বিজ্ঞাপন

মেরেডিথের কল্যাণে কঠিন এ লক্ষ্য সহজ করে ফেলেছিলেন ফাবিয়েন অ্যালেন ও আন্দ্রে রাসেল। ভাগ্যিস, মিচেল স্টার্ক ছিলেন, তাই অস্ট্রেলিয়ানদের রক্ষা! প্রথম তিন ম্যাচ হেরে সিরিজ খোয়ানো অস্ট্রেলিয়ানদের ৪ রানের সান্ত্বনার জয় এনে দিয়েছেন স্টার্ক।

default-image

টি-টোয়েন্টিতে অ্যালেনের সামর্থ্য সবারই জানা। ওদিকে রাসেল বিশ্বের সেরা পাওয়ার হিটারদের একজন। দুজনে মিলে মেরেডিথের করা ১৯ ওভারের প্রথম ৫ বল থেকে তুলেছেন ২৫ রান।

এর মধ্যে শুধু দ্বিতীয় বলে এসেছে ১ রান ও শেষ বলে আউট হন অ্যালেন (১৪ বলে ২৯)। এ ছাড়া বাকি চারটি ডেলিভারিতেই ছক্কা!

শেষ ওভারে তাই লক্ষ্যটা নাগালের মধ্যে পেয়ে যায় ওয়েস্ট ইন্ডিজ—৬ বলে ১১। উইকেটে তখন রাসেল এবং তাঁর সঙ্গী বোলার হেইডেন ওয়ালশ। স্ট্রাইকে রাসেল থাকায় বোঝাই যাচ্ছিল, যা করার তাঁকেই করতে হবে।

সিরিজে প্রথম জয় তুলে নিতে মরিয়া অস্ট্রেলিয়া অধিনায়ক অ্যারন ফিঞ্চ বল তুলে দেন সবচেয়ে অভিজ্ঞ ও কুশলী পেসার মিচেল স্টার্কের হাতে। তখন সমীকরণ খুব সোজা—হয় রাসেল নয় স্টার্ক, যেকোনো একজন জয়ী!

default-image

শেষ পর্যন্ত সাদা বলে বিশ্বের অন্যতম সেরা বোলারই জয়ের মুখ দেখেছেন। ইয়র্কার লেংথে বল করে ওভার শুরু করেন স্টার্ক। পরেরটি পায়ে, এরপর পায়ের ওপরই নিচু ফুলটস। রাসেল যে এর মধ্যে রান নেওয়ার সুযোগ পাননি, তা নয়। প্রথম পাঁচটি ডেলিভারির মধ্যে শুধু চতুর্থ ডেলিভারি ছাড়া বাকি সব বলেই প্রান্ত বদলের সুযোগ ছিল তাঁর।

কিন্তু ওয়েস্ট ইন্ডিজকে জেতানোর মরিয়া মনোভাব থেকে তিনি প্রান্ত বদল করেননি। হয়তো ভেবেছিলেন, হেইডেন ওয়ালশ স্ট্রাইকে গিয়ে স্টার্কের বিপক্ষে তেমন সুবিধে করতে পারবে না। সেটা অবশ্য রাসেলও পারেননি।

প্রথম পাঁচ বলে কোনো রান নিতে না পেরে কিংবা না নিয়ে শেষ বলে ছক্কা মারেন রাসেল। তাতে অবশ্য ওয়েস্ট ইন্ডিজের কোনো লাভ হয়নি। ৪ রানে হারতে হয় ম্যাচ। সিরিজে প্রথম তিন ম্যাচ জিতেছিল ওয়েস্ট ইন্ডিজ। চতুর্থ ম্যাচে এসে জয়ের দেখা পেল অস্ট্রেলিয়া। শুক্রবার পঞ্চম ও শেষ ম্যাচ।

default-image

এর আগে অস্ট্রেলিয়ার হয়ে ব্যাটে-বলে দারুণ করেছেন অলরাউন্ডার মিচেল মার্শ। ৪৪ বলে ৭৫ রানের পাশাপাশি বোলিংয়ে ২৪ রানে ৩ উইকেট নিয়েছেন। অধিনায়ক ফিঞ্চের ব্যাট থেকে এসেছে ৩৭ বলে ৫৩। ৬ উইকেটে ১৮৯ রান তুলেছিল অস্ট্রেলিয়া।

তাড়া করতে নেমে ওপেনার লেন্ডল সিমন্সের ৪৮ বলে ৭২ রানে ম্যাচে টিকে ছিল ওয়েস্ট ইন্ডিজ। ১৩ বলে ২৪ রানে অপরাজিত ছিলেন রাসেল।

ক্রিকেট থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন