গোলকিপার মার্তিনেজে মুগ্ধ মেসি

তিনটি পেনাল্টি ঠেকিয়ে আর্জেন্টিনাকে ফাইনালে তুললেন মার্তিনেজ।ছবি: রয়টার্স

আর্জেন্টিনার হয়ে শিরোপা-খরা ঘোচানোর অভিযান নিয়ে এবারের কোপা আমেরিকায় পা রেখেছেন লিওনেল মেসি। আর্জেন্টিনা অধিনায়ক তাঁর সেই অভিযান সফলভাবে শেষ করতে যে কতটা দৃঢ়প্রতিজ্ঞ, সেটি বোঝাই যাচ্ছে। প্রতিটি ম্যাচে মেসির শরীরী ভাষাই বলে দিচ্ছে অনেক কিছু। আজ সেমিফাইনালেও দলকে এগিয়ে দেওয়া লাওতারো মার্তিনেজের গোলেও অবদান ছিল তাঁর। তবে আর্জেন্টিনাকে ফাইনালে তোলার নায়ক তিনিও নন, লাওতারো মার্তিনেজও নন। টাইব্রেকারে গড়ানো ম্যাচে তিনটি পেনাল্টি ঠেকিয়ে নায়ক আরেক ‘মার্তিনেজ’, গোলকিপার এমিলিয়ানো মার্তিনেজ।

চারদিক থেকে তাই প্রশংসায় ভাসছেন আর্জেন্টিনার গোলকিপার। টুইটার-ইনস্টাগ্রাম ছেয়ে যাচ্ছে এমিলিয়ানো মার্তিনেজের প্রশংসার বানে। তবে আর্জেন্টিনার গোলকিপারের কানে হয়তো সবচেয়ে মধুর হয়ে বাজবে লিওনেল মেসির করা প্রশংসাটাই। ম্যাচ শেষে আর্জেন্টিনা অধিনায়ক মেসি তাঁর সতীর্থকে প্রশংসায় ভাসিয়েছেন এভাবে, ‘আমাদের একজন এমি আছে (এমিলিয়ানো মার্তিনেজ)। সে সত্যিকার অর্থেই একজন ফেনোমেনোন।’

কলম্বিয়ার বিপক্ষে আজ সেমিফাইনালের ম্যাচটিতে ৭ মিনিটেই এগিয়ে যায় আর্জেন্টিনা। মেসির দুর্দান্ত এক পাস থেকে গোলটি করেন ইন্টার মিলানের স্ট্রাইকার লাওতারো মার্তিনেজ। কিন্তু ৬১ মিনিটে লুইস দিয়াসের গোলে সমতায় ফেরে কলম্বিয়া। এরপর আর কোনো দলই গোল করতে না পারায় ম্যাচ গড়ায় টাইব্রেকারে। ম্যাচ টাইব্রেকারে গড়ানোয় আর্জেন্টিনার বেশির ভাগ সমর্থকই হয়তো নখ কামড়াচ্ছিলেন।

ম্যাচ শেষে মেসির বড় প্রশংসা পেলেন এমিলিয়ানো মার্তিনেজ।
ছবি: রয়টার্স

এর কারণও আছে। কলম্বিয়ার গোলবারের নিচে অনেক দিনের পোড় খাওয়া সৈনিক দাভিদ ওসপিনা, যাঁর ভান্ডারে এ ম্যাচের আগে ছিল কলম্বিয়ার হয়ে ১১১টি ম্যাচ খেলার অভিজ্ঞতা। অন্যদিকে, আর্জেন্টিনার গোলবারের নিচে আন্তর্জাতিক ফুটবলে একদমই আনকোরা একজন। মার্তিনেজের আর্জেন্টিনার জার্সিতে যে অভিষেকই হয়েছে গত মাসে, চিলির বিপক্ষে বিশ্বকাপ বাছাইপর্বের ম্যাচ দিয়ে। কলম্বিয়ার বিপক্ষে ম্যাচের আগে আন্তর্জাতিক ফুটবলে তাঁর অভিজ্ঞতা মাত্র ৬টি ম্যাচ খেলার।

আর্জেন্টিনার ‘বীর’ আজ মার্তিনেজ।
ছবি: রয়টার্স

এমন একজন গোলকিপার কি বাঁচিয়ে রাখতে পারবেন আর্জেন্টিনার কোপা আমেরিকা অভিযান? এ নিয়ে একটু যেন সংশয় ছিল আর্জেন্টিনার সমর্থকদের। অনেকেই হয়তো ভেবেছিলেন, মেসির স্বপ্নটা এবার সেমিফাইনালেই ভাঙতে চলেছে। কে কী ভাবছিলেন তা বিষয় নয়, মেসির কিন্তু এমিলিয়ানো মার্তিনেজের ওপর ঠিকই বিশ্বাস ছিল। ম্যাচ শেষে অন্তত সেটাই বলেছেন আর্জেন্টিনার অধিনায়ক, ‘আমরা ওর ওপর বিশ্বাস রেখেছি।’

দেশকে কোপার ফাইনালে তুলে আবেগের কাছে নিজেকে সমর্পণ করলেন মার্তিনেজ।
ছবি: রয়টার্স

এমিলিয়ানো মার্তিনেজ মেসিদের সেই বিশ্বাসের মূল্য দিয়েছেন খুব দারুণভাবে। মেসিও তাই ম্যাচ শেষে গর্ব নিয়ে বলতে পারলেন, ‘আমরা টুর্নামেন্টে সব কটি ম্যাচ খেলার লক্ষ্য পূরণ করতে পেরেছি। এখন আমরা ফাইনালে।’ ব্রাজিলের বিপক্ষে ফাইনালেও কি এমিলিয়ানো মার্তিনেজ এমন কিছু করে দেখাতে পারবেন? পূরণ করতে পারবেন মেসির আর্জেন্টিনার হয়ে একটি শিরোপা জয়ের স্বপ্ন! সময়ই দেবে এর উত্তর।