মিঠুন।
মিঠুন।ছবি: এএফপি

‘ব্যাটসম্যানদের দায়িত্ব নিতে হবে’—কথাটা ম্যাচের আগের দিন বলেছিলেন মোহাম্মদ মিঠুন। আজ নিজের কথাকে কাজে পরিণত করলেন ৩০ বছর বয়সী এই ব্যাটসম্যান। ক্রাইস্টচার্চের হ্যাগলি ওভালে নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে দ্বিতীয় ওয়ানডে ম্যাচে তামিম ইকবালের ভিত গড়ে দেওয়া ৭৮ রানের দুর্দান্ত ইনিংসের পর বাংলাদেশ ইনিংসে গতি যোগ করে মিঠুনের অপরাজিত ৭৩ রানের ইনিংস। দুই সত্তরোর্ধ্ব ইনিংসে বাংলাদেশের রান গিয়ে ঠেকে ২৭১ রানে।

এতে বোর্ড সভাপতি নাজমুল হাসানের একটি কথার জবাবও দিয়ে দিলেন মিঠুনরা। গতকাল দ্বিতীয় ওয়ানডেতে অন্তত ২৬০-২৭০ রান করার কথা বলেছিলেন মিঠুনরা। ওদিকে ম্যাচের আগে ক্রিকেটারদের বিভিন্ন কথাবার্তা নিয়ে বিরক্ত প্রকাশ করেছিলেন বোর্ড সভাপতি। বলেছিলেন, ‘ওরা খেলার আগে বলে এটা করবে, সেটা করবে। এগুলো বলার দরকার কী! পরে তো দেখা যায় বাস্তবতার সঙ্গে আকাশ-পাতাল পার্থক্য।’

আজ অন্তত নিজের দেওয়া কথার সঙ্গে সামঞ্জস্যপূর্ণ পারফরম্যান্স করেছেন মিঠুন।

বিজ্ঞাপন
default-image

ডানেডিনে প্রথম ওয়ানডে ম্যাচেও থিতু হয়েছিলেন মিঠুন। কিন্তু দুর্ভাগ্যজনক রানআউটে ইনিংস লম্বা হয়নি। ক্রাইস্টচার্চে নিজের ভাগ্য নিজেই গড়লেন তিনি। আগ্রাসী ব্যাটিং করে পাল্টে দিলেন ম্যাচের চেহারা। খেললেন ছোট্ট ওয়ানডে ক্যারিয়ারে তাঁর সর্বোচ্চ ব্যক্তিগত রানের ইনিংস।

মিঠুন যখন ক্রিজে আসেন, তখন দলের রান ৩ উইকেটে ১৩৩। ইনিংসের বাকি আরও ২০ ওভার। বাংলাদেশকে লড়াই করার মতো রানে পৌঁছে দিতে দ্রুত রান দরকার ছিল। অন্য প্রান্তে থাকা মুশফিকুর রহিমের কাছ থেকেই দ্রুত রানের প্রত্যাশা ছিল। কিন্তু আজ দিনটা ছিল মিঠুনের। ইনিংসের শুরু থেকেই যেন উইকেটে থিতু হয়ে এসেছেন তিনি।

default-image

৫৭ বলে ৬টি চার ও ২টি ছক্কায় ৭৩ রানের ইনিংসটি নিউজিল্যান্ডের মাটিতে মিঠুনের তৃতীয় ফিফটি। ২৫ ইনিংসের ওয়ানডে ক্যারিয়ারের মোট ছয়টি ফিফটির তিনটিই এসেছে কিউইদের ঘরের মাঠে। অথচ নিউজিল্যান্ডের কন্ডিশনে মিঠুন খেলেছে মাত্র চার ইনিংস। যদিও এর আগে নিউজিল্যান্ডের মাটিতে করা দুটি ফিফটিতে বাংলাদেশকে হারতে হয়েছে। এবার পরিণতি কী হবে, সেটিই দেখার অপেক্ষা।

নিউজিল্যান্ডের মাঠ ছাড়া মিঠুনের ফিফটিতে সাধারণত বাংলাদেশ ম্যাচ হারে না। ২০১৮ সালের এশিয়া কাপে শ্রীলঙ্কা ও পাকিস্তানের বিপক্ষে মিঠুনের দুটি গুরুত্বপূর্ণ ফিফটিতে বাংলাদেশ জিতেছে। ২০২০ সালে সিলেটে জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে মিঠুনের ফিফটির ম্যাচেও জয় পায় বাংলাদেশ।

বিজ্ঞাপন
ক্রিকেট থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন