জো রুটকে এবার বোধহয় চিনতে পারবেন অমিতাভ বচ্চন।
জো রুটকে এবার বোধহয় চিনতে পারবেন অমিতাভ বচ্চন।ছবি: বিসিসিআই

এমন দিন আসবে জানলে হয়তো পাঁচ বছর আগে ফ্লিনটফের টুইটের অমন রিপ্লাই কখনোই দিতেন না বলিউড তারকা অমিতাভ বচ্চন!

কী সেই টুইট? এমন কীই–বা রিপ্লাই দিয়েছিলেন অমিতাভ? ফ্ল্যাশব্যাকে চোখ রাখা যাক।

২০১৬ সালের টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের সেমিফাইনালে বিরাট কোহলির দুর্দান্ত এক ইনিংসে অস্ট্রেলিয়াকে হারিয়েছিল ভারত, উঠেছিল ফাইনালে। সে ইনিংস দেখে সাবেক ইংলিশ তারকা ফ্লিনটফ টুইট করেছিলেন, ‘যেভাবে কোহলি এগোচ্ছে, তাতে একদিন ও রুটের সমান হতে পারবে!’

এমন টুইট ঠিক ‘হজম’ করতে পারেননি অমিতাভ। টুইটের রিপ্লাইয়ে জানিয়েছিলেন রুট সম্পর্কে তাঁর ‘অজ্ঞতা’র কথা। ফ্লিনটফ, কোহলি, রুট—সবাইকে ট্যাগ করে লিখেছিলেন, ‘রুট কে? এসব রুট-ফুটকে গোড়া থেকে উপড়ে আনবে আমার ভারত!’

default-image
বিজ্ঞাপন

যথেষ্ট সাহসী বক্তব্য, বলার অপেক্ষা রাখে না। হয়তো মন্তব্যটা হালকা মেজাজেই করেছিলেন অমিতাভ। ফ্লিনটফ কিন্তু মনে মনে পুষে রেখেছিলেন অমিতাভের ওই জবাব। গতকাল রুট যখন ভারতের মাটিতেই ভারতকে শাসন করছিলেন ডাবল সেঞ্চুরি করে, পাঁচ বছর আগের সেই টুইটের জবাব দেওয়ার লোভ সামলাতে পারেননি ফ্লিনটফ। অমিতাভের ওই জবাবটা ঠাট্টাচ্ছলে রিটুইট করে গতকাল জানিয়েছেন, ‘সর্বোচ্চ সম্মান রেখেই বলছি, সময়ের সঙ্গে সঙ্গে এই টুইটটারও বেশ ভালোই বয়স হয়েছে!’

ওই টুইটের জবাবে আবার একজন লিখেছেন, ‘বেশ খাটাখাটনি করেছেন এত বছর আগের টুইট বের করার জন্য!’ ফ্লিনটফ আবার তাঁকে রিটুইট করে সে কথা অস্বীকারও করেছেন, ‘আসলে এই টুইটটাকে আবার অনেক জায়গাতেই খবর হচ্ছে, তাই ভাবলাম একটু মজা করা যাক। আশা করব, জনাব বচ্চনও ব্যাপারটাকে মজা হিসেবেই নেবেন!’

এত কাহিনির মূল কিন্তু ওই রুটের ডাবল সেঞ্চুরি। ইতিহাসের প্রথম ব্যাটসম্যান হিসেবে নিজের শততম টেস্টে ডাবল সেঞ্চুরি করার বিরল কৃতিত্ব গড়েছেন ইংলিশ অধিনায়ক। আর তাতেই চেন্নাইয়ে সিরিজের প্রথম টেস্টে ভারতীয় বোলারদের ওপর ছড়ি ঘোরাচ্ছে ইংল্যান্ড। অস্ট্রেলিয়া সফরের চেয়ে ভালো পেস আক্রমণ নিয়েও দুই দিনে ইংল্যান্ডকে অলআউট করতে পারেনি ভারত। ৮ উইকেটে ৫৫৫ রান নিয়ে দিন শেষ করেছে ইংল্যান্ড। ২১৮ রান করে শাহবাজ নাদিমের বলে এলবিডব্লু হয়ে প্যাভিলিয়নে ফিরেছেন রুট। শেষমেশ ৫৭৮ রানের পাহাড়ে চেপে থেমেছে ইংল্যান্ড। ব্যাট করতে নেমে রোহিত শর্মা আর শুভমান গিলের উইকেট দুটি হারিয়ে ১৬ ওভারে ৬৩ রান তুলেছে ভারত। ক্রিজে আছেন কোহলি আর চেতেশ্বর পূজারা।

কিন্তু ফেরার আগেই যা সর্বনাশ করে দিয়ে গেছেন! এখন হয়তো অমিতাভও বুঝে গেছেন, রুট কে!

বিজ্ঞাপন
ক্রিকেট থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন