লিওনেল মেসি ও আঁতোয়ান গ্রিজমান—বার্সেলোনার দুই তারকা
লিওনেল মেসি ও আঁতোয়ান গ্রিজমান—বার্সেলোনার দুই তারকা ছবি: টুইটার

বার্সেলোনায় সুখ খুঁজে পাচ্ছেন আঁতোয়ান গ্রিজমান?

মোটেই না। বরং তাঁর মনের মধ্যে তুষের আগুন জ্বলার কথা। একাদশে নিয়মিত সুযোগ মিলছে না। মিললেও বার্সার জার্সিতে আতলেতিকো মাদ্রিদের পারফরম্যান্স অনূদিত করতে পারছেন না।

তাঁর দেশেরই সাবেক ডিফেন্ডার বিজেন্তে লিজারাজু তো সরাসরিই বলেছেন, ‘বার্সেলোনার হয়ে ফুটবল খেলাটা ভুলে গেছেন গ্রিজমান।’ গত মৌসুমের শেষভাগে বাজে ফর্ম চলতি মৌসুমেও কাটিয়ে উঠতে পারছেন না বিশ্বকাপজয়ী এ ফরাসি ফরোয়ার্ড।

বিজ্ঞাপন
default-image

তবে দু-একজন গ্রিজমানের বাজে ফর্মের পেছনে দুষছেন মাঠের বাইরের বিষয়কে। গ্রিজমান ভালো খেলার চেষ্টা করছেন না—সেটি মূল কারণ নয়, এরিক ওলহাটস মনে করেন, বার্সায় মেসির ‘একনায়কতন্ত্র’ চলে বলেই গ্রিজমান নিজের খেলাটা খেলতে পারছেন না।

ওলহাটস একসময় ছিলেন গ্রিজমানের পরামর্শক। তাঁর মতে, বার্সায় মেসি অত্যধিক ক্ষমতাবান। তাঁর কথায়ই সব কলকাঠি নড়ে। এমন পরিস্থিতিতে গ্রিজমানের নিজেকে মেলে ধরা কঠিন বলেই মনে করেন ওলহাটস। তিনি সোজাসাপ্টাই বলেছেন, গ্রিজমানের প্রতি মেসির আচরণ ‘শোচনীয়’।

ফরাসি সাময়িকী ‘ফ্রান্স ফুটবল’কে কথাগুলো বলেন ওলহাটস, ‘ক্লাব (বার্সেলোনা) বাজে সময়ের মধ্য দিয়ে যাওয়ার সময় আঁতোয়ান যোগ দিয়েছিল, যেখানে সব বিষয়েই মতামত দিয়ে থাকে মেসি। সে একই সঙ্গে সম্রাট ও রাজা। আঁতোয়ানের যোগ দেওয়াকে সে ভালো চোখে দেখেনি। (ওর প্রতি) তার আচরণ শোচনীয় এবং সেটি তাকে বুঝিয়েও দিয়েছে।’

বিজ্ঞাপন
default-image

বাইরে থেকে মেসিকে যেমন দেখা যায়, আসলে সেই মেসি অনেকটাই অন্য রকম বলে দাবি ওলহাটসের, ‘সব সময় আঁতোয়ানকে বলতে শুনেছি মেসির সঙ্গে কোনো সমস্যা নেই, এর উল্টো কোনো কিছু শুনিনি। দলে খেলোয়াড় নেওয়া এবং বাদ দেওয়ায় মেসির সিদ্ধান্ত নেওয়ার ক্ষমতা কতটুকু—সে ক্লাব ছাড়তে চেয়ে এটাই দেখতে চেয়েছিল। কিন্তু শেষ পর্যন্ত থেকে গেছে। ধ্রুপদি মেসি! মাঠে যত ভালো, মাঠের বাইরে ততটাই বাজে। বার্সেলোনা বেশ কিছুদিন ধরেই ভুগছে। ক্যানসার চলে গেলেও তার দাগ তো থেকেই যায়।’

default-image

বার্সায় অভিষেক মৌসুমে সব প্রতিযোগিতা মিলিয়ে ৪৮ ম্যাচে ১৫ গোল করেছিলেন গ্রিজমান। এ মৌসুমে ৯ ম্যাচে করেছেন ২ গোল। আশাব্যঞ্জক পারফরম্যান্স না হওয়ায় বার্সায় গ্রিজমানের ভবিষ্যৎ নিয়ে প্রশ্ন উঠেছে।

কিন্তু ওলহাটস মনে করেন, এটা গ্রিজমানের সমস্যা নয়। কারণ, সমস্যা যেখানে সেটি সমাধান করার ক্ষমতা তাঁর নেই, ‘সে নয়, ক্লাব অসুস্থ। গত বছর গ্রিজমান আসার পর মেসি তার সঙ্গে কথা বলেনি, বল পাস দেয়নি। মানিয়ে নেওয়ার ক্ষেত্রে তাই নেতিবাচক পরিস্থিতি তো সৃষ্টি হবেই। সেসব ঘটনারই ছাপ পড়েছে এবং সেটি টের পাওয়া যাবে না।’

ওলহাটস অবশ্য গ্রিজমানের ঘুরে দাঁড়ানো নিয়ে আশাবাদী। পরীক্ষিত পারফরমার বলেই ফরাসি তারকা ছন্দে ফিরবেন, মনে করেন তাঁর সাবেক পরামর্শক।

মন্তব্য পড়ুন 0