ক্রিকেট দক্ষিণ আফ্রিকার নতুন প্রধান নির্বাহী ফোলেতসি মোসেকি বলেছেন, দক্ষিণ আফ্রিকান ক্রিকেটার্স অ্যাসোসিয়েশনের সঙ্গে সমঝোতার কারণে তারা কাউকে আইপিএলে খেলা থেকে বিরত রাখতে পারবে না। দুটি সংস্থাই ক্রিকেটারদের জীবিকা ও জাতীয় দলের হয়ে খেলার মধ্যে একটা ভারসাম্য রাখতে চায়, জানানো হয়েছে এমন।

বাংলাদেশের বিপক্ষে দলে নেওয়া হয়েছে পেসার লুথো সিপামলা ও লিজাড উইলিয়ামসকে। সিপামলার টেস্ট অভিজ্ঞতা তিন ম্যাচের, সর্বশেষ নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে সিরিজে ছিলেন। উইলিয়ামস এখনো টেস্ট অভিষেকের অপেক্ষায়। এখন পর্যন্ত একটি ওয়ানডে ও ছয়টি টি-টোয়েন্টি খেলেছেন এ ডানহাতি পেসার। পেস আক্রমণে সবচেয়ে অভিজ্ঞ ১৩টি টেস্ট খেলা ডুয়ান অলিভিয়েরই। আছেন এক টেস্টের অভিজ্ঞতা থাকা গ্লেন্টন স্টুরম্যান ও দুটি ওয়ানডে খেলা ড্যারিন ডুপাভিলন।

বোলিং আক্রমণে কেশব মহারাজের সঙ্গে আছেন অফ স্পিনার সাইমন হারমার। প্রথমবারের মতো টেস্ট দলে ডাক পেয়েছেন ব্যাটসম্যান খায়া জন্ডো। আছেন উইকেটকিপার–ব্যাটসম্যান রায়ান রিকেলটন ও উইয়ান মুল্ডারও। আছেন নিউজিল্যান্ড সফরে আলো ছড়ানো সারেল এরউইয়িও।

স্বাভাবিকভাবেই বাংলাদেশের বিপক্ষে দক্ষিণ আফ্রিকাকে এখন নামাতে হবে খর্বশক্তির দল। তবে তাদের নির্বাচকদের আহ্বায়ক ভিক্টোর এমপিটস্যাং বলেছেন, সিরিজ প্রতিদ্বন্দ্বিতাপূর্ণই হবে, ‘জাতীয় নির্বাচক প্যানেল ও আমি এ সিরিজ দেখতে মুখিয়ে আছি। আমাদের বিশ্বাস, টেস্ট সিরিজটি দারুণ প্রতিদ্বন্দ্বিতাপূর্ণ হবে।’

আইপিএলে খেলতে যাওয়া খেলোয়াড়দের কারণে নতুনদের জায়গা করে দেওয়ার সুযোগ হিসেবেই দেখছেন ভিক্টোর এমপিটস্যাং, ‘আইপিএলের খেলোয়াড়দের হারানোটা মোটেও কাম্য নয়। তবে আমরা ক্রিকেট দক্ষিণ আফ্রিকার প্রক্রিয়া মেনে চলি। ক্রমেই বাড়তে থাকা পাইপলাইনের সঙ্গে যারা (এ সিরিজের জন্য) নির্বাচিত হয়েছে, তাদের ওপর ভরসা রাখি।’

এ সুযোগকে কাজেও লাগাতে বলছেন ভিক্টোর এমপিটস্যাং, ‘দলের সবাইকেই দীর্ঘ সময় ধরে তাদের সামর্থ্য দেখানোর ওপর ভিত্তি করে নেওয়া হয়েছে। এই কাঙ্ক্ষিত উপলক্ষে তাদের কী দেওয়ার আছে, সেটি দেখানোর সময় এখন।’

এদিকে ব্যক্তিগত কারণে বাংলাদেশের বিপক্ষে খেলতে পারবেন না ব্যাটসম্যান জুবায়ের হামজা।

দক্ষিণ আফ্রিকার টেস্ট দল

ডিন এলগার (অধিনায়ক), টেম্বা বাভুমা (সহ-অধিনায়ক), ড্যারিন ডুপাভিলন, সারেল এরউইয়ি, সাইমন হারমার, কেশব মহারাজ, উইয়ান মুল্ডার, ডুয়ান অলিভিয়ার, কিগান পিটারসেন, রায়ান রিকেলটন, লুথো সিপামলা, গ্লেন্টন স্টুরমান, কাইল ভেরেইনা, লিজাড উইলিয়ামস, খায়া জন্ডো।