সাকিবকে ছেড়ে এখন বাংলাদেশি খুঁজছে কলকাতা

বিজ্ঞাপন
default-image

টানা সাত বছর কলকাতা নাইট রাইডার্সের হয়ে খেলেছেন। আইপিএলের বাঙালি প্রতিনিধিত্ব দলের একাদশে একমাত্র বাঙালি খেলোয়াড়ও হয়ে গিয়েছিলেন একসময়। কলকাতা থেকে সেই সাকিব আল হাসানের বিদায়ে কেকেআরের যেন একটি টুইটও করতেও কার্পণ্য ছিল! নতুন দল সানরাইজার্স হায়দরাবাদের হয়ে কলকাতাকে তাদের ভুলটা টের পাইয়েছেন সাকিব। সাকিবের নৈপুণ্যে কলকাতাকে হারিয়েছিল হায়দরাবাদ। পরে এই হায়দরাবাদের কাছেই কোয়ালিফায়ারে হেরেছে কেকেআর।

খেলার মাঠের ফলের চেয়ে কলকাতার জন্য দুশ্চিন্তার কারণ হয়েছিল দর্শকের প্রতিক্রিয়া। একে তো সাকিবের কাছে হারার পর কলকাতার দর্শক-সাংবাদিকেরা ধুয়ে দিয়েছিল দলের ম্যানেজমেন্টকে। তার ওপর সাকিব না থাকায় কলকাতাকে নিয়ে আগ্রহ হারিয়েছিল বাংলাদেশের অগণিত দর্শক। টানা সাত বছর নাইট রাইডার্সের খেলা মানেই বাংলাদেশের মানুষের মনোযোগ থাকত সে ম্যাচ নিয়ে। কিন্তু গতবার সে মনোযোগটা সম্পূর্ণ নিজের করে পেয়েছে হায়দরাবাদ। দর্শক সংখ্যা আর দলকে নিয়ে মাতামাতিতে আগ্রহে টান পড়ায় টনক নড়েছে কলকাতার। ২০১৯ আইপিএলে তাই একজন বাংলাদেশি ক্রিকেটার নিতে চাইছে তারা। এ জন্য রীতিমতো ফেসবুকে পরামর্শ চেয়েছে তারা!

সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে তারা পোস্ট করেছিল, ‘কেকেআরের বাংলাদেশি সমর্থকেরা! আপনারাই যেহেতু আপনাদের খেলোয়াড়দের সবচেয়ে ভালো জানেন, তাই সুযোগ করে দেওয়া হলো কোন বাংলাদেশি খেলোয়াড়কে ২০১৯ সালের আইপিএলে কেকেআরে দেখতে চান সেটা জানানোর। একটি ভিডিওতে আপনার পরামর্শ জানিয়ে পাঠিয়ে দিন।’

এমন আহ্বানে অনেকেই মন্তব্য করে তাদের পছন্দের কথা জানিয়েছেন। মুশফিকুর রহিম, মাহমুদউল্লাহ, লিটন দাস, সৌম্য সরকার—অনেকের নামই উঠে এসেছে। আবার অনেকে মজা করে জাতীয় দল থেকে বিস্মৃত হওয়া অনেক ক্রিকেটারের নাম বলেছেন। কিন্তু পাঠকদের অনেক বড় এক অংশ ক্ষুব্ধ প্রতিক্রিয়া জানিয়েছেন। মাশরাফি বিন মুর্তজা ও সাকিবকে নিয়মিত খেলতে না দেওয়া ও দল থেকে বিদায় দেওয়ার প্রক্রিয়াটা স্বচ্ছ না হওয়ার অভিযোগ তুলেছেন তারা। সে সঙ্গে কোনো বাংলাদেশি ক্রিকেটারকেই যে কেকেআরে তারা দেখতে চান না সেটাও জানিয়ে দিয়েছেন এই সমর্থকেরা।

এবারের আইপিএলে শুধু সাকিবই একমাত্র বাংলাদেশি হিসেবে দল নিশ্চিত করেছেন। সানরাইজার্সেই খেলছেন এই অলরাউন্ডার। ১৮ ডিসেম্বরে শেষ নিলাম অনুষ্ঠিত হবে। সে নিলামের চূড়ান্ত তালিকায় দুজন বাংলাদেশি ক্রিকেটারের সুযোগ মিলেছে। উইকেটরক্ষকদের তালিকায় আছেন মুশফিক, অলরাউন্ডারের তালিকায় আছেন মাহমুদউল্লাহ। দুজনেরই ভিত্তি মূল্য ৫০ লাখ রুপি। বাংলাদেশি দর্শক টানতে তবে কি এ দুজনের যেকোনো একজনকেই টানতে চায় কলকাতা?

বিজ্ঞাপন
মন্তব্য পড়ুন 0
বিজ্ঞাপন