অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে টেস্ট সিরিজেই হেসেছে বাবরের ব্যাট। মোট ৩৯০ রান করেন, এর মধ্যে ১৯৬ রানের অসাধারণ একটি ইনিংসও আছে। ওয়ানডে সিরিজের তিন ম্যাচে ২৭৬ রান করার পথেও শতক ছিল দুটি। এর মধ্য দিয়ে আইসিসি সর্বকালের ওয়ানডে র‌্যাঙ্কিংয়ে ১৫তম স্থানে উঠে এলেন বাবর। তাঁর রেটিং পয়েন্ট ৮৯১।

আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে সর্বোচ্চ রান ও শতকের রেকর্ডধারী টেন্ডুলকার ৮৮৭ রেটিং পয়েন্ট নিয়ে ১৬তম। ওয়ানডে ক্রিকেটে রান ও শতকসংখ্যায়ও টেন্ডুলকারের ওপরে কেউ নেই।

default-image

সর্বকালের সেরার এই ওডিআই র‌্যাঙ্কিংয়ে ৯০০ রেটিং পয়েন্ট পাওয়া ব্যাটসম্যান আছেন ১২ জন। কাঁটায় কাঁটায় ৯০০ রেটিং পয়েন্ট নিয়ে ১২তম দক্ষিণ আফ্রিকার সাবেক ওপেনার গ্যারি কারস্টেন। ৯৩৫ রেটিং পয়েন্ট নিয়ে শীর্ষে ওয়েস্ট ইন্ডিজের কিংবদন্তি ভিভ রিচার্ডস।

এ সময়ের ব্যাটসম্যানদের মধ্যে ৯ শতাধিক বেশি রেটিং পয়েন্ট আছে শুধু ভারতের বিরাট কোহলির। ৯১১ রেটিং পয়েন্ট নিয়ে তিনি তালিকার ছয় নম্বরে।

অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে ওয়ানডে সিরিজের দ্বিতীয় ও তৃতীয় ম্যাচে শতক তুলে নেন বাবর। তাঁর শতকে দুই ম্যাচেই রান তাড়া করে জেতে পাকিস্তান। দ্বিতীয় সর্বোচ্চ রান সংগ্রাহক হয়ে সিরিজ শেষ করেন বাবর।

এরপর একমাত্র টি–টোয়েন্টি ম্যাচেও দলের হয়ে সর্বোচ্চ ৬৬ রানের ইনিংস খেলেন, যদিও দলকে জেতাতে পারেননি।

default-image

ওয়ানডেতে সর্বকালের সেরার র‌্যাঙ্কিংয়ে শীর্ষ দশে দক্ষিণ এশিয়া থেকে জায়গা পেয়েছেন তিন ব্যাটসম্যান। ৯৩১ রেটিং পয়েন্ট নিয়ে দুইয়ে পাকিস্তানি কিংবদন্তি ‘এশিয়ার ব্র্যাডম্যান’খ্যাত জহির আব্বাস, ভারতের বিরাট কোহলি ও সাতে পাকিস্তানের জাভেদ মিয়াঁদাদ।

শীর্ষ ১৫ ব্যাটসম্যানের র‌্যাঙ্কিংয়ে দক্ষিণ এশিয়া থেকে জায়গা পাওয়া চতুর্থ ব্যাটসম্যান বাবর।

ক্রিকেট থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন