রিয়াল মাদ্রিদ কোচ জিনেদিন জিদান
রিয়াল মাদ্রিদ কোচ জিনেদিন জিদানছবি: টুইটার

প্রায় শেষ অঙ্কে পৌঁছে গিয়েছে এই মৌসুমের চ্যাম্পিয়নস লিগ। আজ থেকে শুরু হচ্ছে সেমিফাইনাল। প্রথম ম্যাচেই ১৩ বারের শিরোপাজয়ী রিয়াল মাদ্রিদ খেলবে ইংলিশ ক্লাব চেলসির বিপক্ষে। প্রথম লেগের এই ম্যাচ হবে রিয়ালের মাঠ এস্তাদিও আলফ্রেদো দি স্তেফানোয়।

যে ফ্র্যাঙ্ক ল্যাম্পার্ডের অধীনে চেলসিকে মনে হচ্ছিল দিকহীন জাহাজের মতো, মনে হচ্ছিল এই মৌসুমে আর কোনো শিরোপার আশা না করলেই হবে, টমাস টুখেল এসে অবস্থার পরিবর্তন করে দিয়েছেন রাতারাতি। চেলসিও এখন স্বপ্ন দেখছে অবিশ্বাস্য কিছু ঘটিয়ে দেওয়ার। আর চ্যাম্পিয়নস লিগের মতো মঞ্চে তাদের যে অবিশ্বাস্য কিছু ঘটিয়ে দেওয়ার সামর্থ্য আছে, সেটা তারা ২০১২ সালে বেশ ভালোই দেখিয়েছে। কিন্তু তা সত্ত্বেও টুখেল গায়ে বাতাস লাগিয়ে ঘুরতে নারাজ। তিনি বেশ ভালোই জানেন, রিয়াল খেলোয়াড়দের মান কেমন, ‘রিয়াল মাদ্রিদে অনেক মানসম্পন্ন খেলোয়াড় রয়েছে। আমাদের সেই চ্যালেঞ্জের মোকাবিলা আত্মবিশ্বাসের সঙ্গে করতে হবে।’

বিজ্ঞাপন
default-image

ওদিকে একের পর এক চোটের কারণে বিপর্যস্ত রিয়ালকে এত দূর পর্যন্ত নিয়ে আসার পেছনে কোচ জিনেদিন জিদানের অবদানই বেশি। এর আগে জিদানকে অনেকেই কৌশলী কোচ বলে মানতে চাইতেন না। কিন্তু সীমিত স্কোয়াড নিয়ে এবার জিদান যেভাবে এখনো ‘ডাবল’ জয়ের স্বপ্নে বুঁদ রেখেছেন রিয়াল সমর্থকদের, তাতে সমালোচকদের মুখ বেশ ভালোভাবেই বন্ধ হয়েছে। আগের রাউন্ডে আরেক ইংলিশ ক্লাব লিভারপুলকে হারিয়ে সেমিতে তোলা রিয়ালের আত্মবিশ্বাসও তাই তুঙ্গে।

চ্যাম্পিয়নস লিগে এবার বাকি যে তিন দল আছে, সে তিন দলের কোচকে (পিএসজির মরিসিও পচেত্তিনো, চেলসির টুখেল ও সিটির গার্দিওলা) হারানোর অভিজ্ঞতা নেই জিদানের। এই ম্যাচ জেতার মাধ্যমে সেই অর্জনের পথে একটু এগোবেন জিদান?

চোটের কারণে গত রাউন্ডের মতো এ ম্যাচেও মাঠের বাইরে দলের অধিনায়ক সের্হিও রামোস। চোটে পড়ে এ ম্যাচ খেলতে পারছেন না ফরাসি লেফটব্যাক ফারলাঁ মেন্দিও। ওদিকে চোট কাটিয়ে ফিরেছেন জার্মান মিডফিল্ডার টনি ক্রুস। রিয়ালের মাঝমাঠে যথারীতি কাসেমিরো ও মদরিচের সঙ্গে তাঁকেই দেখা যাবে।

default-image

তবে নিশ্চিতভাবেই দুই পক্ষের আলাদা আগ্রহ থাকবে বেলজিয়ান উইঙ্গার এদেন হ্যাজার্ডকে নিয়ে। চেলসি থেকে বছর দুয়েক আগে প্রায় ১২ কোটি ইউরোর বিনিময়ে রিয়ালে নাম লেখানো এই উইঙ্গার চোটে চোটে বিপর্যস্ত হয়ে রিয়াল সমর্থকদের এখনো নিজের দাম দেখাতেই পারেননি। হ্যাজার্ডের সামনে সুযোগ সাবেক ক্লাবের বুকে ছুরি চালিয়ে বর্তমান ক্লাবের সমর্থকদের মন জয় করে নেওয়ার। চোট থেকে ফিরে রিয়াল বেতিসের বিপক্ষে দ্বিতীয়ার্ধে হ্যাজার্ডকে কিছুক্ষণের জন্য নামিয়ে জিদান মোটামুটি নিশ্চিত করে দিয়েছেন, চেলসির বিপক্ষে ম্যাচে হ্যাজার্ডকে প্রথম থেকেই পাওয়া যাবে।

এদিকে সাবেক রিয়াল মাদ্রিদ মিডফিল্ডার মাতেও কোভাচিচকে এ ম্যাচে পাচ্ছে না চেলসি চোটের কারণে। মোটামুটি দলটায় আর চোটসংক্রান্ত সমস্যা নেই।

বিজ্ঞাপন
ফুটবল থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন