বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন

ভিক্টোরিয়া রাজ্যের সরকার আজ এক বিবৃতিতে খবরটি জানিয়েছে। ক্রীড়ামন্ত্রী মার্টিন পাকুলা জানিয়েছেন, ১১ জুন এ ম্যাচ অনুষ্ঠিত হবে।

আর্জেন্টাইন তারকা লিওনেল মেসি ও ব্রাজিলের তারকা নেইমার ম্যাচটি খেলবেন বলে আশা প্রকাশ করেন পাকুলা। শুধু এ দুজন তারকাই নন, ব্রাজিল-আর্জেন্টিনা দলের বড় তারকাদের নিয়েই প্রীতি ম্যাচটি মাঠে গড়ানোর আশা করছেন ভিক্টোরিয়ার ক্রীড়ামন্ত্রী।

মেলবোর্নের একটি রেডিও স্টেশনকে পাকুলা বলেছেন, ‘আলোচনার ভিত্তিতে আমরা আশা করছি, মেসি ও নেইমারের মতো খেলোয়াড়েরা খেলবেন। আমরা এ বিষয়ে শতভাগ নিশ্চয়তা দিতে পারছি না। তবে আমাদের বলা হয়েছে, বিশ্বকাপের প্রস্তুতি নিতে ম্যাচটি তাদের জন্য গুরুত্বপূর্ণ।’

পাঁচ বছর আগে এই এমসিজিতেই ব্রাজিলের বিপক্ষে প্রীতি ম্যাচ ১-০ গোলে জিতেছিল আর্জেন্টিনা। মেসি খেললেও সে ম্যাচে নেইমারকে দেখতে পায়নি এমসিজিতে উপস্থিত প্রায় ৯৫ হাজার দর্শক। এবারও প্রচুর দর্শকের আশা করছেন পাকুলা, ‘এমন ম্যাচে লাখ লাখ দর্শক চোখ রাখবেন মেলবোর্নে। ভিক্টোরিয়াতেও অনেক পর্যটকের সমাগম হবে।’

ব্রাজিল ও আর্জেন্টিনা গত সেপ্টেম্বরে সাও পাওলোয় বিশ্বকাপ বাছাইপর্বে সর্বশেষ মুখোমুখি হয়েছিল। সেটি ছিল কাতার বিশ্বকাপ বাছাইপর্বের ম্যাচ। আর্জেন্টিনার চার খেলোয়াড়ের বিরুদ্ধে সে ম্যাচে করোনা বিধিনিষেধ ভাঙার অভিযোগ তুলে খেলা পণ্ড করেছিল ব্রাজিলের জাতীয় স্বাস্থ্য এজেন্সি। দুই দলই জায়গা করে নিয়েছে কাতার বিশ্বকাপের মূলপর্বে। বৃহস্পতিবার থেকে ব্রাজিল-আর্জেন্টিনা প্রীতি ম্যাচের টিকিট বিক্রি শুরু করবে অস্ট্রেলিয়া।

এক দশক আগে এমসিজিতে অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে প্রীতি ম্যাচে মেসির গোলে ১-০ ব্যবধানে জিতেছিল আর্জেন্টিনা। এ বছর বেশ কিছু দল অস্ট্রেলিয়ায় প্রীতি ম্যাচ খেলবে। ২৫ মে সিডনিতে অস্ট্রেলিয়া এ লিগের তারকাদের নিয়ে গড়া দলের বিপক্ষে প্রীতি ম্যাচ খেলবে বার্সেলোনা। জুলাইয়ে এমসিজিতে প্রীতি ম্যাচ খেলবে ম্যানচেস্টার ইউনাইটেড ও ক্রিস্টাল প্যালেস।

২১ নভেম্বর থেকে শুরু হবে কাতার বিশ্বকাপ। মেক্সিকো, পোল্যান্ড ও সৌদি আরবের সঙ্গে ‘সি’ গ্রুপে খেলবে আর্জেন্টিনা। ক্যামেরুন, সার্বিয়া ও সুইজারল্যান্ডকে নিয়ে ‘জি’ গ্রুপে ব্রাজিল।

ফুটবল থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন