default-image

নির্মম!

এক কথায় এটুকুই। আর এ নির্মমতা কাল মেনে নিতে হয়েছে সাসসুয়োলোকে। সিরি ‘আ’তে কাল নাপোলির কাছে ২–০ গোলে হেরেছে দলটি। খেলায় হার–জিত থাকবেই। এটুকু তো মেনে নিতেই হবে। কিন্তু সেই হার যদি হয় চার গোল করার পরও! নাপোলির মাঠে খেলতে গিয়ে কাল জালে চারবার বল পাঠিয়েছে সাসসুয়োলো। কিন্তু অফসাইড নিয়মের খাঁড়ায় সবগুলো গোলই বাতিল করে দেয় ভিডিও সহকারি রেফারি (ভিএআর) বা ‘ভার’ এবং মাঠের রেফারি। এরপর যদি বলা হয় ম্যাচে হারের পর সাসসুয়োলো দুঃখ পেয়েছে, সেটাও তো কম হয়ে যায়!

ম্যাচে নাপোলিও এগিয়ে গিয়েছিল ৮ মিনিটে। ক্লাবের হয়ে ১৯৩তম ম্যাচে এসে প্রথম গোলটি করেন এলসেইড হায়াসাজ। এরপর শুরু হয় সাসসুয়োলোর মর্মান্তিক আখ্যান। ৩২ মিনিটে নাপোলির জালে বল পাঠান ফিলিপ জুরিচিচ। কিন্তু অফসাইড নিয়ম ভাঙায় পতাকা তুলে গোলটি বাতিল করেন লাইনসম্যান। এর ৪ মিনিট পর সেই জুরিচিচ আবারও ‘ট্র্যাজেডি কিং’। মিডফিল্ডার হামেদ জুনিয়র তারাওরের শট রুখে দেন নাপোলি গোলরক্ষক ডেভিড ওসপিনা। ফিরতি বলে বল জালে জড়ান জুরিচিচ। গোলটি বৈধ ছিল কি না তা নিশ্চিত হতে ‘ভার’–এর সাহায্য নেন মাঠের রেফারি। বেশ সময় নেন তিনি। ওদিকে কিক অফ শুরুর জন্য অপেক্ষা করছিল নাপোলি। রেফারি মাঠে ঢুকে অফসাইডের কারণে বাতিল করেন গোল। জুরিচচ নয় অফসাইড ছিলেন তারাওরে।

বিরতির পর ২ মিনিটের মাথায় আবারও নাপোলির জালে পাঠান সাসসুয়োলোর ফ্রান্সেসকো কাপুতো। কিন্তু ইতালিয়ান ফরোয়ার্ড ইঞ্চিখানেক ব্যবধানে অফসাইড ছিলেন, সেটা ধরা পড়ে ‘ভার’–এ। ১০ মিনিট পর যে ‘লাউ সেই কদু’! আবার অফসাইড নিয়ম ভাঙায় গোল বাতিল। এবারও খলনায়ক কাপুতো। ডোমেনিকো বেররারদির দুর্দান্ত বাঁকানো শট রুখতে পারেননি ওসপিনা। জালে ঢুকে যায় বল। ঠিক তখন প্রমাণ ব্যবধানে অফসাইড পজিশনে ছিলেন কাপুতো। মজার বিষয়, গোলটি নিয়ে কোনো প্রতিবাদ করেনি নাপোলি। বল নিয়ে তারা মাঝমাঠে কিক অফের অপেক্ষায় ছিল। আবারও ‘ভার’–এর সাহায্য নিয়ে গোলটি বাতিল করেন রেফারি অরলিয়ানো। পরে গোল করে সাসসুয়োলোর এই ‘কাটা ঘায়ে নুনের ছিটা’ দেন অ্যালান।

বাতিল হওয়া এ চারটি গোল নিয়ে সরাসরি কোনো মন্তব্য করেননি সাসসুয়োলো কোচ রবার্ট ডি জারবি, ‘আমরা বল নিয়ে এবং বল ছাড়াও ভালো খেলেছি। তবে ৩ পয়েন্ট পেতে আরও বেশি দৃঢ় বিশ্বাসের দরকার ছিল।’

কিন্তু মাঠে বিশ্বাস ভাঙতে শুরু করলে তা খুব কম সময়ই পুনরুদ্ধার করা যায়। চার–চারটি গোল বাতিল হলে তো তা প্রায় অসম্ভব।

বিজ্ঞাপন
ফুটবল থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন