সেঞ্চুরি যেন কোহলির কাছে এখন সোনার হরিণ।
সেঞ্চুরি যেন কোহলির কাছে এখন সোনার হরিণ।ছবি : রয়টার্স

ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে টেস্ট অভিষেক ২০১১ সালে। এরপর ১০ বছরে ৯১ টেস্টে ১৫৩ ইনিংসে সেঞ্চুরি করেছেন ২৭টি। টেস্টে অভিষেকের তিন বছর আগে শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে প্রথম ওয়ানডে, এরপর থেকে ২৫৩ ওয়ানডেতে সেঞ্চুরি করেছেন ৪৩টি।

বলা হচ্ছে বিরাট কোহলির কথা। সেঞ্চুরি কীভাবে করতে হয়, বর্তমান সময়ের ব্যাটসম্যানদের মধ্যে এই প্রশ্নের উত্তর কোহলির চেয়ে ভালো কারও জানা নেই। অনেকের মতো সেঞ্চুরির দৌড়ে ভারতেরই কিংবদন্তি শচীন টেন্ডুলকারকে পেছনে ফেলা কোহলির জন্য সময়ের ব্যাপার মাত্র। কিন্তু মুড়িমুড়কির মতো সেঞ্চুরি করা সে ব্যাটসম্যানই যদি বলেন যে সেঞ্চুরি করার জন্য সেঞ্চুরি নিয়ে আলাদা করে চিন্তা করেন না, তাহলে আশ্চর্য হওয়াই স্বাভাবিক।

বিজ্ঞাপন

ব্যক্তিগত মাইলফলক নয়, বরং দলীয় অর্জনকেই সব সময় বড় করে দেখেছেন বলে জানিয়েছেন কোহলি, ‘জীবনে কখনো সেঞ্চুরি করার জন্য খেলিনি। এই কারণেই মনে হয় এত কম সময়ে অনেক সেঞ্চুরি করতে পেরেছি। আমার কাছে দলীয় অর্জনই বড়। দলের প্রয়োজনে অবদান রাখতে পারাই আমার মূল লক্ষ্য।’

default-image

দল না জিতলে সেঞ্চুরি করে কোনো লাভ নেই, কোহলির দৃষ্টিভঙ্গি এমনই, ‘আমি সেঞ্চুরি করার পরও দল যদি জিততে না পারে, সে সেঞ্চুরির কোনো মূল্য নেই। ব্যাপারটা এমন না যে ক্যারিয়ারের শেষে আপনি সেঞ্চুরি আর রানসংখ্যার দিকে তাকিয়ে থাকবেন। আপনার খেলা দলের ওপর কীভাবে প্রভাব ফেলেছিল, সেটাই গুরুত্বপূর্ণ।’

তবে কোহলির এখন একটু কি সেঞ্চুরি নিয়ে ভাবনা আসে? সেই ২০১৯ সালের নভেম্বরে বাংলাদেশের বিপক্ষে দিবারাত্রির টেস্টে যে সেঞ্চুরি করেছিলেন ভারত অধিনায়ক, এরপর আর সেঞ্চুরির দেখা নেই তাঁর ব্যাটে। শেষ ওয়ানডে সেঞ্চুরি তো এসেছে আরও আগে, অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে ২০১৯ সালের মার্চে। এরপর পৃথিবীতে করোনাভাইরাস মহামারি রূপ নিল, খেলাধুলা বন্ধ হলো, আবার চালুও হলো—এই গোটা সময়ে কোহলি থেকেছেন সেঞ্চুরিহীন। একের পর এক সেঞ্চুরি করা ব্যাটসম্যানের কাছে গত প্রায় দেড় বছর ধরে সেঞ্চুরি হয়ে পড়েছে সোনার হরিণ।

default-image

গত রাতে ইংল্যান্ডের বিপক্ষে সিরিজের দ্বিতীয় ওয়ানডেতে স্পিনার আদিল রশিদের বলে ৬৬ রানে আউট হয়েছেন কোহলি। হাফসেঞ্চুরি করেছিলেন আগের ম্যাচেও। কিন্তু ভারতের অধিনায়ক হাফসেঞ্চুরিগুলোকে সেঞ্চুরিতে রূপান্তরিত করতেই পারছেন না যেন।

বিজ্ঞাপন

দুই ম্যাচ শেষে ইংল্যান্ডের বিপক্ষে ওয়ানডে সিরিজে এখন ১-১ সমতায় আছে ভারত। তিন ওয়ানডের সিরিজের শেষ ম্যাচটি আগামীকাল পুনেতে, শুরু হবে বাংলাদেশ সময় বেলা দুইটায়।

মন্তব্য করুন