বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন
default-image

নিচের দিকে মেরে খেলার গুণের কারণেই হেটমায়ার আইপিএলের গুরুত্বপূর্ণ খেলোয়াড়। এর পেছনে যে স্ত্রীর বড় ভূমিকা সেটিই বলেছেন হেটমায়ার, ‘আমি আগে উইকেটে গিয়ে প্রতিপক্ষের বোলারদের খুব বেশি সুযোগ দিয়ে ফেলতাম। আউট হয়ে যেতাম দ্রুত। পরে স্ত্রীর সঙ্গে কথা বলি ব্যাপারটা নিয়ে। সে আমার খেলায় কিছু পরিবর্তন আনার জন্য বলে, আমি সেটি করে সফল হয়েছি। আমার স্ত্রীই আমার সবচেয়ে বড় কোচ। এখন আমি উইকেটে গিয়ে দুই-একটা বল দেখি, উইকেটটা বোঝার চেষ্টা করি, এরপর নিজের খেলা খেলি।’

আইপিএল নানা দেশের নানা প্রতিভার সম্মিলন। হেটমায়ারের এটি খুব ভালো লাগে। এবারের আইপিএলে অন্যদের কাছ থেকেও কিছু শিখতে চান, ‘আমি রিভার্স সুইপটা ভালো খেলি না। আমি জস বাটলারেরর কাছ থেকে রিভার্স সুইপটা শিখতে চাই। এই শটটা বাইরে থেকে দেখলে খুব সহজ মনে হয়, কিন্তু আসলে এটি খেলা খুবই কঠিন। একই সঙ্গে শিখতে চাই স্কুপ মারাও।’

default-image

ভারতে আইপিএল খেলাটা বেশ উপভোগ করছেন হেটমায়ার। ব্যাটারদের জন্য যে ভারতের মাঠগুলো বেশ ভালো, তা স্বীকার করে নিলেন তিনি। ভারতের মাটিতে আরও অনেক কিছু শিখতে চান তিনি। শেখার যে কোনো শেষ নেই, সেটা আবার প্রমাণ করলেন হেটমায়ার। সাফল্যের সঙ্গে ব্যাটিং করার পরও বাটলারের থেকে একটি শট শিখতে চান তিনি। ওয়েস্ট ইন্ডিজের তারকা ক্রিকেটার শিমরন হেটমেয়ার বলেছেন, ‘রিভার্স সুইপ কী করে মারতে হয়, সেটা জোস বাটলারের কাছ থেকে শিখতে চাই। অনুশীলনে চেষ্টা করেছি। কিন্তু বারবার আউট হয়ে যাই। স্কুপ ব্যাটিংও শিখতে চাই। এটা মাঠের বাইরে থেকে দেখলে খুব সহজ মনে হয়। কিন্তু মোটেও তেমন নয়।’

ক্রিকেট থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন