কোপার জন্য চূড়ান্ত দল আর কিছুদিনের মধ্যেই ঘোষণা করবে আর্জেন্টিনা
কোপার জন্য চূড়ান্ত দল আর কিছুদিনের মধ্যেই ঘোষণা করবে আর্জেন্টিনাছবি : রয়টার্স

দলে এখন আর গঞ্জালো হিগুয়েইন নেই। নেই কার্লোস তেভেজ কিংবা দিয়েগো মিলিতো। সের্হিও আগুয়েরোকে স্কোয়াডে রাখা হলেও কখনোই আর্জেন্টিনার মূল দলে নিয়মিত নন, তার ওপর বয়সও হয়ে গেছে তাঁর। ওদিকে পাওলো দিবালা কিংবা মাউরো ইকার্দির মতো স্ট্রাইকারদের তো ডাকাই হয় না।

আর্জেন্টিনার মূল স্ট্রাইকার হিসেবে এখন বলতে গেলে লাওতারো মার্তিনেজেরই আধিপত্য। মার্তিনেজের পাশাপাশি কয়েক বছর ধরে আর্জেন্টিনার স্কোয়াডে যে স্ট্রাইকার সুযোগ পেয়ে যাচ্ছিলেন, তিনি লুকাস আলারিও।

২০১৯ কোপা আমেরিকার পর থেকেই আর্জেন্টিনার মূল স্কোয়াডে আলারিওর আনাগোনা। খেলেন জার্মান ক্লাব বায়ার লেভারকুসেনে। রিভার প্লেট থেকে ২০১৭ সালে লেভারকুসেনে নাম লেখানোর পর থেকেই বেশ ভালো ফর্মে আছেন। যে কারণে ২৮ বছর বয়সে এসে জাতীয় দলে ডাক পাচ্ছেন।

বিশ্বকাপ বাছাইপর্ব কিংবা প্রীতি ম্যাচে দুই বছর ধরেই স্কোয়াডে তাঁর নামটা দেখা যায় অন্তত। এটা মোটামুটি নিশ্চিত ছিল, লাওতারোর অন্যতম বিকল্প স্ট্রাইকার হিসেবে কোপা আমেরিকায় এই আলারিওকে নিয়ে যাচ্ছেন স্কালোনি। কিন্তু বিধি বাম। হ্যামস্ট্রিংয়ের চোটে পড়ে ছয় থেকে আট মাসের জন্য মাঠের বাইরে চলে গেছেন এই স্ট্রাইকার। এর সঙ্গে নিশ্চিত হয়ে গেছে, এবার কোপায় আলারিওকে ছাড়াই খেলতে যাবেন মেসিরা।

বিজ্ঞাপন
default-image

আলারিওর ক্লাব লেভারকুসেনই নিশ্চিত করেছে খবরটা। ডান ঊরুর চোটের কারণে ছয় থেকে আট সপ্তাহ মাঠের বাইরে থাকতে হবে তাঁকে। লেভারকুসেন নিশ্চিত, এই মৌসুমে আলারিওর আর মাঠে নামা হচ্ছে না। আর না নামার অর্থ, কোপাতেও দেখা যাবে না ২৮ বছর বয়সী এই স্ট্রাইকারকে।

আগামী জুনের ১৩ তারিখ থেকে জুলাই মাসের ১০ তারিখ পর্যন্ত আয়োজিত হবে এবারের কোপা আমেরিকা। স্কালোনি যেভাবে আলারিওকে দলে ডাকছিলেন, কোপাতেও যে ডাকতেন, এটা মোটামুটি নিশ্চিত ছিল। চলতি মৌসুমে লেভারকুসেনের হয়ে ২৫ ম্যাচে ১১ গোল করেছিলেন আলারিও। করেছিলেন তিন গোলে সহায়তা। সব প্রতিযোগিতা মিলিয়ে ৩৩ ম্যাচে এর মধ্যেই ১৫ গোল করে ফেলা আলারিও এই বছরেই সবচেয়ে ভালো ফর্মে ছিলেন।

default-image

আলারিও না থাকার কারণে ইন্টার মিলানের স্ট্রাইকার লাওতারো মার্তিনেজের পাশাপাশি যেসব স্ট্রাইকার কোপা আমেরিকার আর্জেন্টিনার দলে সুযোগ পেতে পারেন, তাঁরা হলেন ম্যানচেস্টার সিটির সের্হিও আগুয়েরো, ক্যালিয়ারির জিওভান্নি সিমিওনে ও বেনেভেন্তোর আদোলফো গাইচ।

বিজ্ঞাপন
ফুটবল থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন