সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম টুইটারে জানা গেছে, ওই খেলোয়াড়ের বয়স ২৯ বছর। আইনগত কারণে তাঁর নাম প্রকাশ করা হয়নি। উত্তর লন্ডনে গ্রেপ্তার হওয়ার পর এখন পুলিশি হেফাজতে আছেন। গত মাসে ধর্ষণের অভিযোগে তাঁকে জিজ্ঞাসাবাদ করছে পুলিশ।

ইংল্যান্ডের পুলিশ সংস্থা স্কটল্যান্ড ইয়ার্ড বিবৃতিতে জানিয়েছে, সোমবার সকালের দিকে ওই খেলোয়াড়কে গ্রেপ্তার করা হয়। তিনি যে ক্লাবের, তাদের সঙ্গে যোগাযোগ করেছে টেলিগ্রাফ স্পোর্ট। সেই খেলোয়াড়ের গ্রেপ্তার হওয়ার খবর ক্লাবের জানা আছে এবং এ বিষয়ে তারা কোনো মন্তব্য করেনি।

লন্ডন মেট্রোপলিটন পুলিশের বিবৃতিতে বলা হয়, ‘গত ৪ জুলাই এক নারীর ধর্ষণের অভিযোগ আসে পুলিশের কাছে। অভিযোগে বলা হয়, ২০২২ সালের জুনে ধর্ষণের ঘটনাটি ঘটেছে।’

default-image

টেলিগ্রাফ জানিয়েছে, গ্রেপ্তার হওয়া খেলোয়াড় তাঁর ক্লাবের হয়ে প্রাক–মৌসুমে খেলতে পারবেন কি না, সেটি নিশ্চিত নয়। আগামী ৫ আগস্ট থেকে শুরু হবে ইংলিশ প্রিমিয়ার লিগের নতুন মৌসুম। নভেম্বরে কাতারে শুরু হতে যাওয়া বিশ্বকাপেও খেলার সুযোগ পেয়েছে গ্রেপ্তার হওয়া খেলোয়াড়ের দেশ। তাঁর দেশের নামও প্রকাশ করেনি সংবাদমাধ্যম।

ফুটবল থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন