে তো দেখিইনি। সুতরাং বিসিসিআই খাদ্যতালিকা যদি করেও থাকে, তাতে নতুন কিছু নেই বলেই মনে করি আমি।’

default-image

বিসিসিআই অবশ্য পিটিআইয়ের এই সংবাদের পরিপ্রেক্ষিতে নিজেদের অবস্থান পরিস্কার করেছে। তারা জানিয়েছে, ভারতীয় ক্রিকেটাররা কে কী খাবেন, সেটি পুরোপুরি তাদের ব্যক্তিগত ব্যাপার। দলের ওপর কোনো নির্দিষ্ট খাদ্যতালিকা চাপিয়ে দেওয়া হয়নি বলেই দাবি বিসিসিআইয়ের।

এ ব্যাপারে বোর্ডের একজন কর্তা সংবাদমাধ্যমকে জানিয়েছেন, ‘ক্রিকেটারদের খাদ্যতালিকা নিয়ে বিসিসিআই কোনো দিনই নাক গলায় না। এমন কোনো সিদ্ধান্ত কবে নেওয়া হয়েছে, কে নিয়েছে, এ ব্যাপারে বোর্ড কিছুই জানে না। আমরা কোনো খাদ্যতালিকা নির্দিষ্ট করে দিইনি। ক্রিকেটাররা সবাই নিজেদের ইচ্ছা অনুযায়ী খাবার খান।’

ক্রিকেট থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন